রবিবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২০ বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   তথ্য -প্রযুক্তি -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
৯ থেকে ১১ ডিসেম্বর অনলাইনে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : ‘যদিও মানছি দূরত্ব, তবুও আছি সংযুক্ত’ এই স্লোগান নিয়ে অনলাইনে আয়োজিত হতে যাচ্ছে ‘ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড-২০২০’। আগামী ৯ থেকে ১১ ডিসেম্বর টানা সপ্তমবারের মতো এই আয়োজন করা হচ্ছে। এবারের ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডের উদ্বোধন করবেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

রোববার রাজধানীর আগারগাঁও আইসিটি টাওয়ারে এবারের আয়োজন সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে এক সংবাদ সম্মেলন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ১০ ডিসেম্বর বিভিন্ন দেশের মন্ত্রীদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হবে মিনিস্ট্রিয়াল কনফারেন্স। এতে মূল বক্তা হিসেবে কী-নোট উপস্থাপনা দেবেন প্রধানমন্ত্রীর আইসিটি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।  

এছাড়াও পুরো আয়োজনে ২৪টি বিষয়ভিত্তিক সেমিনার, কনফারেন্স, প্রদর্শনী, ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড সম্মাননা, ভার্চুয়াল মুজিব কর্ণার এবং মিউজিক্যাল কনসার্টের আয়োজন থাকবে।

১১ ডিসেম্বর সমাপনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে পর্দা নামবে এবারের ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডের। প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।  

করোনা মহামারি কারণে দর্শনার্থীরা অনলাইনের মাধ্যমে ডিজিটাল ওর্ল্ডে অংশ নিতে পারবেন। এজন্য www.digitalworld.org.bd ওয়েবসাইটে গিয়ে নিবন্ধন করে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড-২০২০ অ্যাপ ডাউনলোড করতে হবে। এই অ্যাপের মাধ্যমে দর্শনার্থী পুরো প্রদর্শনী ভার্চুয়ালি ঘুরে দেখতে পারবেন। এছাড়াও অংশ নিতে পারবেন বিভিন্ন সেমিনার এবং কনসার্টে।  

স্বাধীন বাংলা/এআর

৯ থেকে ১১ ডিসেম্বর অনলাইনে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : ‘যদিও মানছি দূরত্ব, তবুও আছি সংযুক্ত’ এই স্লোগান নিয়ে অনলাইনে আয়োজিত হতে যাচ্ছে ‘ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড-২০২০’। আগামী ৯ থেকে ১১ ডিসেম্বর টানা সপ্তমবারের মতো এই আয়োজন করা হচ্ছে। এবারের ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডের উদ্বোধন করবেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

রোববার রাজধানীর আগারগাঁও আইসিটি টাওয়ারে এবারের আয়োজন সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে এক সংবাদ সম্মেলন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ১০ ডিসেম্বর বিভিন্ন দেশের মন্ত্রীদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হবে মিনিস্ট্রিয়াল কনফারেন্স। এতে মূল বক্তা হিসেবে কী-নোট উপস্থাপনা দেবেন প্রধানমন্ত্রীর আইসিটি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।  

এছাড়াও পুরো আয়োজনে ২৪টি বিষয়ভিত্তিক সেমিনার, কনফারেন্স, প্রদর্শনী, ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড সম্মাননা, ভার্চুয়াল মুজিব কর্ণার এবং মিউজিক্যাল কনসার্টের আয়োজন থাকবে।

১১ ডিসেম্বর সমাপনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে পর্দা নামবে এবারের ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডের। প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।  

করোনা মহামারি কারণে দর্শনার্থীরা অনলাইনের মাধ্যমে ডিজিটাল ওর্ল্ডে অংশ নিতে পারবেন। এজন্য www.digitalworld.org.bd ওয়েবসাইটে গিয়ে নিবন্ধন করে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড-২০২০ অ্যাপ ডাউনলোড করতে হবে। এই অ্যাপের মাধ্যমে দর্শনার্থী পুরো প্রদর্শনী ভার্চুয়ালি ঘুরে দেখতে পারবেন। এছাড়াও অংশ নিতে পারবেন বিভিন্ন সেমিনার এবং কনসার্টে।  

স্বাধীন বাংলা/এআর

চার মডেলে আইফোন ১২ নিয়ে এলো অ্যাপল
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : চার মডেলের নতুন আইফোন ১২ উন্মোচন করেছে অ্যাপল। মঙ্গলবার রাতে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার অ্যাপল পার্ক থেকে ভার্চুয়াল ইভেন্টের মাধ্যমে এটি উন্মোচন করা হয়। ৬.১ ইঞ্চি ডিসপ্লে যুক্ত আইফোনে থাকছে ৫জি কানেক্টিভিটি। মডেল চারটি হল- আাইফোন ১২ মিনি, আইফোন ১২, আইফোন ১২ প্রো এবং আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স। যথাক্রমে এগুলো বাজার মূল্য হচ্ছে- ৬৯৯, ৭৯৯, ৯৯৯ এবং ১০৯৯ মার্কিন ডলার।

এই ফোনে সিরামিক শিল্ড থাকবে। ফলে ফোন পড়ে গেলেও ভেঙে যাবে না। কালো, সাদা, লাল ও নীল এই চার রংয়ে পাওয়া যাবে আইফোন ১২। এতে রয়েছে সুপার রেটিনা এক্সডিআর ওএলইডি ডিসপ্লে। আইফোন ১২ এর প্রো মডেলে ক্যামেরায় আছে তিনটি সেন্সর।

আগামী ৬ নভেম্বর থেকে আইফোন ১২ মিনি এবং আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্সের প্রি-অর্ডার শুরু হবে এবং বাজারে আসবে ১৩ নভেম্বর। অন্যদিকে ১৬ অক্টোবর আইফোন ১২ এবং আইফোন ১২ প্রো’র প্রি-অর্ডার শুরু হবে; আর বাজারে আসবে ২৩ অক্টোবর।

এই ফোন চার্জ দেওয়ার জন্য রয়েছে ম্যাগসেফ ওয়ারলেস চার্জিং। ফোনটিতে এ১৪ বায়োনিক প্রসেসর এবং তিনটি ক্যামেরাই ১২ মেগাপিক্সেলের।

স্বাধীন বাংলা/এআর

ফেসবুকে বাংলাদেশি কর্মকর্তা নিয়োগ
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক:
জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক বাংলাদেশ বিষয়ক কর্মকর্তা নিয়োগ দিয়েছে। নিয়োগা পাওয়া ওই কর্মকর্তার নাম সাবহানাজ রশিদ দিয়া। ফেসবুকের এ অঞ্চলের সদরদফরত সিঙ্গাপুর থেকে ভার্চুয়াল বৈঠকে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তফা জব্বারকে এ তথ্য জানানো হয়। আজ সোমাবার এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। মন্ত্রী এসময় ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান।
 
ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশে সরকারে তরফ থেকে ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ধরনের গুজব-উস্কানি ঠেকাতে অনেক দেনদরবারের পর অবশেষে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ বিষয়টি সহজ করতে এ পদক্ষেপ নেয়।

সিঙ্গাপুর থেকে ভার্চুয়াল ওই বৈঠকে যোগ দেন সাবহানাজ রশীদ দিয়া। দিয়া বাংলাভাষী এবং বাংলাদেশ বিষয়ক যেকোনো বিষয়ে তিনি দ্রুত দপক্ষেপে প্রতিষ্ঠানটির পক্ষে কাজ করবেন। এ নিয়োগের মধ্য দিয়ে তাৎক্ষণিকভাবে যে কোন সমস্যার সমাধান করা হবে বলে মন্ত্রীকে ফেসবুকের সিঙ্গাপুর কার্যালয়ের কর্মকর্তারা আশ্বস্ত করেছেন। ওই সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন ফেসবুকের হেড অব সেফটি বিক্রম সেনগ, ফেসবুক পাবলিক পলিসি বিষয়ক পরিচালক অশ্বিনী রানা এবং ফেসবুক মোবাইল পার্টনার বিভাগের ইরাম ইকবাল।

বাংলাদেশের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনসহ বাংলাদেশের সংশ্লিষ্ট সব প্রচলিত আইন ও বিধিবিধান মেনে চলা ফেসবুকের দায়িত উল্লেখ করে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী বলেন, ফেসবুককে রিসেলার নিয়োগ, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডকে কর দিতে প্রতিনিধি নিয়োগ এবং বাংলা ভাষার সঠিক অনুবাদেরও বিষয়ে মনোযোগ দিতে হবে। এসময় গুজব বা অপপ্রচার প্রচার ছাড়াও সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, সাম্প্রদায়িকতা, রাষ্ট্রদ্রোহিতা, পর্নোগ্রাফি ও বাংলাদেশের সামাজিক-সাংস্কৃতিক মূল্যবোধবিরোধী উপাত্ত প্রচার না করতে ফেসবুককে আহ্বান জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের দেশ, আমাদের সমাজ আমাদের নাগরিকদের ফেসবুকের নিরাপদ ব্যবহারের সুযোগ দিতে হবে। বাংলাদেশে আইন আছে, সেই আইন মোতাবেক ফেসবুককে কনটেন্ট এবং অন্য বিষয়গুলো বাস্তবায়ন করতে হবে।’

বিনজ অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসে ১ হাজার টাকা মূল্যছাড়
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : দেশের সবচেয়ে বড় ডিজিটাল বিনোদন প্লাটফর্ম ‘বিনজ’ তাদের অ্যানড্রয়েড স্মার্ট ডিভাইসে ১ হাজার টাকার বিশেষ মূল্যছাড় দিয়েছে। ফলে ৪,৯৯৯ টাকার ডিভাইসটি এখন ৩,৯৯৯ টাকায় কিনতে পারবেন গ্রাহকরা।

যাদের টিভি এবং ইন্টারনেট সংযোগ আছে তারা এইচডিএমআই ক্যাবল সংযুক্ত এই ডিভাইসের মাধ্যমে বিনজের সব কনটেন্ট দেখতে পাবেন। সাবস্ক্রিপশন ফি মাসে ৩৯৯ টাকা। ডিভাইসটির মাধ্যমে ১৫০টিরও বেশি লাইভ টিভি চ্যানেল, তিন হাজারেরও বেশি ওয়েব সিরিজ, সিনেমা, এক্সক্লুসিভ অরিজিনালসসহ আরও অনেক ডিজিটাল বিনোদন কনটেন্ট উপভোগ করা যাবে।

রেড ডট ডিজিটাল লিমিটেডের মার্কেটিং প্রধান নূর ঈ তাজরিয়ান খান জানান,  করোনার সংকটকালে এক হাজার টাকা মূল্যছাড় দিতে পেরে আমরা আনন্দিত। আমরা মনে করি, এ উদ্যোগ দর্শকদের উৎসাহিত করবে।

তিনি বলেন, বড় ও ছোট দুই পর্দাতেই গ্রাহকরা এইচডি কনটেন্ট দেখতে পাবেন। বিনজ ডিভাইসের মাধ্যমে সাধারণ টিভিকে স্মার্ট টিভিতে রুপান্তর করে সম্পূর্ণ এইচডি টিভির সুবিধা উপভোগ করতে পারবেন।

এছাড়া অ্যানড্রয়েড স্মার্টফোন বা ছোট পর্দার গ্রাহকরা দিনে ১০ টাকা, সপ্তাহে ৪০ টাকা ও মাসে ৯৯ টাকা (ভ্যাট, সম্পূরক শুল্ক ও সারচার্জ ছাড়া) সাবস্ক্রিপশন ফি দিয়ে অনলাইনে বিনজের ভিডিও কনটেন্টগুলো দেখতে পারবেন। গুগল প্লেস্টোর থেকে বিনজ মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করে অ্যানড্র্রয়েড স্মার্টফোনে গ্রাহকরা এই সেবা পাবেন। বিনজের কনটেন্ট বড় স্ক্রিনে প্রথম এক মাস ও ছোট স্ক্রিনে ৭ দিন ফ্রি উপভোগ করা যাবে বলেও জানান তাজরিয়ান খান।

স্বাধীন বাংলা/এআর

তথ্য-প্রযুক্তিতে দক্ষ জনশক্তি ও উদ্যোক্তা তৈরির উদ্যোগ
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাওয়ার লক্ষ্যে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি খাতে দক্ষ জনশক্তি, উদ্যোক্তা তৈরি এবং আইটি খাতে যুব সমাজের আত্ম-কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এজন্য ৭৯৮ কোটি ৯১ লাখ টাকা ব্যয়ে দেশের ১১টি উপজেলায় আইটি ট্রেনিং সেন্টার স্থাপন করবে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ।

আগামীকাল মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি-একনেক সভায় ‘শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন সেন্টার স্থাপন’ শীর্ষক প্রকল্প অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হবে। একনেকে অনুমোদন পেলে চলতি মাস থেকে শুরু হয়ে ২০২৫ সালের জুনের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষ।

প্রকল্পে আওতায় যে ১১ উপজেলায় শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন সেন্টার স্থাপন হবে সেগুলো হলো- জয়পুরহাটের কালাই, দিনাজপুর সদর, সিরাজগঞ্জের কাজীপুর, মানিকগঞ্জের শিবালয়, কিশোরগঞ্জ সদর, নারায়ণগঞ্জ সদর, চাঁদপুরের মতলব, বান্দরবানের বান্দরবান বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, ভোলা সদর, মেহেরপুর সদর ও কুষ্টিয়া সদর।

প্রকল্পের আওতায় প্রধান কার্যক্রম হচ্ছে, পাঁচ একর ভূমি অধিগ্রহণ, ভূমি উন্নয়ন, আটটি ছয়তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ইনকিউবেশন ভবন নির্মাণ এবং তিনটি চার তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ইনকিউবেশন ভবন তৈরি। এছাড়া পরামর্শক নিয়োগ, ১০টি যানবাহন সংগ্রহ, অভ্যন্তরীর্ণ পানি সরবরাহ ব্যবস্থা স্থাপন, অভ্যন্তরীর্ণ রাস্তা নির্মাণ, বিভিন্ন ধরণের কম্পিউটার এক্সিসরিজ, ইলেকট্রিক্যাল ও মেকানিক্যাল মেশিনারিজ সংগ্রহ, ফার্নিচার সংগ্রহ এবং জনবল নিয়োগসহ আনুষাঙ্গিক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা হবে।

স্বাধীন বাংলা/এআর

ইনস্টাগ্রাম থেকে মেসেঞ্জারে চ্যাটিংয়ের সুযোগ
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : ইনস্টাগ্রাম থেকে সরাসরি মেসেজ পাঠানো যাবে ফেসবুক মেসেঞ্জারে। এই দুই অ্যাপ ব্যবহারকারীদের মধ্যে পারস্পরিক চ্যাটিংয়ের সুযোগ দেয়ার আপডেট শুরু করেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক।

প্রযুক্তিবিষয়ক ওয়েবসাইট দ্য ভার্জ জানিয়েছে, শুক্রবার সন্ধ্যায় অনেক আইওএস এবং অ্যানড্রয়েড ডিভাইস ব্যবহারকারী নিজেদের ইনস্টাগ্রাম মোবাইল অ্যাপে নোটিফিকেশন পান। সেখানে লেখা ছিল ‘এ নিউ ওয়ে টু মেসেজ’। একই সঙ্গে সেখানে অনেক নতুন ইমোজিসহ একটি লেখা দেখা যায়, ‘ফেসবুক ব্যবহারকারী বন্ধুদের সঙ্গে চ্যাট করুন।’

আপডেটে স্পর্শ করার পর ইনস্টাগ্রামের ওপরের ডান কোনার ডিএম আইকন ফেসবুক মেসেঞ্জার লোগোতে প্রতিস্থাপন হয়। তবে আপডেট আসা শুরু করলেও ঠিক এ মুহূর্তেই ফেসবুক ব্যবহারকারীরা ইনস্টাগ্রাম থেকে চ্যাটিং করতে পারছেন না। কবে নাগাদ এভাবে চ্যাট করা যাবে, সে বিষয়টি এখনো নিশ্চিত করে জানা যায়নি।

ফেসবুক তাদের মালিকানাধীন আরেক অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপের সঙ্গেও মেসেঞ্জার মার্জ করার কথা আগে জানিয়ে রেখেছে। গত বছর ফেসবুক জানায়, যাদের একটি অ্যাপ আছে তারা অন্য অ্যাপ ব্যবহারকারীদের সঙ্গেও যাতে কথা বলত পারেন, তার ফিচার যুক্ত করা হচ্ছে।

স্বাধীন বাংলা/এআর

করোনা ঠেকাতে বিশেষ থেরাপি!
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক : হালের বিজ্ঞানীরা করোনাভাইরাসের এক কার্যকরী চিকিৎসার কথা বলছেন। মেডিসিনাল সিগন্যালিং সেল (এমএসসিএস) থেরাপি ব্যবহার করে করোনা প্রতিরোধ করা সম্ভব বলে জানিয়েছে তারা।

এ বিষয়ে ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে ব্যাখ্যা করেছেন কেভিন কিমবারলিন। এরই মধ্যে দুইটি গবেষণায় এই থেরাপির কার্যকারিতা প্রমাণ পাওয়া গেছে। এই সেলগুলো মৃতের হার অনেকাংশে কমাতে সাহায্য করে।

গবেষণা প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, এই সেল ভাইরাসকে নির্মূল করে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং ক্ষতিগ্রস্ত টিস্যুগুলোকে মেরামত করে। একই সাথে এতগুলো কাজ করার ক্ষমতা করোনার অন্য কোনো ওষুধে এখন পর্যন্ত দেখা যায়নি।

গুরুতর অসুস্থ রোগীর উপর থেরাপিটি প্রয়োগ করা হয়েছে। এতে করে ১২ জনের ১০ জন সুস্থ হয়েছেন এবং দ্বিতীয় গবেষণায় ১৩ জনের ১১ জন সুস্থ হয়েছেন। তবে এই চিকিৎসার জন্য কত খরচ পড়বে তা এখনো স্পষ্ট জানা যায়নি।

ফেসবুকের বিরুদ্ধে লেখা চুরির অভিযোগ টিকটকের
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক: ফেসবুকের বিরুদ্ধে লেখাচুরির অভিযোগ করেছে চীনভিত্তিক অ্যাপ টিকটক কোম্পানী বাইটড্যান্স। বেইজিং-ভিত্তিক এই সংস্থাটি রোববার তাদের নিজস্ব অনলাইনভিত্তিক সংবাদ সংস্থা জিনারি তোটিয়াওতে এই মন্তব্য করে।

ফেসবুকের বিরুদ্ধে লেখা চুরির অভিযোগ করলেও বিস্তারিত কিছু তারা বলেনি। কাজের ক্ষেত্রে প্রতিযোগী ফেসবুকের সাথে লেখাচুরিরসহ নানা প্রকার জটিল ও অকল্পনীয় সমস্যার মুখোমুখি হতে হয়েছে উল্লেখ করেছে। তারা বলেছে, বাইটড্যান্স কোম্পানী সর্বদা একটি বিশ্বব্যাপী সংস্থা হওয়ার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এই প্রক্রিয়া চলাকালীন তারা উত্তেজনাপূর্ণ আন্তর্জাতিক রাজনৈতিক পরিবেশ, বিভিন্ন সংস্কৃতির সাথে সংঘর্ষ ও চৌর্যবৃত্তির সমস্যা মোকাবেলা করেছে।

এরআগে, ফেসবুকের প্রধান নির্বাহী মার্ক জুকারবার্গ গত বছর টিকটকের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিবাদ সেন্সরের অভিযোগ করেছিলেন যদিও টিকটক ফেসবুকের সেই দাবি অস্বীকার করেছেন।

তবে টিকটক তার বিবৃতিতে যুক্তরাষ্ট্রের দিক থেকে আসা চাপের বিষয়টি উল্লেখ করেনি। মূলত সেই চাপের কারণেই বাইটড্যান্স বর্তমানে তার জনপ্রিয় শর্ট-ভিডিও অ্যাপ টিকটক বিক্রি করতে যাচ্ছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প মাইক্রোসফট কর্পোরেশনের কাছে জনপ্রিয় ভিডিও অ্যাপ টিকটক বিক্রির আলোচনার জন্য চীনের বাইটড্যান্স কোম্পানীকে ৪৫ দিন সময় দেয়ার বিষয়ে একমত হয়েছেন।

সূত্রঃ ইয়েনি শাফাক

স্মার্টফোন বলে দেবে আশপাশে কতজন করোনা রোগী
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে চিকিৎসা নেওয়া ব্যক্তির সংস্পর্শে এলেই সতর্ক করবে স্মার্টফোন। আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এই অ্যাপ চালু করতে যাচ্ছে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগ।

এরই মধ্যে ইসরায়েল, দক্ষিণ কোরিয়া, চীন, হংকং, রাশিয়া, সিঙ্গাপুরসহ ইউরোপের কয়েকটি দেশে এটি চালু হয়েছে। লোকেশন ম্যাপ, কিউআর (কুইক রেসপন্স) কোড ফিচার ব্যবহার করে সুফল পাচ্ছে এসব দেশের নাগরিক। প্রযুক্তির মাধ্যমে করোনাভাইরাস মহামারি ছড়ানো ঠেকাতে সহায়ক এই অ্যাপ নিয়ে বাংলাদেশেও ব্যাপক আগ্রহ তৈরি হয়েছে।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহেমদ পলক জানান, নাগরিকদের সুরক্ষায় কন্টাক্ট ট্রেসিং অ্যাপ নিয়ে আমরা বেশ কিছু দিন থেকে কাজ করছিলাম। অবশেষে আমরা এটি চালু করতে পেরেছি। আজ এর উদ্বোধন করা হবে।

এই অ্যাপ কিভাবে কাজ করবে জানতে চাইলে আইসিটি প্রতিমন্ত্রী বলেন, কন্টাক্ট ট্রেসিং অ্যাপ ডাউনলোড করার পর স্মার্টফোনের লোকেশন এবং ব্লুটুথ অন রেখে বাড়ির বাইরে বের হলে এটি এক-দুই মিটারের মধ্যে যারা থাকবে তাদের হিস্ট্রিগুলো আমাদের ডাটাবেইসে পাঠাবে। কেউ যদি আক্রান্তের কাছাকাছি চলে যায় তাহলে সে স্মার্টফোনে অ্যালার্ট পাবে। তার সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিরা যদি কয়েক দিন পরও করোনা পজিটিভ হয় তাহলেও স্মার্টফোন থেকে সতর্কবার্তা পাওয়া যাবে। সে ক্ষেত্রে ফোন করে প্রয়োজনীয় পরামর্শও দেওয়া হবে।

কন্টাক্ট ট্রেসিং কী : কন্টাক্ট ট্রেসিং হচ্ছে একটি পদ্ধতি, যা সংক্রামক রোগ ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতে ব্যবহার করা হয়। করোনাভাইরাস মহামারির ক্ষেত্রে যেসব মানুষ দীর্ঘ সময় ধরে আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে এসেছে তাদের স্বেচ্ছা আইসোলেশনে যেতে বলা হয়। এটা সাধারণত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তির বন্ধু ও পরিবারের সদস্যদের ফোনের মাধ্যমে জানানো হয়। সঙ্গে একটা স্বয়ংক্রিয় লোকেশন ট্র্যাকিং মোবাইল অ্যাপও সংযুক্ত করা হয়। করোনাভাইরাসে শনাক্ত কারো সংস্পর্শে এলে অ্যাপটি তার সময় ও স্থান তুলে ধরে সতর্কবার্তা পাঠাবে। ফোনের শুধু জিপিএস ডাটা নিয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে সংরক্ষিত রোগীদের ডাটার সঙ্গে মিলিয়ে দেখা হবে। তারপর নিয়মিত ব্যবহারকারীকে বার্তা পাঠানো হবে এবং শুধু ব্যবহারকারীকেই পাঠানো হবে।

করোনাভাইরাসের মারাত্মক প্রাদুর্ভাবের শিকার দেশগুলোতে এরই মধ্যে কন্টাক্ট ট্রেসিং পদ্ধতি ব্যবহার করা হচ্ছে। প্রযুক্তি বিশ্লেষকরা বলছেন, অ্যাপ ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত ও অবস্থানগত ডাটা তাদের ফোনেই সীমাবদ্ধ থাকবে, অন্য কেউ পাবে না। তাই ব্যক্তির অগোচরে অ্যাপের অপারেটর তাদের ওপর নজরদারি করতে পারবে না। করোনাভাইরাসের সংস্পর্শে আসার বিষয়টি মন্ত্রণালয়কে জানানো হবে কি না তা নির্ধারণের পুরো স্বাধীনতা ব্যক্তির থাকবে।

করোনা সংক্রমিতদের ধরতে অ্যাপ ব্যবহার করছে ইসরাইল dailyswadhinbangla
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক: তাবৎ পৃথিবী কাঁপানো মহামারী করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করছে ইসরাইল। গত ৩০ জানুয়ারি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) করোনাকে ‘বিশ্বব্যাপী আপৎকালীন পরিস্থিতি’ ঘোষণার দিন থেকেই ইসরাইল চীনের সঙ্গে বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়। কয়েক দিনের ব্যবধানে এশিয়ার সংক্রমিত অন্য দেশগুলির সঙ্গেও বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দেয় দেশটি। বিভিন্ন দেশ করোনা সংক্রমণ রুখতে নানা রাস্তা বেছে নিয়েছে। লকডাউন ও পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখা ছাড়া বিশেষ প্রযুক্তির ব্যবহার করে এই অতিমারির মোকাবিলা করার চেষ্টা করছে ইসরাইল। কেমন সেই প্রযুক্তি?

মার্চ মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকে ইসরাইলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় তাদের ওয়েবসাইটে করোনা-সংক্রমিত ব্যক্তিদের বর্তমান অবস্থা এবং গত ১৪ দিনে তাদের ভৌগোলিক অবস্থান ও গতিবিধি সংক্রান্ত তথ্য প্রচার করতে থাকে যাতে মানুষজন সচেতন হয় এবং সংক্রমণের হার
কমানো সম্ভব হয়। ১৪ মার্চ ইসরাইল সরকার ‘ট্র্যাক ভাইরাস’ নামে একটি অ্যাপের কথা ঘোষণা করে, যেটাতে সংক্রমিত ব্যক্তিদের অবস্থান দেখানো হবে। এই অ্যাপ যে কোনও ইসরায়েলী তাঁর মোবাইল ফোনে রাখতে পারেন। অ্যাপটি ‘ইনস্টল’ করার সঙ্গে সঙ্গে ফোন ব্যবহারকারীর গতিবিধির উপরে নজর রাখা হবে। এই ব্যক্তি যদি নিজের অজান্তে কোনও সংক্রমিত ব্যক্তির আশপাশে আসেন তা হলে তখনই তাঁকে সতর্ক বার্তা এবং কোয়রান্টিনে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে। এই ধরনের প্রযুক্তির সাহায্যেই বিভিন্ন দেশ আততায়ীদের ফোন ট্র্যাক করে ও তাদের শ্রীঘরে পাঠায়। এই প্রযুক্তির সাহায্যে এখানে সংক্রমিত ব্যক্তিদের ট্র্যাক করে তাঁদের সংক্রমণ ধরা পড়ার আগের দু’সপ্তাহ ধরে তাঁরা যে সমস্ত মানুষের সংস্পর্শে এসেছিল তাদের খুঁজে বার করা হচ্ছে এবং তাঁদের কোয়রান্টিনে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে।

বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন এবং বিরোধীরা এই প্রযুক্তি ব্যবহারের বিরুদ্ধে সরব হলেও আমার মনে হয়েছে, আপৎকালীন পরিস্থিতির মোকাবিলা করার জন্য এই প্রযুক্তি যথেষ্ট কাজে দিয়েছে। ১৭ মার্চ থেকে এই প্রযুক্তি ব্যবহার করা হচ্ছে এবং এর সাহায্যে এক দিনে ৪০০ জনকে কোয়রান্টিন করা হয়েছে।

ইউরোপের কিছু দেশ বা আমেরিকার মতো আমাদের ছবিটা এখনও ততটা ভয়ঙ্কর নয়। কিন্তু দুশ্চিন্তা থাকছেই। আজকেই ফ্রিজ থেকে একটা আপেল খেতে গিয়ে দেখি, তাতে ‘ইম্পোর্টেড ফ্রম ইটালি’ ছাপ মারা। কামড় না-বসিয়ে ফ্রিজেই আবার ঢুকিয়ে রেখে দিলাম সেটা।

গুগল প্লেস্টোর ছাড়াই আসছে হুয়াওয়ে ফোন
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : ২০২০ সালের মার্চ মাসেই নতুন ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন পি৪০ এবং পি৪০ প্রো উন্মোচন করতে যাচ্ছে হুয়াওয়ে। গুগলের মোবাইল সেবা ছাড়াই এই ডিভাইসগুলো উন্মোচন করা হবে বলে জানিয়েছেন হুয়াওয়ে কঞ্জিউমার গ্রুপ প্রধান রিচার্ড ইউ।

মার্কিন সরকারের কালো তালিকাভূক্ত হওয়ার পর গুগলের সফটওয়্যারের লাইসেন্স নিতে পারেনি হুয়াওয়ে। কিন্তু অ্যান্ড্রয়েড ১০ ওপেন সোর্স হওয়ায় বিনামূল্যেই এটি ব্যবহার করতে পারবে প্রতিষ্ঠানটি। কিন্তু গুগল প্লে স্টোর ব্যবহার করতে গুগল মোবাইল সার্ভিসেস থাকা জরুরী। ম্যাপস, উবার এমনকি গুগল পডকাস্টস-এর মতো অ্যাপগুলো মার্কিন উদ্ভাবন হওয়ায় এগুলো ব্যবহারের লাইসেন্স পেতে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে হুয়াওয়ে’র। গুগল মোবাইল সার্ভিসেস ছাড়াই অ্যান্ড্রয়েড ১০ ওএস-এ চলবে প্রতিষ্ঠানের নতুন ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন পি৪০ প্রো।

ফলে ডিভাইসটিতে থাকবে না গুগল প্লে স্টোর বা গুগল ম্যাপস- খবর প্রযুক্তি সাইট সিনেটের। চলতি বছরের নভেম্বরে মার্কিন সরকারকে সতর্ক করে হুয়াওয়ে প্রধান রেন ঝেংফেই বলেন, প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব হারমোনি ওএস পুরোপুরি চালু হয়ে গেলে তা গুগলের মতো প্রতিষ্ঠানগুলোর ওপর প্রভাব ফেলবে। আর এর থেকে ফেরার কোনো পথ থাকবে না। জাতীয় নিরাপত্তার কথা বলে চলতি বছর মে মাসে মার্কিন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এনটিটি লিস্টে যোগ করা হয় হুয়াওয়ের নাম।

২০ মে হুয়াওয়ের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, মার্কিন রপ্তানি নিয়ন্ত্রণের সিদ্ধান্তে কারও আগ্রহ নেই এবং হুয়াওয়ে যে মার্কিন প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে ব্যবসা করে সেগুলোর আর্থিক ক্ষতি হবে।

ফেসবুক-গুগলকে নীতিমালা মানতে বললো অস্ট্রেলিয়া
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : বাজারে ক্ষমতার অপব্যবহার এবং প্রতিযোগিতায় ক্ষতি না করার বিষয়টি নিশ্চিত করতে ফেসবুক এবং গুগলের মতো প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোকে নতুন নীতিমালা মানতে বলেছে অস্ট্রেলিয়া। নইলে, এগুলো নিয়ন্ত্রণে অন্য ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে হুশিয়ারি দিয়েছে দেশটির সরকার।

প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন বলেন, অস্ট্রেলিয়ান কম্পিটিশন অ্যান্ড কনজিউমার কমিশন (এসিসিসি) একটি আচরণবিধি তৈরি করবে। বিজ্ঞাপন খাতে প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোর পোক্ত অবস্থান নিয়ে যে অভিযোগ রয়েছে এই আচরণ বিধির মাধ্যমে সেগুলো সমাধান করা হবে। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর আয়ের মূল উৎসই এই বিজ্ঞাপন। মিডিয়া এবং বিজ্ঞাপন সেবার বাজারে প্রতিযোগিতার ক্ষেত্রে যাতে ক্ষমতার অপব্যবহার করা না হয় তা নিশ্চিত করবে এই নীতিমালা- খবর বার্তাসংস্থা রয়টার্সের।

‘ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম, সামাজিক মাধ্যমগুলো আমরা কীভাবে নিয়ন্ত্রণ করছি, আমি চাই বিশ্বের সামনে তার একটি দারুন মডেল রাখতে,’ বলেন মরিসন।

ভুয়া খবর এবং ঘৃণামূলক বক্তব্য বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে শুরু করে ইউরোপ এবং অন্যান্য দেশগুলো। এবারে অস্ট্রেলিয়ার এই পদক্ষেপ অনলাইন প্ল্যাটফর্মগুলোর জন্য তৈরি নীতিমালার ফাঁকগুলো আরও কিছুটা চেপে ধরবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। অস্ট্রেলিয়ান সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয় ২০২০ সালের নভেম্বরের মধ্যে নতুন নীতিমালা মানতে হবে প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোকে। নয়তো তাদেরকে ‘নীতিমালা মানতে বাধ্য করা হবে’।

দেশটির অর্থমন্ত্রী জশ ফ্রাইডেনবার্গ বলেন, ‌প্রতিষ্ঠানগুলোকে নোটিশ দেওয়া হয়েছে। সরকার তামাশা করছে না। আমরা পদক্ষেপ নিতে দ্বিধা করবো না। গুগল এবং ফেইসবুক উভয় প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে বলা হয়, তারা বড় প্রতিযোগিতাকে সমর্থন করে এবং এসিসিসি’র সঙ্গে একাত্মভাবে কাজ করবে। ফেইসবুক এবং গুগল কঠোর এই নীতিমালার বিরোধীতা করলেও এটি সমর্থন করছে রুপার্ট মার্ডকের নিউজ কর্পোরেশনসহ প্রথাগত সংবাদমাধ্যম মালিকরা।

অস্ট্রেলিয়ার নেটওয়ার্ক ১০-এর প্রধান নির্বাহী পল অ্যান্ডারসন বলেন, এটা দারুন যে সরকার অনলাইন প্রযুক্তি এবং স্ট্রিমিং জায়ান্ট প্রতিষ্ঠানগুলোর আধিপত্যের গোড়ায় পৌঁছাতে গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ নিচ্ছে। প্রযুক্তি জায়ান্ট  প্রতিষ্ঠানগুলোর ওপর কঠোর হওয়ার ইঙ্গিত কয়েক মাস ধরেই দিয়ে আসছে দেশটি।

৫জি চালুর সিদ্ধান্ত গ্রাহকদের সাথে প্রতারণার সামিল: বিএমপিসিএ
                                  

স্টাফ রিপোর্টার: বর্তমান সময়ে টেলিযোগাযোগ নেটোয়ার্ক ব্যবস্থা ও কোয়ালিটি অব সার্ভিস এতোটাই খারাপ যে, ৪জি’র যায়গায় ৩জি পাওয়া দুষ্কর। এমতাবস্থায় বিটিআরসি ও সরকারের ৫জি চালুর সিদ্ধান্ত হবে গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা ছাড়া আর কিছুই না। আজ ৩ সেপ্টেম্বর গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে মুঠোফোন গ্রাহক এসোসিয়েশনের সভাপতি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, গণমাধ্যমে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে জানতে পারলাম বিটিআরসি ৫জি চালুর সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে। এ খবরে সবচাইতে খুশি হবার কথা আমাদের। কিন্তু খুশি না হয়ে এ ধরণের সিদ্ধান্তে আমরা আতঙ্কিত হচ্ছি। কারণ ৪জি চালুর সময় টেলিযোগাযোগের যে অবস্থা ছিল বর্তমানে তা নেই। ৪জি চালুর ১৭ মাস পার হলেও সারাদেশে এখন পর্যন্ত ৪জি দুরে থাক ৩জি নিশ্চিত করা যায়নি। সেই সাথে বর্তমানে যোগ হয়েছে ৬৪ ভাগ মার্কেট দখলকারী গ্রামীণ ফোন ও রবি’র বিরুদ্ধে পাওনা নিয়ে ঝামেলা। বিটিআরসি তাদের ব্যান্ডউইথ ও এনওসি বন্ধ করার ফলে গ্রাহকরা কাঙ্খিত সেবা থেকে এমনিতি বঞ্চিত। বর্তমান সময়ে কোয়ালিটি অব সার্ভিস যদি মাপা হয় তাহলে দেখা যাবে যে কোন সময়ের চাইতে অনেক নি¤œমানের। নিয়ন্ত্রক সংস্থা একদিকে পাওনা আদায়ের জন্য অপারেটর দুটি লাইসেন্স বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। আবার অন্যদিকে ৫জি চালুর সিদ্ধান্ত নিতে যাচে। বিষয়টি এমন যে, যে ডালে বসে আছেন সে ডালই আপনি কাটছেন। এনওসি বন্ধের ফলে তারার আর নতুন করে স্পেকট্রাম ক্রয় করতে পারবে না এমনিতি। রাষ্ট্রীয় অপারেটর টেলিটক এখনও ৪জি চালু করতে পারেনি। গ্রাহকদের ৯০ শতাংশ এখনও ৪জি সেবা গ্রহণ করেননি। ৫জির ডিভাইস দেশে পর্যাপ্ত নয়, তাও আবার অতি উচ্চ মূল্যে। নেটওয়ার্ক ব্যবস্থা অত্যান্ত দুর্বল। অপারেটরদের এখন পর্যন্ত সেপ্কট্রাম আছে ৩৫ মেগাহার্জ। অথচ ৫জিতে লাগবে প্রায় ১০০ মেগাহার্জ। এখন পর্যন্ত সবচাইতে বড় স্ট্রেক হোল্ডার গ্রাহকদের সাথে সরকার বা নিয়ন্ত্রক সংস্থা আলোচনা করে নাই। এমতাবস্থায় যদি ৫জি চালু করা হয় তা হবে শুধু কাগজে কলমে। এটি একদিকে যেমন হাস্যকর অন্যদিকে গ্রাহকদের কাছে প্রতারণা ছাড়া কিছুই না।

ফেসবুকে আর লাইক গোনা যাবে না
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : পোস্টের লাইক গোনার অপশন শিগগিরই বন্ধ করতে পারে বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক।

সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার জেন ওয়ানচুন মেং-এর বরাত দিয়ে ভারতীয় প্রযুক্তি বিষয়ক গণমাধ্যম গেজেটস নাউ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক থেকে লাইক দেখার অপশন তুলে নেওয়া হবে।

ফেসবুক জানিয়েছে, যাদের পোস্টে কম লাইক পড়ে তারা বেশি লাইক পাওয়া ব্যক্তিদের চেয়ে নিজেকে হেয় মনে করেন। তাদের পোস্টটি সঠিক নয় মনে করে ডিলিটও করেন। যদি লাইক গোনা বন্ধ করা যায় তাহলে এ সমস্যা থাকবে না।

পরীক্ষামূলকভাবে লাইক দেখার অপশন তুলে দেয়া নিয়ে কাজ করবে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। তবে ঠিক কবে এটি শুরু হবে সে বিষয়ে কিছু জানায়নি বিশ্বের সবচেয়ে বড় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটি।

গুগলে ‘রাজনৈতিক আলাপ ও সাম্প্রতিক খবর নিয়ে বিতর্ক’ নিষেধ
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক: গুগল কর্তৃপক্ষ তাদের কর্মীদের জন্য নতুন নীতিমালা জারি করেছে। নীতিমালা অনুযায়ী রাজনৈতিক আলাপ ও সাম্প্রতিক খবর নিয়ে বিতর্ক করতে পারবেনা গুগলের কর্মীরা। এ বিষয়ে কঠোর বিধিনিষেধ মেনে চলতে হবে তাদের।

নতুন এক ব্লগ পোস্টে গুগলের নীতিমালা প্রকাশ করে বলা হয়েছে, যাঁকে যে কাজের জন্য নিয়োগ দেওয়া হয়েছে, তাঁর সেই কাজ করাই হচ্ছে প্রাথমিক দায়িত্ব। কাজের সময় কাজবর্হিভূত আলাপ নিয়ে সময় নষ্ট করা যাবে না। কাজেই এখন থেকে গুগলের কর্মীদের কাজের সময় রাজনৈতিক আলাপ বাদ দিতে হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের মাউন্টেনভিউভিত্তিক প্রতিষ্ঠান গুগলের ব্লগ পোস্টে আরও বলা হয়, ‘গুগলে কাজ মানেই ব্যাপক দায়িত্বের কাজ। কোটি কোটি মানুষ গুগলের ওপর মানসম্মত ও নির্ভরযোগ্য সেবার ওপর প্রতিদিন নির্ভর করে। তাদের আস্থাকে সম্মান জানানো ও আমাদের পণ্য ও সেবার স্বচ্ছতা ধরে রাখার বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ।’

গুগলের নতুন নীতিমালায় কর্মীদের দায়িত্ব নিতে বলা হয়েছে। যিনি যা বলবেন, তার জন্য তিনি দায়ী হবেন। এ ছাড়া কর্মক্ষেত্রে কারও নাম নিয়ে বিদ্রূপ বা ট্রল করা হলে সে বিষয়ে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার কথা বলা হয়েছে। এ ছাড়া গুগল সম্পর্কে কোনো খারাপ তথ্য দেওয়া যাবে না। গুগলের পণ্য ও সেবা সম্পর্কে কোনো কর্মী ভুয়া তথ্য দিলে তাঁর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে কর্তৃপক্ষ।

গুগলের সাবেক একজন প্রকৌশলীর অভিযোগের ভিত্তিতেই নীতিমালায় পরিবর্তন আনছে গুগল। ওই কর্মীর অভিযোগ ছিল, রক্ষণশীল দল নিয়ে উচ্চকণ্ঠ থাকায় তাঁকে চাকরি থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে। গুগলে রাজনৈতিক পক্ষপাত রয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

গ্রাহকদের জন্য নতুন ফিচার নিয়ে এলো পাঠাও
                                  

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক : বাংলাদেশের বৃহত্তম-অন-ডিমান্ড ডিজিটাল প্ল্যাটফরম পাঠাও লিমিটেড সম্প্রতি তাদের ইউজার এবং রাইডারদের জন্য বেশ কিছু নতুন সেবা নিয়ে এসেছে।

নতুন ফিচারগুলোর মধ্যে রয়েছে ঝামেলাহীন ডিজিটাল লেনদেন, পাঠাও অ্যাপের মাধ্যমে পাওনা সামঞ্জস্য করা, ড্রাইভারদের জন্য ভয়েস ইন্সট্রাকশন ট্রেনিং এবং সবার জন্য লাইভ চ্যাট সাপোর্ট। নতুন এই ফিচারগুলো গ্রাহকদের জন্য এমনভাবে ডিজাইন করা হয়েছে যেন এই ফিচারগুলো পাঠাও অ্যাপ ব্যবহারের অভিজ্ঞতাকে আরো উপভোগ্য করে তুলতে পারে।

ডিজিটাল পেমেন্ট প্রসেসকে আরো সুবিধাজনক করতে পাঠাও শুরু করেছে ঝামেলাহীন ওয়ান স্টেপ প্রসেস। এখন থেকে পাঠাও ব্যবহারকারীরা তাদের বিকাশ অ্যাকাউন্ট অ্যাপে সংরক্ষণ করার সুবিধা পাবেন। পূর্বে ডিজিটাল পেমেন্টের জন্য গ্রাহকদের কয়েকটি ধাপ অনুসরণ করতে হতো। অর্থ প্রদানের ক্ষেত্রে প্রতিবার তাদের অ্যাকাউন্ট নম্বর, ওটিপি এবং পিন নম্বর প্রবেশ করতে হতো। এই নতুন ফিচারের ফলে এখন ডিজিটাল পেমেন্টের ক্ষেত্রে কেবলমাত্র সংরক্ষিত অ্যাকাউন্টের পিন নম্বর প্রদান করলেই হবে।

ইতিপূর্বে, পাঠাও এর ফ্রিল্যান্স ড্রাইভারদের জন্য পাঠাও এর কমিশন প্রদান করা তুলনামূলকভাবে একটু দীর্ঘমেয়াদি প্রক্রিয়া ছিল। এখন থেকে ড্রাইভাররা খুব সহজেই পাঠাও ড্রাইভ অ্যাপ থেকে থার্ড পার্টি ডিজিটাল পেমেন্ট সার্ভিসের মাধ্যমে এই অর্থ সরাসরি প্রদান করতে পারবেন। নতুন এই সিস্টেমের ফলেই মুহূর্তের মধ্যেই বকেয়া পরিশোধ করা সম্ভব হবে।এছাড়াও, পাঠাও রাইডার এবং ক্যাপ্টেনদের জন্য রয়েছে ভয়েস ইন্সট্রাকশন ফিচার। এটি এমন একটি প্রাক-রেকর্ডকৃত ভয়েস নির্দেশাবলী, যেখানে সহজেই পাওয়া যাবে বিভিন্ন সমস্যার সমাধান এবং এই সেবার মাধ্যমে ড্রাইভাররা নিজেরাই বেশিরভাগ সমস্যা সমাধান করতে পারবেন।

এই অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে ড্রাইভাররা গাড়ি চালানোর যাবতীয় সব নির্দেশাবলীসহ কীভাবে পাঠাও কাজ করে এবং ব্যবহারকারীদের পরিষেবা প্রদানের নিয়ম সম্পর্কে জানতে পারবেন। ফলে তাদের পেশাদারিত্ব আরো বৃদ্ধি পাবে। এ ছাড়া পাঠাও ড্রাইভ অ্যাপের ভয়েস প্রশিক্ষণ বিভাগে রাইডার এবং ক্যাপ্টেনরা সাধারণত যেসব প্রশ্নের সম্মুখীন হন সেগুলোর উত্তরও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। সবশেষে, গ্রাহকদের আরো উন্নত সেবা দেওয়ার জন্য পাঠাও চালু করেছে লাইভ চ্যাট সাপোর্ট।

ব্যবহারকারী এবং চালকরা এখন থেকে তাদের যে কোনো ধরনের প্রশ্ন নিয়ে ফেসবুক মেসেঞ্জারের মাধ্যমে পাঠাও সাপোর্টের সঙ্গে সরাসরি কথা বলতে পারবেন। এটি অনেকটা মোবাইল ফোন কলের মতোই সমাধান প্রদান করবে এবং কিছুকিছু ক্ষেত্রে ফোন কলের চেয়েও দ্রুত সমাধান দিতে সক্ষম এই সেবা। লাইভ চ্যাট অপশনটি ইতোমধ্যে পাঠাও এর ফেসবুক মেসেঞ্জারে চালু করা হয়েছে এবং অতি শিগগিরই পাঠাও অ্যাপেও পাওয়া যাবে এই সেবা।


   Page 1 of 14
     তথ্য -প্রযুক্তি
৯ থেকে ১১ ডিসেম্বর অনলাইনে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড
.............................................................................................
চার মডেলে আইফোন ১২ নিয়ে এলো অ্যাপল
.............................................................................................
ফেসবুকে বাংলাদেশি কর্মকর্তা নিয়োগ
.............................................................................................
বিনজ অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসে ১ হাজার টাকা মূল্যছাড়
.............................................................................................
তথ্য-প্রযুক্তিতে দক্ষ জনশক্তি ও উদ্যোক্তা তৈরির উদ্যোগ
.............................................................................................
ইনস্টাগ্রাম থেকে মেসেঞ্জারে চ্যাটিংয়ের সুযোগ
.............................................................................................
করোনা ঠেকাতে বিশেষ থেরাপি!
.............................................................................................
ফেসবুকের বিরুদ্ধে লেখা চুরির অভিযোগ টিকটকের
.............................................................................................
স্মার্টফোন বলে দেবে আশপাশে কতজন করোনা রোগী
.............................................................................................
করোনা সংক্রমিতদের ধরতে অ্যাপ ব্যবহার করছে ইসরাইল dailyswadhinbangla
.............................................................................................
গুগল প্লেস্টোর ছাড়াই আসছে হুয়াওয়ে ফোন
.............................................................................................
ফেসবুক-গুগলকে নীতিমালা মানতে বললো অস্ট্রেলিয়া
.............................................................................................
৫জি চালুর সিদ্ধান্ত গ্রাহকদের সাথে প্রতারণার সামিল: বিএমপিসিএ
.............................................................................................
ফেসবুকে আর লাইক গোনা যাবে না
.............................................................................................
গুগলে ‘রাজনৈতিক আলাপ ও সাম্প্রতিক খবর নিয়ে বিতর্ক’ নিষেধ
.............................................................................................
গ্রাহকদের জন্য নতুন ফিচার নিয়ে এলো পাঠাও
.............................................................................................
বিশ্বজুড়ে স্মার্টফোন বিক্রি কমছে
.............................................................................................
ভুয়া খবর চেনার উপায়
.............................................................................................
অনলাইনে ফরম পূরণে কমছে ভোগান্তি
.............................................................................................
নতুন পাঁচ ফিচার আসছে মেসেঞ্জারে
.............................................................................................
ফ্রিল্যান্সিং করার আগে যা ভাববেন
.............................................................................................
পানির নীচেও কাজ করবে আইফোন ১১
.............................................................................................
মোবাইল ইন্টারনেট চালু
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের দায়িত্ব নিচ্ছে বাংলাদেশ
.............................................................................................
উবার নিয়ে আসছে ফ্লাইং ট্যাক্সি!
.............................................................................................
১০০ ঘন্টা টিভি দেখলে বেতন দেড় লাখ টাকা
.............................................................................................
ফেসবুকের কাছে ৬ মাসে ৯৫ অ্যাকাউন্টের তথ্য চেয়েছে সরকার
.............................................................................................
ডেটিং সার্ভিস আনছে ফেইসবুক
.............................................................................................
আরও ডেটা কেলেঙ্কারি হতে পারে, সতর্কতা ফেইসবুকের
.............................................................................................
ফেসবুক নিরাপদ রাখতে...
.............................................................................................
নতুন ফোন কেনার আগে জেনে নিন
.............................................................................................
গুগল ব্যবহারের চেয়ে বেশি নবায়নযোগ্য শক্তি কিনছে
.............................................................................................
বাজারে আসছে ৪ ক্যামেরার ফোন!
.............................................................................................
ফেসবুকের পর হোয়াটসঅ্যাপের বিরুদ্ধে তথ্য চুরির অভিযোগ
.............................................................................................
মাত্র ১০ সেকেন্ডে ফুল চার্জ হবে মোবাইল!
.............................................................................................
অ্যাডমিন সুবিধা এলো মেসেঞ্জার গ্রুপ চ্যাটিংয়ে
.............................................................................................
ভুল স্বীকার করলেন জুকারবার্গ
.............................................................................................
জামালপুরে জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহের উদ্বোধন
.............................................................................................
ফেসবুক হ্যাক হয়েছে কিনা বুঝার উপায়
.............................................................................................
মহাকাশ কেন্দ্র থেকে ফিরলেন তিন নভোচারী
.............................................................................................
নোয়াখালীতে ৩ দিনব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা উদ্ধোধন
.............................................................................................
নোয়াখালীতে ৩ দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা উপলক্ষে প্রেস ব্রিফিং
.............................................................................................
আউটসোর্সিং তালিকায় বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান তৃতীয়
.............................................................................................
ফোরজি’র যুগে বাংলাদেশ
.............................................................................................
অ্যাপল ও গুগলের পরেই অ্যামাজন
.............................................................................................
ছাপানো সংবাদপত্রের আয়ু আর মাত্র ১০ বছর!
.............................................................................................
এবার বাসায় খাবার পৌঁছে দিবে ‘পাঠাও’
.............................................................................................
চালু হলো অ্যাপভিত্তিক অটোরিকশা সেবা ‘হ্যালো’
.............................................................................................
সবার জন্য সমান দামে ইন্টারনেট দেওয়া উচিত: জব্বার‡
.............................................................................................
উবার হ্যাকারকে ‘অর্থ দিয়ে ডেটা ধ্বংস করেছে’
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া
যুগ্ম সম্পাদক: প্রদ্যুৎ কুমার তালুকদার

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Dynamic Solution IT