বুধবার, ২২ মে ২০১৯ | বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   জাতীয়
  প্রত্যাবাসন শুরু আজ
  ফিরতে অনিচ্ছুক রোহিঙ্গারা
  15, November, 2018, 10:59:2:AM

নিজস্ব প্রতিবেদক : নির্যাতনের মুখে মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের প্রত্যাবাসন আজ শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। প্রথম দফায় উখিয়ার জামতলী ও টেকনাফের উনচিপ্রাং শরণার্থী শিবির থেকে ২২৬০ জন রোহিঙ্গাকে মিয়ানমারে ফেরত পাঠানো হবে। এ প্রক্রিয়ায় প্রতিদিন ১৫০ জন করে ১৫ দিনে প্রথম ধাপের এই প্রত্যাবাসন শেষ হবে। প্রত্যাবাসন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে ক্যাম্প দুটিতে নিরাপত্তা জোরদারসহ সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হলেও মিয়ানমারে ফিরে যেতে রাজি নন রোহিঙ্গারা। এমনকি  প্রত্যাবাসনের জন্য তালিকায় থাকা অনেক রোহিঙ্গা ঘর ছেড়ে লুকিয়ে বেড়াচ্ছেন। বরাবরের মতোই রোহিঙ্গারা বলছেন, দেশে ফেরার আগেই নাগরিকত্বসহ তাদের নানা দাবি-দাওয়া পূরণ না করলে তারা কিছুতেই মিয়ানমারে ফিরে যাবেন না। এদিকে, রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া স্থগিতের আহ্বান জানিয়ে মঙ্গলবার জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক হাই কমিশনার মিশেল বাশেলেট বলেছেন, রাখাইনে উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি হওয়ার আগে ফেরত পাঠানো হলে নিপীড়নের মুখে পালিয়ে আসা ওই জনগোষ্ঠীর জীবন ফের ঝুঁকিতে পড়তে পারে। উখিয়ার জামতলী রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ইনচার্জ ড. মো. শফিক উদ্দিন জানান, এই ক্যাম্প থেকে প্রথম দফায় ১২১ পরিবারের প্রায় পাঁচশো রোহিঙ্গার নাম তালিকায় রয়েছে। প্রত্যাবাসন কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। ক্যাম্পে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। তালিকায় থাকা রোহিঙ্গাদের ঘরে ঘরে গিয়ে বোঝানো হচ্ছে। ক্যাম্পের ইমাম, মাঝি, স্বেচ্ছাসেবক, ব্লক উন্নয়ন কমিটির লোকজনকে নিয়ে উদ্বুদ্ধকরণ সভা করা হয়েছে। টেকনাফের উনচিপ্রাং ক্যাম্পেও একই ব্যবস্থা নেওয়া হয় বলে জানান তিনি। শফিক উদ্দিন আরো বলেন, প্রত্যাবাসনের জন্য বান্দবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুনধুম ও টেকনাফের কেরুনতলী সীমান্তে দুটি ট্রানজিট ক্যাম্পও তৈরি করা হয়েছে।
ক্যাম্পে কর্মরত একটি বেসরকারি সংস্থার এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, তালিকায় নাম আছে এটি জানার পর থেকেই রোহিঙ্গারা ঘর থেকে লুকিয়ে বেড়াচ্ছেন। ঘরে নতুন কোনো মানুষ যাচ্ছে দেখলেই তারা লুকিয়ে পড়েন। নানা দাবি-দাওয়া বাস্তবায়নের অজুহাতে প্রত্যাবাসন কার্যক্রম বানচাল করার চেষ্টা চালাচ্ছেন।
তালিকায় নাম আছে জানিয়ে জামতলী ১৫ নম্বর ক্যাম্পের রহিম মোস্তফা (৫০) বলেন, আমরা সেখানে যাব না। আরাকানে যারা আছে তাদের এখনো নাগরিকত্ব দেওয়া হয়নি, এখন আমরা কিভাবে যাব? আগে তাদের নাগরিকত্ব দিয়ে দেখাতে হবে। বার্মা এর আগেও আমাদের এনভিসি কার্ড দিয়েছে। এই কার্ডের বদলে নাগরিকত্ব কার্ড দিবে বললেও দেয়নি।
বুক চাপড়ে একই ক্যাম্পের ষাটোর্ধ্ব বৃদ্ধা হাবিবা খাতুন বলেন, এখানে মারা গেলে কিছু না হলেও জানাজা পড়া যাবে, ওখানে জানাজাও পড়া যাবে না। অনেক নির্যাতনের পর আমরা এখানে তোমাদের কাছে আশ্রয় নিয়েছি। এখানে আমাদের মেরে ফেললে মেরে ফেলো তবুও সেখানে যাব না।
মিয়ানমারের রাখাইনের বলিবাজার থেকে এসে আশ্রয় নেওয়া রহিম মোস্তফা বলেন, সেখানে নিয়ে গিয়ে আমাদের কাঁটাতারের বেড়ার ঘেরায় বন্দি করে রাখবে। আমাদের যদি বাড়ি-ঘর, ভিটে-মাটি ফিরিয়ে দিয়ে সেখানে নিয়ে যেত তাহলে যেতাম। এখন আমরা কোথায় যাব?
মিশেল বাশেলেট তার বিবৃতিতে বলেন, শরণার্থীদের বলপূর্বক ফেরত পাঠানো হলে তা হবে ‘আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন’। বাশেলেটের তার বিবৃতিতে কক্সবাজারের ক্যাম্পে থাকা দুই রোহিঙ্গার আত্মহত্যা চেষ্টার কথা জানিয়ে বলেন,  আমরা কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থাকা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মুখে দেখছি আতঙ্ক আর ভয়। ইচ্ছার বিরুদ্ধে মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে তারা।
জাতিসংঘের ফ্যাক্ট ফাইন্ডিং মিশনের প্রতিবেদন থেকে উদ্ধৃত করে মানবাধিকার বিষয়ক হাই কমিশনার বলেন, মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার লঙ্ঘনের যেসব ঘটনা ঘটেছে, সেগুলো নিষ্ঠুরতার চূড়ান্ত নমুনা। সেখানে মানবতাবিরোধী অপরাধ ঘটানো হয়েছে, হয়ত গণহত্যাও।
বাশেলেট বলেন, যেখানে জবাবদিহিতার লেশমাত্র নেই, যেখানে সহিংসতা এখনও থামেনি, সেই মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের  রোহিঙ্গা শরণার্থীদের ফেরত পাঠানোর অর্থ হবে তাদের আবার মানবাধিকার লঙ্ঘনের চক্রের মধ্যে ছুড়ে ফেলা। এই জনগোষ্ঠী দশকের পর দশক ধরে ওই দুর্ভোগের মধ্যে দিয়েই যাচ্ছে। বিবৃতিতে বলা হয়, উত্তর রাখাইন থেকে রোহিঙ্গাদের নিপীড়নের খবর এখনও আসছে মানবাধিকার বিষয়ক হাই কমিশনে। এর মধ্যে রয়েছে হত্যা, গুম আর গণগ্রেপ্তারের খবর। বাশেলেট জানান, এক লাখ ৩০ হাজারের মত রোহিঙ্গা এখন রাখাইনে সরকারি আশ্রয় শিবিরে আছে। বাংলাদেশ সীমান্তের শূন্য রেখায় আছে প্রায় পাঁচ হাজার রোহিঙ্গা। এই জনগোষ্ঠী এখনরও চলাফেরা ও অন্যান্য অধিকার থেকে বঞ্চিত। নিরাপত্তা ও আন্তর্জাতিক মান নিশ্চিত করে তবেই রোহিঙ্গাদের রাখাইনে ফেরত পাঠাতে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানান জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক হাই কমিশনার। এদিকে রোহিঙ্গাদের নিরাপদ ও সম্মানজনক প্রত্যাবর্তন নিশ্চিত করতে মিয়ানমারের ওপর চাপ অব্যাহত রাখার জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের প্রতি আবারও আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশ। নয়া দিল্লিতে বাংলাদেশ হাই কমিশনে কূটনীতিকদের এক ব্রিফিংয়ে বাংলাদেশের হাই কমিশনার রোহিঙ্গা সঙ্কট নিয়ে সর্বশেষ পরিস্থিতি তুলে ধরেন।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 162        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     জাতীয়
ছয় শতাধিক চরমপন্থীর আত্মসমর্পণ
.............................................................................................
ভূমি সেবা সপ্তাহ শুরু আজ
.............................................................................................
খালেদা জিয়ার প্যারোল!
.............................................................................................
শ্রীমঙ্গল ঘুরে গেলেন ৫৩ দেশের রাষ্ট্রদূত
.............................................................................................
জনগণ উন্নয়ন চায়, শান্তি চায়: প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
হাসপাতাল ছাড়লেন ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
অগ্নিঝুঁকিতে ঢাকার হাসপাতাল
.............................................................................................
এবার শপথ নিলেন মোকাব্বির খান
.............................................................................................
অটিজম প্রতিবন্ধীরা সমাজের বোঝা নয় : প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
রোহিঙ্গাদের জন্য ভাসানচরে যা আছে
.............................................................................................
তিন দিনের সফরে ব্রুনাই যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
প্রধানমন্ত্রীর ১৫ নির্দেশনা
.............................................................................................
চতুর্থ ধাপের ভোটগ্রহণ চলছে
.............................................................................................
পা হারানো রাসেলকে ৫০ লাখ টাকা দেয়ার আদেশ বহাল
.............................................................................................
জনগণের দোরগোড়ায় স্বাধীনতার সুফল পৌঁছাতে কাজ করছে সরকার
.............................................................................................
প্রস্তুত জাতীয় স্মৃতিসৌধ
.............................................................................................
স্বাধীনতা পুরস্কার তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
আজ জাতীয় গণহত্যা দিবস
.............................................................................................
এক মিনিট নীরব থাকবে বাংলাদেশ
.............................................................................................
আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি চাই
.............................................................................................
তৃতীয় ধাপে ১১৭ উপজেলায় ভোট চলছে
.............................................................................................
পদ্মাসেতুতে বসছে নবম স্প্যান
.............................................................................................
দ্বিতীয় দিনে সড়কে শিক্ষার্থীরা
.............................................................................................
ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারি চলছে
.............................................................................................
জাতির পিতার ঐক্যের ডাক আজও প্রাসঙ্গিক
.............................................................................................
রমজানে পণ্যবাজার নজরদারির উদ্যোগ
.............................................................................................
বোয়িং ৭৩৭ ম্যাক্সে নিষেধাজ্ঞা
.............................................................................................
টাঙ্গাইলে প্রধানমন্ত্রী, ৩১ প্রকল্পের উদ্বোধন
.............................................................................................
সোমবার কেবিনে নেয়া হতে পারে ওবায়দুল কাদেরকে
.............................................................................................
৭৮ উপজেলায় ভোটগ্রহণ চলছে
.............................................................................................
খুলে দেওয়া হয়েছে শ্বাসনালীর নল, কথা বলছেন ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
এমপি হিসেবে সুলতান মনসুরের শপথ
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
.............................................................................................
নকল প্রসাধনী কিনে ঠকছেন ক্রেতারা
.............................................................................................
পাটের লোকসান শুনতে চাই না
.............................................................................................
ঐতিহাসিক ৭ মার্চ আজ
.............................................................................................
রাজশাহীতে প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
বজ্রমেঘের প্রভাবে সারাদেশে বৃষ্টি, সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত
.............................................................................................
দেশের উন্নয়নে ভূমিকা রাখুন
.............................................................................................
বিস্ফোরক ছিল না পলাশের শরীরে
.............................................................................................
বিমান ছিনতাই চেষ্টাকারী ‘তালিকাভুক্ত অপরাধী’
.............................................................................................
সারাদেশে পালিত হচ্ছে রাষ্ট্রীয় শোক
.............................................................................................
আজ পিলখানা ট্র্যাজেডির এক দশক
.............................................................................................
ধনী দেশের সদিচ্ছা প্রয়োজন
.............................................................................................
কক্সবাজারে ১০২ ইয়াবা কারবারির আত্মসমর্পণ
.............................................................................................
নদী দখল ও দূষণ রোধে ১০ বছরের মাস্টারপ্ল্যান
.............................................................................................
মুসল্লিদের আগমনে মুখরিত টঙ্গীর তুরাগ তীর
.............................................................................................
তৃতীয় ধাপের ভোট ২৪ মার্চ
.............................................................................................
নিরপেক্ষতার ভিত্তিতে নির্বাচন পরিচালনা করতে হবে
.............................................................................................
জার্মানির পথে প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Nytasoft