বুধবার, ৪ অক্টোবর ২০২৩ বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   গ্রাম বাংলা -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
শিবচরে আলোচিত ফজলু আকন হত্যা মামলার মূল আসামি গ্রেপ্তার, ফাঁসি দাবি

স্টাফ রিপোর্টার:

২০১২ সালের আলোচিত ফজলু আকন হত্যা মামলার মূল আসামি বাদশা আকনকে গত ৭ সেপ্টেম্বর ঢাকার জুরাইন থেকে গ্রেপ্তার করেন পুলিশ। হত্যা মামলার আসামিদের ফাঁসির দাবিতে উত্তাল শিবচরের গ্রামের মানুষ।

মাদারীপুর জেলার শিবচর থানাধীন ভদ্রাসন ইউনিয়নের নডু ব্যাপারী কান্দি গ্রামে জমি নিয়ে দ্বন্দ্বের জেরে ৪ঠা  মার্চ ২০১২ তারিখে সকাল ৭ ঘটিকার সময় রাস্তা নির্মানে মাটি কাটাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ হলে এসময় স্থানীয় ভদ্রাসন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রহিম ব্যাপারী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে দুপক্ষকে শান্ত করেন। কিন্তু চেয়ারম্যানের স্থান ত্যাগ করার সঙ্গে সঙ্গে বিবাদীগণ ফজলু আকন(৫৭) উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় অহেদ আকন (৬০) এর নির্দেশে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে জিয়াসিন বেগম (২৫) প্রথমে বাঁশের লাঠির দ্বারা আঘাত করে পাশ থেকে এসে রাজা আকন (৩০), আজাদ আকন (২৮), লাবলু আকন ২৩ তানিয়া আক্তার (২০) দেশীয় অস্ত্র দ্বারা এলোপাথা আক্রমণ করেন এসময় ফজলু আকন (৫৭) গুরুতর জখম হয় এবং বাদশা আকন(৩০) এর গাছ কাটা দা দিয়া ফজলু আকনকে কোপাতে শুরু করে। ফজলু আকনকে তার পুত্র আবু আকন (২৮) এবং খোকন আকন বাঁচাতে গেলে তাদেরকে গুরুতর জখম করে। এসময় তারা চিৎকার করতে থাকে আসামিগণ ফজলু আকন এর মৃত্যু নিশ্চিত করার জন্য আরও বেপরোয়া হয়ে নির্মম আঘাত করতে থাকে এবং পা এবং সমগ্র শরীর জখম হয়। একপর্যায়ে চেয়ারম্যান রহিম ব্যাপারী সহ গ্রামবাসী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে আসামিগণ পালিয়ে যায়। ফজলু আকনকে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ফজলু আকনকে মৃত ঘোষণা করেন।

২০১২ সালের ১২ মার্চ শিবচর থানায় মৃত ফজলু আকনের পুত্র আবু আকন(২৮) বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘদিন পর আসামী গ্রেপ্তার হওয়ায় গ্রামবাসী তাদের ফাঁসির দাবিতে বিক্ষোভ করছেন।

শিবচরে আলোচিত ফজলু আকন হত্যা মামলার মূল আসামি গ্রেপ্তার, ফাঁসি দাবি
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:

২০১২ সালের আলোচিত ফজলু আকন হত্যা মামলার মূল আসামি বাদশা আকনকে গত ৭ সেপ্টেম্বর ঢাকার জুরাইন থেকে গ্রেপ্তার করেন পুলিশ। হত্যা মামলার আসামিদের ফাঁসির দাবিতে উত্তাল শিবচরের গ্রামের মানুষ।

মাদারীপুর জেলার শিবচর থানাধীন ভদ্রাসন ইউনিয়নের নডু ব্যাপারী কান্দি গ্রামে জমি নিয়ে দ্বন্দ্বের জেরে ৪ঠা  মার্চ ২০১২ তারিখে সকাল ৭ ঘটিকার সময় রাস্তা নির্মানে মাটি কাটাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ হলে এসময় স্থানীয় ভদ্রাসন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রহিম ব্যাপারী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে দুপক্ষকে শান্ত করেন। কিন্তু চেয়ারম্যানের স্থান ত্যাগ করার সঙ্গে সঙ্গে বিবাদীগণ ফজলু আকন(৫৭) উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় অহেদ আকন (৬০) এর নির্দেশে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে জিয়াসিন বেগম (২৫) প্রথমে বাঁশের লাঠির দ্বারা আঘাত করে পাশ থেকে এসে রাজা আকন (৩০), আজাদ আকন (২৮), লাবলু আকন ২৩ তানিয়া আক্তার (২০) দেশীয় অস্ত্র দ্বারা এলোপাথা আক্রমণ করেন এসময় ফজলু আকন (৫৭) গুরুতর জখম হয় এবং বাদশা আকন(৩০) এর গাছ কাটা দা দিয়া ফজলু আকনকে কোপাতে শুরু করে। ফজলু আকনকে তার পুত্র আবু আকন (২৮) এবং খোকন আকন বাঁচাতে গেলে তাদেরকে গুরুতর জখম করে। এসময় তারা চিৎকার করতে থাকে আসামিগণ ফজলু আকন এর মৃত্যু নিশ্চিত করার জন্য আরও বেপরোয়া হয়ে নির্মম আঘাত করতে থাকে এবং পা এবং সমগ্র শরীর জখম হয়। একপর্যায়ে চেয়ারম্যান রহিম ব্যাপারী সহ গ্রামবাসী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে আসামিগণ পালিয়ে যায়। ফজলু আকনকে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ফজলু আকনকে মৃত ঘোষণা করেন।

২০১২ সালের ১২ মার্চ শিবচর থানায় মৃত ফজলু আকনের পুত্র আবু আকন(২৮) বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘদিন পর আসামী গ্রেপ্তার হওয়ায় গ্রামবাসী তাদের ফাঁসির দাবিতে বিক্ষোভ করছেন।

৪ লাখ টাকা মুক্তিপণ না দেওয়ায় শিশুকে গ-লা-টি-পে হ-ত্যা
                                  

নবীনগর ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিবেদক:

ব্রাহ্মণবাড়িয়া বাঞ্চারামপুরে চার লাখ টাকা মুক্তিপণ না পেয়ে অপহরণকারী ঘাতকের দল গলা টিপে ফাতেহা নামের সাত বছরের এক শিশু কন্যাকে হ-ত্যা করেছে। পুলিশ এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত অপহরণকারী দুই ঘাতককে গ্রেপ্তার করে আজ মঙ্গলবার সকালে আদালতে প্রেরণ করেছে।

এদিকে পুলিশ শিশুটির লাশ উদ্ধার করে সকালে ময়না তদন্তের জন্য জেলা মর্গে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় নি-হত শিশুর মা রুমা আক্তার বাদী হয়ে বাঞ্ছারামপুর থানায় একটি হ-ত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (নবীনগর সার্কেল) সিরাজুল ইসলাম ও বাঞ্ছারামপুরের ওসি নূরে আলম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সিরাজুল ইসলাম জানান, বাঞ্ছারামপুর উপজেলার দরিয়াদৌলত ইউনিয়নের শুটকীকান্দি গ্রামের প্রবাস ফেরত বাছেদ মিয়ার শিশুকন্যা স্থানীয় প্রাথমিক সরকারি বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্রী ফাতেহা (৭) গত ৩০ আগস্ট বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয়। পরে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ খবর করেও ফাতেহার কোন সন্ধান পাচ্ছিলেন না তার পরিবার। এরই মধ্যে একদিন পর গত ১ অক্টোবর অপহরণকারীরা ফাতেহার বাবাকে ফোন করে তাকে অপহরণ করা হয়েছে বলে জানায়। পরে বাছেদ মিয়ার  কাছে মেয়ের মুক্তিপণ বাবদ চার লাখ টাকা দাবি করে অপহরণকারীরা।

এ অবস্থায় বাছেদ মিয়া পুরো বিষয়টি বাছারামপুরের ওসি নূরে আলমকে অবগত করেন। পরে পুলিশ অপহরণকারীর ফোন কলের নম্বর ধরে বিষয়টির তদন্ত শুরু করে।

পুলিশ জানায়, এ ঘটনায় অভিযুক্ত দুই অপরহণকারী দরিয়াদৌলত গ্রামের রাজ্জাক মিয়ার ছেলে নাজিম (১৯) ও শুঁটকিকান্দি গ্রামের মমিন মিয়ার ছেলে আলাউদ্দিন (২১) নিহত শিশু ফাতেহান ফুফাতো ও চাচাতো ভাইকে গতকাল সোমবার (২ অক্টোবর) আটক করে পুলিশ। পরে অপহরণকারীদের তথ্যের আলোকে পাশের ডোবার পানিতে লুকিয়ে রাখা কচুরি পানার নীচ থেকে শিশুটির লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

‘ফোন কলের রেশ ধরে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় পুলিশ দুই ঘাতককে আটক করে। ঘাতকদের ফোনে শিশুটিকে অপহরণ ও মুক্তিপণ দাবি সংক্রান্ত চ্যাটিং (বার্তা আদান-প্রদান) পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

রাজবাড়ী-ঢাকা রুটে বাস চলাচল বন্ধ
                                  

রাজবাড়ী প্রতিনিধি : ফরিদপুরের গোল্ডেন লাইন পরিবহনের সঙ্গে দ্বন্দ্বের জেরে রাজবাড়ী-ঢাকা রুটে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। সোমবার ভোর থেকে এই রুটে বাস চলাচল বন্ধ রেখেছে রাজবাড়ী বাস মালিক সমিতি কর্তৃপক্ষ।

জানা গেছে, রাজবাড়ীর কোনও বাস পদ্মা সেতু দিয়ে ঢাকা যায় না। কিন্তু গোল্ডেন লাইন বাস পদ্মা সেতু হয়ে ঢাকা যায়। এ ছাড়া গোল্ডেন লাইন রাজবাড়ীর পরিবহন মালিকদের সঙ্গে আলোচনা না করে নিজেদের মতো ট্রিপ পরিচালনা করছিল। এতে বাধা দিলে ঢাকার গাবতলীতে রাজবাড়ীর বাস কাউন্টারগুলোতে ভাঙচুর করে।

পরে ঢাকার বাস-ট্রাক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত হয়, গোল্ডেন লাইন রাজবাড়ীতে দুটি ট্রিপ চালাবে। কিন্তু তারা সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে এর বেশি ট্রিপ চালাচ্ছিল। তাই গত শুক্রবার রাজবাড়ীর বাস মালিক সমিতির সামনে থেকে গোল্ডেন লাইনের একটি বাসের যাত্রী নামিয়ে ঢাকা ফেরত পাঠায়।

রাজবাড়ী বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক লিটন বলেন, ফরিদপুরের গোল্ডেন লাইন পরিবহনের বাস রাজবাড়ী দিয়ে দুই ট্রিপ দেওয়ার কথা থাকলেও তারা বেশি ট্রিপ দিচ্ছে। আমরা তাদের বলার পরেও তারা বেশি ট্রিপ চালাচ্ছেন। তাই আমরা বাস চলাচল বন্ধ রেখেছি। তারাও আমাদের রাজাবাড়ীর ওপর দিয়ে তাদের বাস চলাচল বন্ধ রেখেছে। তারা যতক্ষণ দুই ট্রিপ চালাতে রাজি না হবে ততক্ষণ আমাদের বাস চালাচল বন্ধ থাকবে।

এদিকে ঢাকা-রাজবাড়ী রুটে হঠাৎ বাস বন্ধ থাকায় যাত্রীরা পড়েছেন ভোগান্তিতে। কাউন্টারের এসে ফেরত যাচ্ছেন অনেক যাত্রী। যাদের জরুরি কাজ রয়েছে তারা ভেঙে ভেঙে ছোট গাড়িতে, অটোরিকশা, ভ্যান, মাহিন্দ্র করে দৌলতদিয়া ঘাট পর্যন্ত যাচ্ছেন।

মাহিন্দ্রে চড়ে দৌলতদিয়া ঘাটে আসা ঢাকা উত্তরাগামী যাত্রী কাউছার হোসেন বলেন, জরুরি কাজে ঢাকায় যাবো, কাউন্টারে এসে দেখি বাস বন্ধ। তাই ঝুঁকি নিয়ে দৌলতদিয়া ঘাট পর্যন্ত এসেছি। এখন ফেরিতে নদী পার হয়ে ওপার থেকে লোকাল বাসে যাবো। রাজবাড়ী থেকে সরাসরি বাসে যেতে পারলে সময় বাঁচতো, ভোগান্তিও কম হতো। মাঝেমধ্যেই দেখি, ঢাকা-রাজবাড়ী রুটে বাস চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

রাঙামাটিতে জাতীয় কন্যা শিশু দিবস উদযাপন
                                  

পিংকি আক্তার, রাঙামাটি : রাঙামাটিতে জাতীয় কন্যা শিশু দিবস-২০২৩ উদযাপন উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের আয়োজনে ও জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় ‘বিনিয়োগের অগ্রাধিকার, কন্যা শিশুর অধিকার’ প্রতিপাদ্য নিয়ে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

রাঙামাটি জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন খানের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন- রাঙামাটির অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সাধারণ) মোঃ সাইফুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) এসএম ফেরদৌস ইসলাম, মহিলা সংগঠনের সভাপতি ফিরোজা বেগম চিনু, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মো. নাসরীন ইসলাম, জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক অনুকা খীসা, জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক রূপনা চাকমা প্রমুখ।

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন খান বলেন, মেয়েদের এমনভাবে গড়ে তুলতে হবে যেন সে আত্মনির্ভরশীল হয়। নারীদের পেছনে ফেলে দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়। পরিবার, সমাজ, দেশ ও রাষ্ট্রীয় কর্মকাণ্ডে অংশগ্রহণের মাধ্যমে নারীর প্রকৃত ক্ষমতায়ন সম্ভব। এজন্য মেয়েদের শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তাসহ বেড়ে ওঠার অনুকূল পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে।

আলোচনা সভা শেষে জেলা মহিলা অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে জেলার ১২টি মহিলা সংগঠনকে অনুদান প্রদান করা হয়।

পিরোজপুরে দুদকের গণশুনানি: সরকারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অভিযোগ
                                  

পিরোজপুর প্রতিনিধি:

‘রুখবো দুর্নীতি, গড়বো দেশ, হবে সোনার বাংলাদেশ’ শ্লোগান নিয়ে পিরোজপুরে দুর্নীতি দমন কমিশনের গণশুনানি অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার সকালে দুর্নীতি দমন কমিশনের অয়োজনে জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে এ গনশুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

এতে দুর্নীতি দমন কমিশনের সচিব মো: মাহবুব হোসেন, মহাপরিচালক(প্রতিরোধ) মো: আক্তার হোসেন, বরিশাল বিভাগীয় পরিচালক আব্দুল গাফফার, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ জাহেদুর রহমান, পুলিশ সুপার মো: শফিউর রহমান, দুদক জেলা কার্যালয়ের উপ পরিচালক, শেখ গোলাম মাওলা, দুপ্রক পিরোজপুরের সভাপতি মো: মুনিরুজ্জামান নাসিমসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে দুদক এর খুলনা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক তরুন কান্তি ঘোষ উপস্থাপনা করেন।

দিনব্যাপী গণশুনানিতে ঘুষ, ক্ষমতার অপব্যবহার, সরকারি সম্পদ ও অর্থ আত্মসাৎ, অবৈধ সম্পদ অর্জন ও অর্থপাচারের বিষয়ে সেবা গ্রহনকারি বিভিন্ন ব্যক্তি, সরকারি, আধা সরকারি অফিসের অনিয়ম, ভোগান্তি ও দুর্নীতির অভিযোগ তুলে ধরেন। অভিযুক্ত অফিসের কর্মকর্তাগণ আনিত অভিযোগের জবাব দেন। দুদকের কমিশনার দু’পক্ষের বক্তব্য শুনে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে আনিত অভিযোগ সমাধান করার নির্দেশ দেন।

অনুষ্ঠানে ৪৪টি অভিযোগের শুনানি হয়। এরমধ্যে কিছু অভিযোগ তাৎক্ষণিক সমাধান করা ও কিছু অভিযোগ আমলে নিয়ে তদন্তের জন্য ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়েছে।



কালিয়াকৈরে স্ত্রীর পরকীয়ার জেরে স্বামীর আত্মহত্যা
                                  

মোঃ হাবিবুর রহমান, কালিয়াকৈর : গাজীপুরের কালিয়াকৈর দক্ষিণ সফিপুরের পেঁপে বাগান এলাকায় স্ত্রীর পরকীয়ার জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে সোহেল ৩৫) নামের এক ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সোহেল পেপে বাগান এলাকায় ফারুক মৃর্ধার বাড়ির ভাড়াটিয়া। সোহেল মাহমুদ ডেনিমস এ বাবুর্চির কাজ করতো। তার স্ত্রী আনজু( ২৭) যমুনা স্পিনিং এ অপারেটর হিসেবে কাজ করতো। গত রবিবার পরকীয়া প্রেমিকের সাথে চলে যায়।

মৃত সোহেল ঠাকুরগাঁও জেলার পীরগঞ্জ চন্দরিয়া গ্রামের কাশেম ও সুফিয়ার ছেলে। তার স্ত্রী ঠাকুরগাঁ জেলার পীরগঞ্জ থানার ইন্দুইল মোল্লাপাড়ার আনারুল ও মালেকার মেয়ে।

জীবিকা নির্বাহের জন্য গাজীপুর আসেন সোহেল ও আনজু। ১১ আগ বছর আগে প্রেমের সম্পর্কে বিয়ে হয় তাদের।

আ`লীগ বিএনপিতে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের দৌড়ঝাঁপ
                                  

মো. রুবেল হোসেন, নওগাঁ : আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে এরই মধ্যে নওগাঁ-২ (পত্নীতলা-ধামইরহাট) আসনে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও সংসদের বাইরে থাকা বিএনপির তোড়জোড় শুরু হয়েছে। আসনটি জাতীয় সংসদের ৪৭ নম্বর নির্বাচনী এলাকা। দুই দলেই রয়েছেন একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী। এ নিয়ে আওয়ামী লীগে এক রকম গোপন লড়াই চলছে নিজেদের মধ্যে। আর বলতে গেলে এবার দুই দলেই মনোনয়ন ‘যুদ্ধ’ চলছে প্রকাশ্যে পুরনোদের সঙ্গে তরুণরাও প্রার্থী হওয়ার দৌড়ে শামিল হয়েছেন।

ভারতের সীমান্তঘেঁষা এ আসনের দুটি উপজেলাই আয়তনে বেশ বড়। মূলত উন্নতমানের ধান উৎপাদনের জন্য সুপরিচিত এবং কৃষিনির্ভর অর্থনীতির এ এলাকা আওয়ামী লীগ ও বিএনপির জন্য বলা চলে মর্যাদার লড়াই। আসনটি দখলে রাখতে ক্ষমতাসীনদের এবং পুনরুদ্ধারে নামতে হবে বিএনপিকে।

রাজনৈতিক কারণে নওগাঁ জেলার ছয়টি আসনের গুরুত্বপূর্ণ আসনগুলোর মধ্যে নওগাঁ-২ আসনটি অন্যতম। এখানে ভোটার সংখ্যা তিন লাখ ১৭ হাজার ৭২৬ জন। এর মধ্যে পত্নীতলা উপজেলায় পুরুষ ৮৮ হাজার ৭০০ জন, নারী ৮৮ হাজার ৫০৫ জন; মোট এক লাখ ৭৭ হাজার ২০৫ জন। ধামইরহাট উপজেলায় পুরুষ ৭০ হাজার ৩২৮ জন, নারী ৭০ হাজার ১৯৩ জন; মোট এক লাখ ৪০ হাজার ৫২১ জন ভোটার রয়েছেন।

বিভিন্ন তথ্য অনুসন্ধান ও রাজনৈতিক দলগুলোর নেতাকর্মীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ৬ষ্ঠ জাতীয় সংসদ নির্বাচন: বিএনপির সামশুজ্জোহা খান বিজয়ী হয় ১৯৯৬ সালের ১৫ই ফেব্রুয়ারি ৬ষ্ঠ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। বিএনপির শাসনামলে অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে বিএনপি, ফ্রিডম পার্টি এবং কিছু নামসর্বস্ব রাজনৈতিক দল, অখ্যাত ব্যক্তি প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। বিএনপির সামশুজ্জোহা খান বিজয়ী হয়। ধানের শীষ প্রতীকে তিনি পান ২২ হাজার ৭ শত ৫৫ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মোখলেছুর রহমান। তিনি পান ৪ হাজার ৪ শত ৩৩ ভোট।তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে আওয়ামী লীগসহ সব বিরোধী দল এই নির্বাচন বর্জন করে। এই সংসদের মেয়াদ ছিল মাত্র ১১ দিন। তত্ত্বাবধায়ক সরকার বিল পাশ হওয়ার পর সংসদ বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়।

সপ্তম সংসদ নির্বাচন: বিএনপির সামশুজ্জোহা খান বিজয়ী হন ১৯৯৬ সালের ১২ই জুন সপ্তম সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে ভোটার ছিলেন ১ লাখ ৯১ হাজার ৩শত ৫৪ জন। ভোট প্রদান করেন ১ লাখ ৫৯ হাজার ৯ শত ৫৪ জন। নির্বাচনে বিএনপির সামশুজ্জোহা খান বিজয়ী হন। ধানের শীষ প্রতীকে তিনি পান ৬২ হাজার ৫ শত ৯০ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার। নৌকা প্রতীকে তিনি পান ৫৫ হাজার ১ শত ৯৯ ভোট।

অষ্টম সংসদ নির্বাচন: বিএনপির শামশুজ্জোহা খান নির্বাচিত ২০০১ সালের ১ অক্টোবর অষ্টম সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে ভোটার ছিলেন ২ লাখ ৩১ হাজার ১ শত ৮ জন। ভোট প্রদান করেন ২ লাখ ৫ হাজার ৮ শত ৪ জন। নির্বাচনে বিএনপির শামশুজ্জোহা খান বিজয়ী হন। ধানের শীষ প্রতীকে তিনি পান ১ লাখ ১২ হাজার ৮ শত ২৭ ভোট। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার। নৌকা প্রতীকে তিনি পান ৮৯ হাজার ৩ শত ৭৭ ভোট।

নবম সংসদ নির্বাচন : আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার বিজয়ী হন ২০০৮ সালের ২৯শে ডিসেম্বর নবম সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে ভোটার ছিলেন ২ লাখ ৬২ হাজার ২ শত ৮৯ জন। ভোট প্রদান করেন ২ লাখ ৪৭ হাজার ৭ শত ৬ জন। নির্বাচনে আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার বিজয়ী হন। নৌকা প্রতীকে তিনি পান ১ লাখ ৪৭ হাজার ৭ শত ৯৫ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন বিএনপির শামশুজ্জোহা খান। ধানের শীষ প্রতীকে তিনি পান ৯৫ হাজার ৪ শত ৫ ভোট।২০১৪ সালের ৫ই জানুয়ারি দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।নির্বাচনে আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হন। তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেনি।

একাদশ সংসদ নির্বাচন: আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার নির্বাচিত হন ২০১৮ সালের ৩০শে ডিসেম্বর একাদশ সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে ভোটার ছিলেন ৩ লাখ ২২ হাজার ৯১ জন। ভোট প্রদান করেন ২লাখ ৮১ হাজার ৬ শত ২৩ জন। নির্বাচনে প্রার্থী ছিলেন ৫ জন। নৌকা প্রতীকে আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার, ধানের শীষ প্রতীকে বিএনপির শামসুজ্জোহা খান, লাঙ্গল প্রতীকে জাতীয় পার্টির এ্যাড. তোফাজ্জল হোসেন,হাত পাখা প্রতীকে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের দেলোয়ার হোসেন, গোলাপ ফুল প্রতীকে জাকের পার্টির এস জে এ আর ফারুক প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন।নির্বাচনে আওয়ামী লীগের শহীদুজ্জামান সরকার নির্বাচিত হন। নৌকা প্রতীকে তিনি পান ১ লাখ ৭২ হাজার ১ শত ৩১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন বিএনপির শামশুজ্জোহা খান। ধানের শীষ প্রতীকে তিনি পান ১ লাখ ৬ শত ৬৫ ভোট। কারচুপির অভিযোগে বিএনপি নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচন বর্জন ও ফলাফল প্রত্যাখান করে।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নওগাঁ-২ (পত্নীতলা এবং ধামইরহাট) আসনে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী হিসেবে এমপি শহীদুজ্জামান সরকার বাবলু, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আখতারুল আলম, জেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক ও নজিপুর পৌরসভার সাবেক মেয়র আমিনুল হক, পত্নীতলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পত্নীতলা উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আবদুল গাফফার, বিএম আবদুর রশিদ এবং জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. শাহেদ রফি পাভেলের নামও শোনা যাচ্ছে।

বিএনপি থেকে কেন্দ্রীয় কমিটির কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শামসুজ্জোহা খান, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি খাজা নাজিবুল্লাহ চৌধুরী ও জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক রফিকুল ইসলাম লিটন মনোনয়ন প্রত্যাশী। জাতীয় পার্টি থেকে মনোনয়ন চাইবেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ও জেলা আহ্বায়ক তোফাজ্জল হোসেন। এছাড়াও দলীয় মনোনয়ন চাইবেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের দেলোয়ার হোসেন, গোলাপ ফুল প্রতীকে জাকের পার্টির এস জে এ আর ফারুক।

মনোনয়নের বিষয়ে জানতে এমপি শহীদুজ্জামান সরকারের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও মন্তব্য পাওয়া সম্ভব হয়নি। তবে ধামইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. দেলদার হোসেন বলেন, জনগণ আবারও নৌকাকে বিজয়ী করবে বলে আমরা বিশ্বাস করি। কারণ এই সরকার ক্ষমতায় এলে মানুষের কল্যাণে কাজ করে। বর্তমান এমপির কল্যাণেই এলাকার শিক্ষা, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান, রাস্তা-ঘাট, বিদ্যুৎ ও বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। এ আসনে তার বিকল্প প্রার্থী নেই বলে মনে করি।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আখতারুল আলম বলেন, দল থেকে আমাকে মনোনয়ন দিলে নির্বাচনে বিজয়ী হব বলে আশাবাদী। এলাকার মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ভাষা শিক্ষার দক্ষতা বাড়াতে এবং ডিজিটাল বাংলাদেশের উন্নয়নের অগ্রযাত্রার আরও সমুন্নত করতে কর্মশালার আয়োজন করা হচ্ছে।

দলকে শক্তিশালী করতে মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য বিএম আবদুর রশিদ। জানতে চাইলে তিনি বলেন, তৃণমূল ও হাইকমান্ডের সঙ্গে লবিং অব্যাহত রেখেছি। এ দুই উপজেলায় বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক ও ধর্মীয় কর্মকাণ্ডের সঙ্গে নিজেকে সম্পৃক্ত রেখেছি। আশা করি, দল আমাকেই মনোনয়ন দেবে। মনোনয়ন পেলেই আমি জয়ী হবো।

নওগাঁ জেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক, নজিপুর পৌরসভা সাবেক মেয়র আমিনুল হক বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বুকে নিয়ে ১৯৬৬ সাল থেকে দলের রাজনীতি করে আসছি। দুর্দিনে আমি ব্যাপক সহযোগিতা করেছি। বর্তমানে এমপি শহীদুজ্জামান সরকার দলের ত্যাগী নেতাদের বাদ দিয়ে সন্ত্রাস ও দুর্নীতিবাজদের নিয়ে পকেট কমিটি গঠন করেছেন। তাদের কোনো রাজনৈতিক পরিচিতি নেই। তিনি আরও বলেন, সাধারণ মানুষ এসব নেতার কাছে জিম্মি। তাই দলের প্রয়োজনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আগামী নির্বাচনি মনোনয়ন চাইব। আমাকে মনোনয়ন দেওয়া হলে এ আসনটি উপহার দেব।

এছাড়াও বিএনপি থেকে কেন্দ্রীয় কমিটির কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শামসুজ্জোহা খান, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি খাজা নাজিবুল্লাহ চৌধুরী ও জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক রফিকুল ইসলাম লিটন মনোনয়নপ্রত্যাশী।

শামসুজ্জোহা খান জোহা বলেন, গত তিনবার নির্বাচিত সংসদ সদস্য ছিলাম। আমি মাঠে আছি। অবস্থান ভালো। এখানে বিএনপির প্রার্থীর কোনো পরিবর্তন হবে না। দল যদি নির্বাচনে যায় ও মনোনয়ন দেয় তা হলে নির্বাচনে যাব। এ ছাড়া স্বচ্ছ নির্বাচন হলে বিজীয় হবো ইনশাআল্লাহ। আমার সময় এলাকায় যে উন্নয়ন হয়েছে, তার ধারে কাছে কেউ আসতে পারবে না। এলাকায় সড়ক, সেতু, কালভার্ট নির্মাণ, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ এলাকার ব্যাপক উন্নয়ন করেছি। অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় আওয়ামী লীগের সঙ্গে আমার কোনো আঁতাত ছিল না।

দলীয় সূত্রে জানা যায়, এলাকার তরুণদের মাঝে রাজনীতির জোয়ার এনেছেন জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি খাজা নাজিবুল্লাহ চৌধুরী। দীর্ঘ সময় থেকে তিনি এলাকাবাসীর কাছাকাছি আছেন। মনোনয়ন পাওয়ার আশায় কাজ করছেন তিনি।

খাজা নাজিবুল্লাহ চৌধুরী বলেন, তরুণ নেতৃত্বই এখন জনপ্রিয়। প্রতিযোগিতা সবখানেই থাকবে। আমি মনে করি দল আমার কর্মের মূল্যায়ন করবে। দীর্ঘ ১৯ বছর থেকে তৃণমূল মানুষের সঙ্গে কাজ করছি। ওপরের নির্দেশেই আমি মাঠে কাজ করে যাচ্ছি। আমি এ আসনে মনোনয়ন পেলে জয়ের বিষয়ে শতভাগ নিশ্চিত। তিনি আরও বলেন, দেশের মধ্যে পত্নীতলায় বিশুদ্ধ চিনামাটির খনি আছে। যদি কখনো ক্ষমতায় যায় তাহলে চুনাপাথর ঘিরে এলাকায় সিরামিক ইন্ডাস্ট্রি গড়ে তোলার ইচ্ছা আছে। যেখানে বেকারদের কর্মসংস্থান হবে। এ ছাড়া চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে নওগাঁর ভেতর দিয়ে জয়পুরহাট পর্যন্ত রেললাইন তৈরি করা হবে। এটা হলে অর্থনৈতিক আরও উন্নয়ন হবে।

এদিকে তরুণ ও নতুন ভোটাররা জানায়, তথ্য ও প্রযুক্তিনির্ভর সেবা পেতে তারা বিশ্বাসী। যারা দুর্নীতি, অনিয়ম, মাদক ও বৈষম্যহীন সমাজ গড়তে আগামী দিনের নেতৃত্ব দিবেন তাদেরকেই তারা ভোট দিবেন।

তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণে দেখা যায়, নওগাঁ-২ (পত্নীতলা এবং ধামইরহাট) উপজেলা নিয়ে গঠিত এ আসনটিতে বিএনপি এবং আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক অবস্থা মজবুত। জাতীয় পার্টি ও জামায়াতে ইসলামীর সাংগঠনিক তৎপরতা নেই বলা যায়। দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও অংশগ্রহণমূলক হলে জাতীয় সংসদের ৪৭, নম্বর নওগাঁ-২ আসনটিতে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির মধ্যে হাড্ডাহাডি লড়াই হবে।

সাবেক ছাত্রনেতা সুইটের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ
                                  

পাবনা প্রতিনিধি : পাবনা জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক তসলিম হাসান খান সুইটসহ ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর হামলা এবং গাড়ি ভাংচুরের প্রতিবাদে পাবনায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে বিএনপি, ছাত্রদল, যুবদল, স্বেচ্ছাসবক দলসহ অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

পাবনা জেলা ছাত্রদলের সাবেক ও বর্তমান নেতাকর্মীদের ব্যানারে বুধবার (২০ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে পাবনা শহরে এই বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

এদিন বেলা পৌনে ১২টার দিকে শহরের আব্দুল হামিদ রোডের টেলিফোন ভবনের সামনে থেকে মিছিলটি শুরু হয়। মিছিলটি বিনাবাণী হল মোড়, জেলা বিএনপির কার্যালয় হয়ে রবিউল মার্কেট ও নিউ মার্কেট দিয়ে ইন্দ্রিরা মোড় হয়ে শহরের প্রধান সড়কে প্রবেশ করে। ট্রাফিক মোড়, চার মাথা মোড় ও বড় বাজার হয়ে আবার জেলা বিএনপির কার্যালয়ে গিয়ে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মাধ্যমে শেষ হয়।

এতে উপস্থিত ছিলেন পাবনা জেলা বিএনপির যুগ্ম-আহবায়ক নুর মোহাম্মদ মাসুম বগা, সদস্য সরদার মো. সেলিম রেজা, পাবনা সদর উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রাশেদ রানা, পৌর ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রেজওয়ান হোসেন হৃদয়, জেলা ছাত্রদল নেতা আল আমিন পাপ্পু ও জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র যুগ্ম-আহ্বায়ক সাজ্জাতুল ইসলাম খান নাদিম, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের দপ্তর সম্পাদক এস এম আদনান উদ্দিন, জেলা যুবদলের সাবেক সহ-প্রচার সম্পাদক বাহার হোসেন, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সাইদুল ইসলাম, লিটন লেখ, নয়ন হোসেন, যুবদল নেতা আব্দুল্লাহ হিল কাফি, তাজুল ইসলাম, সদর উপজেলা ছাত্রদল নেতা শামীম হাসান হৃদয় প্রমুখ।

উল্লেখ্য, গত ১৭ সেপ্টেম্বর বিএনপির রাজশাহী বিভাগীয় তারুণ্যের রোড মার্চে যাওয়ার পথে নাটোরের লক্ষীপুর ইউনিয়নের সৈয়দপুরে মোড়ে তসলিম হাসান খান সুইটের গাড়ি বহরে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও ছাত্রদল নেতাকর্মীদের আহত করে আ.লীগের নেতাকর্মীরা। এতে তসলিম হাসান খান সুইট, জেলা ছাত্রদল নেতা আতিকুর রহমান মিঠু, পাবনা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট ছাত্রদলের যুগ্ম-আহ্বায়ক সেখ তুহিন, পাবনা পৌর ছাত্রদল নেতা ইমন হোসেন ও শাকিল আহমেদসহ বেশ কিছু নেতাকর্মীরা আহত হোন।

কালভার্ট নির্মাণের অনুমতি নিয়ে খাল দখলের পাঁয়তারা!
                                  

মো.সাজ্জাদ হোসেন, মুরাদনগর : কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলা সদরে কালভার্ট করার জন্য প্রশাসনের কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে সরকারি খাল দখল করার পাঁয়তারা করছে একটি প্রভাবশালী মহল।

খালের উপর ব্যক্তি মালিককে কালভার্ট নির্মাণে প্রশাসন কর্তৃক অনুমতি দেওয়ায় স্থানীয়দের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। তবে প্রশাসন বলছেন, তারা বাড়ি যাওয়ার সুবিধার্থে নিজস্ব অর্থায়নে একটি কালভার্ট নির্মাণ করার অনুমতি দিয়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মুরাদনগর উপজেলা সদরের গোলক রায়ের বাড়ীর সামনে হোমনা সড়কের পাশে ১নং খাস খতিয়ানের ৯৬৪৩ দাগের একটি বিশাল সরকারি খাল রয়েছে। দীর্ঘ ওই খালের প্রায় ১৫৫ ফুট দৈর্ঘ্য ও ৩০ ফুট প্রস্ত কয়েক কোটি মূল্যের সরকারি জায়গা দখল করে নেন মুরাদনগর গ্রামের শ্রী চন্দ্র রায়ের ছেলে প্রভাবশালী প্রণবেশ রায়। তিনি চারদিকে টিনের বেষ্টনী দিয়ে বাড়ি যাওয়ার রাস্তায় কালভার্ট নির্মাণের কথা বলে সেখানে ১৫৫ ফুট দৈর্ঘ্য ও ৬ ফুট প্রস্ত একটি বিশাল ড্রেন নির্মাণ করে খাল দখলে নেওয়ার পাঁয়তারা করছেন।

তবে তাঁর দাবি, উপজেলা প্রশাসনের অনুমতি নিয়েই তিনি খালের উপর ড্রেন নির্মাণ করছেন। এলাকাবাসীর প্রশ্ন- বাড়ি যাওয়ার রাস্তা কি ১৫৫ ফুট দৈর্ঘ্য জায়গা লাগে?

স্থানীয়দের অভিযোগ, এটি শত বছরের পুরনো একটি সরকারি খাল। এক সময় এটি প্রবহমানও ছিল। বর্তমানে অব্যাহত দখল ও দূষণে খালটি আজ অস্তিত্ব সংকটে পড়েছে। আর দখলকারীরা প্রভাবশালী হওয়ায় এ বিষয়ে প্রশাসন কোন প্রকার ব্যবস্থা নিচ্ছে না। খালটির কিছু অংশ দখল করে ভরাট করায় একটু বৃষ্টি হলেই উপজেলা সদরের মাস্টার পাড়া এলাকার প্রায় সহস্্রাধিক পরিবার পানিবন্দি থাকতে হয়। খালের এই অংশটিও যদি দখলদারদের দখলে চলে যায়, তখন মাস্টার পাড়া এলাকায় স্থায়ী জলাবদ্ধতা তৈরী হবে।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত প্রণবেশ রায় খাল দখল করার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, এটি সরকারি খাল, আমরা কেন দখল করব! বাড়িতে যাতায়াতের সুবিধার্থে আমরা উপজেলা প্রশাসনের অনুমতি নিয়েই খালের উপর ড্রেন নির্মাণ করছি। বাড়ি যেতে কি ১৫৫ ফুট দৈর্ঘ্য জায়গা লাগে এমন প্রশ্নে? তিনি কোন প্রকার জবাব দিতে পারেননি।

মুরাদনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আলাউদ্দীন ভূঁঞা জনী বলেন, ওই খালের পাশে একটি সড়ক রয়েছে। বাড়ি যাওয়ার সুবিধার্থে শর্ত সাপেক্ষে ওই খালের ওপর একটি কালভার্ট নির্মাণ করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। কিন্তু ব্যক্তি স্বার্থে খাল দখল করে ড্রেন নির্মাণের অনুমতি প্রদান করা হয়নি।

সাতক্ষীরায় মনসা ও বিশ্বকর্মা পূজা উদযাপিত
                                  

ফারুক রহমান, সাতক্ষীরা : সাতক্ষীরায় উৎসাহ-উদ্দীপনা আর আনন্দঘন পরিবেশের মধ্য দিয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব শ্রীশ্রী বিশ্বকর্মা ও সর্পদেবী মনসা পূজা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার সকালে শহরের পলাশপোলে গুড় পুকুর পাড়ের বটতলায় এই পূজার আয়োজন করা হয়।

সর্পদেবী মনসা ও বিশ্বকর্মা পূজাকে কেন্দ্র করে প্রতিবছর ঐতিহ্যবাহী গুড় পুকুরের মেলা উদযাপন করা হয়। এ বছর সোমবার থেকে শুরু হওয়ার কথা থাকলেও সাতক্ষীরা পৌরকর্তৃপক্ষ আগামী বুধবার (২০ সেপ্টেম্বর) এই মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন বলে জানা গেছে।

সাতক্ষীরা জেলা হিন্দু ছাত্র মহাজোটের সভাপতি মিলন বিশ্বাস জানান, সকাল থেকে শহরের পলাশপোলে গুড় পুকুর পাড়ের বটতলায় চলছে মনসা ও বিশ্বকর্মা পূজার কার্যক্রম। হিন্দু নর-নারীরা সেই বটতলায় পূজা দিচ্ছেন। নিজেদের মনস্কামনা পূরণে নানা মানত করছেন।

এবারের পূজার দায়িত্বে থাকা পুরোহিত তাপস চক্রবর্তী জানান, অসাম্প্রদায়িক চেতনায় শেষ ভাদ্রে সংক্রান্তিতে দেবশিল্পী বিশ্বকর্মার আশীর্বাদ কামনায় এ পূজা অনুষ্ঠিত হয়। বিশ্বকর্মাকে বেদে পৃথিবীর সৃষ্টিকর্তারূপে বর্ণনা করা হয়েছে। ভক্তদের বিশ্বাসমতে তিনি বিশ্বের সকল কর্মের সম্পাদক। তিনি শিল্পসমূহের প্রকাশক, অলংকার শিল্পের স্রষ্টা, তাই ভক্তরা তার কৃপা লাভের আশায় প্রার্থনা করেছেন।

এদিকে, এবারের গুড়পুকুরের মেলা ১৫ দিনের জন্য অনুমতি দিয়েছে প্রশাসন। প্রতিবছর ভাদ্র মাসের শেষ দিনে এই মেলা বসে। শহরের বিভিন্ন প্রান্তজুড়ে বসে শত শত দোকানপাট। গ্রামীণ লোকজ ঐতিহ্যের পসরা সাজিয়ে চলে বেচাকেনা। তিনশ বছর ধরে এ মেলা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা।

প্রসঙ্গত, ২০০২ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর এ মেলায় ভয়াবহ বোমা হামলার ঘটনার পর থেকে কয়েক বছর মেলা বন্ধ ছিল । এরপর ২০১১ সাল থেকে ফের চালু হয় মেলাটি। তবে মেলার সেই প্রাণময় দিনগুলো আর নেই। সীমিত পরিসরে মেলা শহরের শহীদ আব্দুর রাজ্জাক পার্কে বিগত কয়েক বছর ধরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

গুইমারায় স্থানীয় সরকার দিবসের আলোচনা সভা ও র‌্যালী
                                  

আনোয়ার হোসেন , খাগড়াছড়ি : খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে জাতীয় স্থানীয় সরকার দিবস ২০২৩ উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও র‌্যালী অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এই উপলক্ষে সোমবার সকালে উপজেলা হলরুমে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। গুইমারা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বাবলু হোসেনের সঞ্চালনায়, গুইমারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাজীব চৌধুরীর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন গুইমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মেমং মারমা।

সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কংজরি মার্মা, গুইমারা উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা অংকার বিশ্বাস , উপজেলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বিপ্লব শীল, হাফছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান মংশে চৌধুরী প্রমুখ। এতে আরো উপস্থিত ছিলেন, গুইমারা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্মল নারায়ণ ত্রিপুড়া। গুইমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মোঃ শাহ আলম, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসের ফিল্ড সুপার ভাইজর হাবিবুর রহমান, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মিজানুর রহমান প্রমুখ।

উপজেলা চেয়ারম্যান মেমং মার্মা বলেন, স্থানীয় সরকার বিভাগ হলো সকল উন্নয়ন কর্মকান্ডের মূল চালিকা শক্তি। তিনি বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে যে সকল মেগা উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়িত হয়েছে তা অতীতের কোন সরকার করতে পারে নাই। শেখ হাসিনা সরকার যদি ক্ষমতায় না থাকতো, অর্থনৈতিকভাবে হিমসিম খেতে হতো। তাই আগামী জাতীয় নির্বাচনে এই ধারাবাহিক উন্নয়নের যাত্রাকে এগিয়ে নিয়ে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে নৌকায় ভোট প্রদান করতে হবে।

গুইমারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাজীব চৌধুরী বলেন, স্থানীয় সরকার দিবস পালন করার মাধ্যমে সাধারণ মানুষের সঙ্গে সম্পৃক্ত হওয়ার মাধ্যমে সকলের মধ্যে একদিকে যেমন উৎসাহ তৈরি হবে অন্যদিকে কর্মস্পৃহা এবং দায়িত্ববোধ আরো বৃদ্ধি পাবে।

তিনি বলেন, বক্তব্য না দিয়ে জনগণের সাথে সম্পৃক্ত হতে হবে। জনগণের কথা শুনতে হবে। জনগণের সেবা করতে হবে। তিনি উপজেলার বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে স্থানীয় সরকারকে এগিয়ে আসার আহবান জানান। উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় সরকার কাধে কাধ মিলিয়ে কাজ করার ও আহবান জানান। পরে বর্ণাট্য র‌্যালীর মাধ্যমে অনুষ্ঠানে সমাপ্তি হয়।

ধামরাইয়ে তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা শুরু
                                  

সাইফুল ইসলাম, ধামরাই : ‌‘সেবা ও উন্নতির দক্ষ রূপকার, উন্নয়নে-উদ্ভাবনে স্থানীয় সরকার’ এ প্রতিপাদ্যে ধামরাই জাতীয় স্থানীয় সরকার দিবস উপলক্ষে তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা উদ্বোধন করা হয়েছে।

সোমবার সকালে এ উপলক্ষে একটি র‍্যালি বের হয়। র‍্যালি শেষে ধামরাই উপজেলা অডিটোরিয়ামে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হোসাইন মোহাম্মদ হাই জকী সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন ঢাকা (২০) আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব বেনজির আহমেদ এমপি।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৌর মেয়র গোলাম কবির মোল্লা , ব্যাচ চেয়ারম্যান সিরাজউদ্দিন সিরাজ, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসার ধামরাই এ কে এম মমিনুল হক প্রমুখ।

উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসন এ মেলার আয়োজন করে। উদ্বোধনের পরপরই অংশগ্রহণকারী স্টলগুলো পরিদর্শন করেন অতিথিরা।

বালু মহালের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ছাত্রলীগকর্মী খুন, আগ্নেয়াস্ত্রসহ আটক ৯
                                  

রাকিব হাসনাত , পাবনা : পাবনার পদ্মা নদীর অবৈধ বালু ব্যবসার নিয়ন্ত্রণসহ আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ঈশ্বরদীতে ছাত্রলীগ নেতা তাফসির আহমেদ মনা (২৪) খুন হন। চাঞ্চল্যকর এই হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটনসহ ৯ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এসময় ৩টি আগ্নেয়াস্ত্রসহ অস্ত্র তৈরির বিপুল সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়।

সোমবার বেলা ১১টার দিকে পাবনার পুলিশ সুপার কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এমন তথ্য জানান পাবনার পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সি।

নিহত তাফসির আহমেদ উপজেলার পাকশী ইউনিয়নের রুপপুর পাকারাস্তা মোড় এলাকার তাইজুর রহমান তুহিনের ছেলে। তিনি পাকশী ইউনিয়ন শাখা ছাত্রলীগের কর্মী।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- ঈশ্বরদীর নতুন রুপপুরের ইউনুস আলীর ছেলে মানিক (৩৬), সাহাপুর ইউনিয়নের দিয়ার সাহাপুর গ্রামের মুহিদুল হকের ছেলে ফসিউল আলম অনিক (২৭), নতুন রুপপুরের রুপপুর পাড়ার আতিয়ার রহমানের ছেলে চমন (৩৮), চর সাহাপুর গ্রামের আক্তার সরদারের ছেলে শাহিন সরদার(২৮), নতুন রুপপুরের আজিজ প্রামাণিকের ছেলে রাজিব (৩০), চররুপপুর পশ্চিমপাড়ার জহুরুল ইসলামের ছেলে আরিফুল ইসলাম (৩২), সলিমপুরের শাহজাহানের ছেলে আমজাদ হোসেন অবুঝ (৩৭), চররুপপুরের মনিরুল ইসলাম (৩৪), লক্ষীকুন্ডার মাহফুজুর রহমান কালা (৩৫)।

পুলিশ সুপার বলেন, নিহত মনা গত ১৭ জুন রাতে লক্ষীকুন্ডা ইউনিয়নের পাকুড়িয়া গ্রামে এমপি মার্কেটে ইকবালের অফিসে আড্ডা দেয়া অবস্থায় রাত ১০টার দিকে ৩ জন অজ্ঞাতনামা সন্ত্রাসী রুপপুর পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্রের শ্রমিকদের এ্যাপ্রোন ও হেলমেট পড়ে মোটরসাইকেলযোগে এসে মনাকে ৫/৬ রাউন্ড গুলি করে এবং মৃত্যু নিশ্চিত করে দ্রুত পালিয়ে যায়। নৃশংস এই হত্যাকান্ডের পরিপ্রেক্ষিতে নিহত ছাত্রলীগকর্মী মনার মা নাহিদা আক্তার লিপি বাদী হয়ে ঘটনার দুইদিন পর ঈশ্বরদী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ঘটনার পর হত্যাকান্ডের অন্যতম মূলহোতা অনিককে গ্রেফতার করে ।

অনিকের দেওয়া তথ্য ও প্রযুক্তির সহায়তায় ঢাকা, গাজীপুর, কুষ্টিয়া এবং পাবনার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে কিলিং মিশনে সরাসরি অংশগ্রহণকারী মানিকসহ তাদের অভিযুক্তদের গ্রেফতার করা হয়। অভিযানকালে জিগাতলা এলাকায় অত্যাধুনিক আগ্নেয়াস্ত্র তৈরির কারখানার সন্ধানসহ অস্ত্র তৈরির সরঞ্জাম এবং ৩টি আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

আকবর আলী মুন্সি আরও জানান, আসামিরদের সাথে মনা পরিবারের দীর্ঘদিনের শত্রুতা, চাঁদাবাজি এবং এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এই হত্যাকান্ড ঘটেছে। এর সঙ্গে বালু মহলের নিয়ন্ত্রণ আছে। বালু মহলও আধিপত্য বিস্তারের অন্যতম কারণ। আসামিদের মধ্যে অবুঝের বিরুদ্ধে পাঁচটি, কালার বিরুদ্ধে ৪টি, মানিকের বিরুদ্ধে ১১টি, চমনের বিরুদ্ধে ১০টি, অনিকের বিরুদ্ধে ৫টি, রাজিবের বিরুদ্ধে ৬টি মামলা বিচারাধীন রয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন পাবনা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম, ঈশ্বরদীর ওসি অরবিন্দ সরকারসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

সালথায় পেঁয়াজের আড়তে অভিযান, দুটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা
                                  

ফরিদপুর প্রতিনিধি : সরকার নির্ধারিত দামে দেশি পেঁয়াজ বিক্রয় নিশ্চিতে ফরিদপুরের সালথায় পেঁয়াজের আড়তে অভিযান চালিয়েছে জেলা ভোক্তা অধিদপ্তর। এ সময় বিভিন্ন অনিয়মের দায়ে ২ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়।

আজ সোমবার ফরিদপুরের সালথা উপজেলার বালিয়াগট্টি পেঁয়াজের আড়তে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। জেলা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. সোহেল শেখ এর নেতৃত্বে সকাল সাড়ে আটটা থেকে বেলা বারোটা পর্যন্ত এ অভিযান চলে।

অধিদপ্তরটির জেলা সহকারী পরিচালক মো. সোহেল শেখ জানায়, আড়তে দেশি পেঁয়াজ আজ কৃষক কাছ থেকে প্রতি মন প্রকারভেদে ২০০০ থেকে ২২০০ টাকা দরে বেপারীরা ক্রয় করছেন। পেঁয়াজ এর গড় মূল্য কৃষক পর্যায়ে ৫৬ টাকা। গত সপ্তাহের তুলনায় কৃষক পর্যায়ে পেঁয়াজের দাম মন প্রতি ২০০ টাকা কমেছে।

পাকা ক্রয়-বিক্রয় রশিদ পাওয়া গেলেও কয়েকটি দোকানে মূল্য তালিকা হালনাগাদ পাওয়া যায়নি। দাম বেশি নেয়া, মূল্য তালিকা হালনাগাদ না থাকায় আড়ত মেসার্স আব্দুর রব বাণিজ্যালয়কে ৪,০০০ টাকা ও মেসার্স মালেক ট্রেডার্সকে ২,০০০ টাকাসহ মোট ২টি প্রতিষ্ঠানকে ৬,০০০ টাকা জরিমানা আরোপ করা হয়। সরকার নির্ধারিত মূল্যে দেশি পেঁয়াজ ক্রয়-বিক্রয় করা এবং পাকা ক্রয়-বিক্রয় রশিদ সংরক্ষণ ও মূল্য তালিকা হালনাগাদ টানানোর বিষয়ে ব্যবসায়ীদেরকে বিশেষভাবে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

এসময় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত উপপরিচালক মো: রইচউদ্দিন, ফরিদপুর চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি এর পরিচালক মোঃ সিদ্দিকুর রহমান, জেলা ও উপজেলা পুলিশের ২ টি টিম এবং বাজার ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যবৃন্দ উপস্থিত থেকে অভিযানে সার্বিক সহযোগিতা করেন।

অধিদপ্তরটির জেলা সহকারী পরিচালক মো. সোহেল শেখ বলেন, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের নির্দেশনা ও জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় জনস্বার্থে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণিকক্ষ সংকট, ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে পাঠদান
                                  

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার কাঞ্চনপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণিকক্ষ সংকটের কারণে ঝুঁকিপূর্ণ পুরাতন ভবনে পাঠদান চলছে। এতে যেকোনো সময় ভবন ধসে ঘটতে পারে দুর্ঘটনা। পাঠদানের সময় আতঙ্কে থাকে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা। ওই বিদ্যালয়ে আরো শ্রেণিকক্ষ নির্মাণের দাবি সচেতন মহলের।

আদমদীঘি উপজেলার চাঁপাপুর ইউনিয়নের কাঞ্চনপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়াটি ১৯৬২ সালে স্থাপিত হয়। গত ২০০৮-২০০৯ সালে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর বগুড়ার বাস্তবায়নে তিন তলা বিশিষ্ট একটি নতুন ভবন নির্মান করে পাঁচ শতাধিক ছাত্র-ছাত্রীকে পাঠদান করে আসছিলেন।

বর্তমানে এই বিদ্যালয়ে প্রায় এক হাজার ছাত্র-ছাত্রী রয়েছে। বেশি শিক্ষার্থীর কারণে ওই বিদ্যালয়ের নতুন ভবনে ছাত্রছাত্রী সংকুলান না হওয়ায় পুরাতন জরাজীর্ণ ভবনে ঝুঁকির মধ্যে পাঠদান করাতে বাধ্য হচ্ছে। বৃষ্টি হলে পুরাতন ভবনের শ্রেণিকক্ষে পানি পরে পাঠদান ব্যাহত হয়। শ্রেণিকক্ষ সংকটের কারণে ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে শিক্ষার্থীদের জীবনের ঝুঁকি নিয়েই পাঠদান করতে হচ্ছে শিক্ষার্থিদের।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নৃপেন্দ্র নাথ দাস বলেন, শ্রেণিকক্ষ সংকটের কারণে ঝুঁকিপূর্ণ পুরাতন ভবনে পাঠদান করানো হচ্ছে। আমরা শিগগিরই বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মানের জন্য আবেদন করবো।

ম্যানিজিং কমিটির সভাপতি মোতাহার হোসেন বিশ্বাস বলেন, বেশি ছাত্র-ছাত্রী হওয়ার কারণে পুরাতন ভবনে পাঠদান করানো হচ্ছে। দ্রুত একটি ভবন নির্মাণ করার জন্য ঊর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট দাবি জানাবো।

আখাউড়ায় কেড়ির বড়ি খেয়ে একজনের মৃত্যু
                                  

অমিত হাসান অপু, আখাউড়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় পারিবারিক কলহের জেরে কেড়ির বড়ি খেয়ে মোঃ ইব্রাহীম মিয়া (৩৪) নামে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। এর আগে রবিবার রাত ১২টার দিকে কেড়ির বড়ি খেয়ে ছটফট করতে থাকলে পরিবারের লোকজন তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

নিহত ইব্রাহীম মিয়া আখাউড়া উপজেলার ধরখার ইউনিয়নের ঝিকুটিয়া গ্রামের মৃত নান্নু মিয়ার পুত্র।

ধরখার ইউনিয়ন পরিষদের ৭নং ওয়ার্ডের সদস্য মোঃ আশেক মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তবে কি কারনে তিনি বড়ি খেয়েছেন এ ব্যপারে তিনি কিছু বলতে পারেননি।

এই বিষয়ে নিশ্চিত করে আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসাদুল ইসলাম বলেন, আমরা তার পরিবারের কাছ থেকে এখন পর্যন্ত কোনো অভিযোগ পাইনি,অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


   Page 1 of 516
     গ্রাম বাংলা
শিবচরে আলোচিত ফজলু আকন হত্যা মামলার মূল আসামি গ্রেপ্তার, ফাঁসি দাবি
.............................................................................................
৪ লাখ টাকা মুক্তিপণ না দেওয়ায় শিশুকে গ-লা-টি-পে হ-ত্যা
.............................................................................................
রাজবাড়ী-ঢাকা রুটে বাস চলাচল বন্ধ
.............................................................................................
রাঙামাটিতে জাতীয় কন্যা শিশু দিবস উদযাপন
.............................................................................................
পিরোজপুরে দুদকের গণশুনানি: সরকারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অভিযোগ
.............................................................................................
কালিয়াকৈরে স্ত্রীর পরকীয়ার জেরে স্বামীর আত্মহত্যা
.............................................................................................
আ`লীগ বিএনপিতে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের দৌড়ঝাঁপ
.............................................................................................
সাবেক ছাত্রনেতা সুইটের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ
.............................................................................................
কালভার্ট নির্মাণের অনুমতি নিয়ে খাল দখলের পাঁয়তারা!
.............................................................................................
সাতক্ষীরায় মনসা ও বিশ্বকর্মা পূজা উদযাপিত
.............................................................................................
গুইমারায় স্থানীয় সরকার দিবসের আলোচনা সভা ও র‌্যালী
.............................................................................................
ধামরাইয়ে তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা শুরু
.............................................................................................
বালু মহালের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ছাত্রলীগকর্মী খুন, আগ্নেয়াস্ত্রসহ আটক ৯
.............................................................................................
সালথায় পেঁয়াজের আড়তে অভিযান, দুটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা
.............................................................................................
মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণিকক্ষ সংকট, ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে পাঠদান
.............................................................................................
আখাউড়ায় কেড়ির বড়ি খেয়ে একজনের মৃত্যু
.............................................................................................
প্রতারণার মাধ্যমে পাবনায় ক্লিনিক দখলের অভিযোগ
.............................................................................................
সখীপুরে রিপনের অত্যাচারে অতিষ্ঠ সাধারণ মানুষ
.............................................................................................
ফরিদপুরে ইজিবাইকচালক হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার
.............................................................................................
সুবর্ণচরে তিনদিনব্যাপী স্থানীয় সরকার উন্নয়ন মেলার উদ্বোধন
.............................................................................................
নবীনগরে সাপের কামড়ে স্কুল শিক্ষার্থীর মৃত্যু
.............................................................................................
আবাসন প্রকল্প পরিদর্শন ও মতবিনিময় করলেন রংপুরের জেলা প্রশাসক
.............................................................................................
নির্বাচনে সাধারণ মানুষের ভোটাধিকার নিশ্চিত করবে র‌্যাব : মহাপরিচালক
.............................................................................................
মোরেলগঞ্জে নিত্যপণ্যের দামে দিশেহারা নিম্ন আয়ের মানুষ
.............................................................................................
ঘোড়াঘাটে শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানীর অভিযোগ, পরিবারকে হুমকি
.............................................................................................
ঠাকুরগাঁওয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে গাছের চারা বিতরণ
.............................................................................................
কোস্টগার্ডের অভিযানে বিয়ার-মদ জব্দ, ইয়াবাসহ আটক ১
.............................................................................................
হামলা-ভাঙচুরের প্রতিবাদে ফরিদপুরে কলেজ শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন
.............................................................................................
প্রেমিক যুগলের আত্মহত্যার চেষ্টা, প্রেমিকের মৃত্যু
.............................................................................................
ধামরাই উপজেলা প্রেসক্লাব : সভাপতি শামীম খান, সাধারণ সম্পাদক মাসুদ রানা
.............................................................................................
মোরেলগঞ্জে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবকের আত্মহত্যা
.............................................................................................
নোয়াখালীতে রেস্তোরাঁ ব্যবসায়ীকে হত্যাকারীদের গ্রেফতার দাবি
.............................................................................................
ডলারের মূল্যবৃদ্ধির কারণে কিছু পণ্যের দাম বেড়েছে : সিনিয়র বাণিজ্য সচিব
.............................................................................................
দেলদুয়ারে ব্রিজ ভেঙে ট্রাক খালে, যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন
.............................................................................................
কিশোরীকে ধর্ষণের মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার
.............................................................................................
রডের পরিবর্তে সুপারি গাছের চেরা দিয়ে ব্রিজের স্লাব তৈরি
.............................................................................................
সখীপুরে অপহরণের দুইদিন পর শিশুর লাশ উদ্ধার
.............................................................................................
ফরিদপুরে জন্মাষ্টমী উৎসব পালিত
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়েতে বিকল ট্রাকে বাসের ধাক্কা, নিহত ৩
.............................................................................................
ফরিদপুরে আলুর বাজারে ভোক্তা অধিদপ্তরের অভিযান
.............................................................................................
আশুলিয়ায় ডেঙ্গু নিয়ে এইচএসসি পরীক্ষা দিচ্ছে হৃদয়
.............................................................................................
রংপুর মহানগর যুবলীগের আনন্দ শোভাযাত্রা
.............................................................................................
টেকনাফে কোস্ট গার্ডের অভিযানে ইয়াবাসহ আটক ৪
.............................................................................................
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রে চিকিৎসাসেবা বঞ্চিত রমজাননগরের মানুষ
.............................................................................................
রাণীনগরে চোরাই বাইসাইকেলসহ যুবক আটক
.............................................................................................
ফকিরহাটে ট্রলির ধাক্কায় ভ্যানচালক নিহত
.............................................................................................
নওগাঁ-১ আসনে সম্ভাব্য প্রার্থীদের দৌঁড়ঝাপ
.............................................................................................
শৈলকুপায় দু’পক্ষের মারামারিতে নিহত ১
.............................................................................................
পাবনায় আ.লীগ নেতার পকেটে প্রতিবন্ধীর ভাতা কার্ডের টাকা
.............................................................................................
আত্রাইয়ে মাছ সংকটে শুঁটকিপল্লীতে মন্দা
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Dynamic Solution IT