শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৮ | বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   স্বাস্থ্য
  মুখে ঘা হলে যা করণীয়
  6, May, 2018, 11:42:1:AM

স্বাস্থ্য ডেস্ক : চিকিৎসা বিজ্ঞানের গবেষণায় দেখা যায় যে, প্রায় দুইশত রোগের প্রাথমিক লক্ষণ মুখ গহ্বরে দৃষ্টি গোচর হয়। বর্তমানকালের  মরণঘাতী রোগ এইডস থেকে শুরু করে ক্যান্সার, ডায়াবেটিস, হূদরোগ এমনকি গর্ভাবস্থায় অনেক লক্ষণ মুখের ভিতরে প্রকাশ পায়।
যেমন একটি রোগীর মুখ পরীক্ষা করে যদি দেখা যায় যে, তার মাড়িতে তীব্র প্রদাহ রয়েছে, মাড়ি ফুলেছে, তাতে পূঁজ জমা হয়েছে, মাড়ি থেকে দাঁত বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে এবং সামান্য আঘাতে রক্ত বের হয়ে আসছে তবেই তাকে আমরা পেরিওডেন্টাল ডিজিজ বা মাড়ির রোগ হিসেবে বলতে পারি। অনেক ক্ষেত্রে এই সমস্ত রোগীর ইতিহাস নিয়ে দেখা যায় যে, কয়েক বৎসর যাবত তাদের ডায়াবেটিস এবং তারা নিয়মিতভাবে ইনসুলিন নেন। এই সমস্ত রোগীদের ডায়াবেটিক অ্যাসোসিয়েশন থেকে একটি সুন্দর বই দেয়া হয়, তাতে তার একটা মোটামুটি ইতিহাস পাওয়া যায় যেমন- তার রক্তচাপ, অন্যান্য রোগের উপস্থিতি, খাদ্যাভাস সম্পর্কে কিছু প্রয়োজনীয় উপদেশ এবং নিয়মিতভাবে তার রক্তের শর্করা পরীক্ষার ফলাফল- দেখা যায় প্রতিমাসেই তার শর্করা পরীক্ষা করা হয়েছে এবং প্রায়ই রক্তের শর্করা স্বাভাবিকের চাইতে বেশী। জেনে রাখা প্রয়োজন রক্তের শর্করার স্বাভাবিক পরিমাণ হচ্ছে-অভুক্ত অবস্থায় ৬.৪ মিঃ মোল এবং খাবার দু`ঘন্টা পর ৭.৮ মিঃ মোলের কম। বৈজ্ঞানিক পরীক্ষায় দেখা গেছে, যে সমস্ত ডায়াবেটিক রোগী ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখেন না তাদেরই মাড়ির রোগের প্রদাহ বা পেরিওডেন্টাল ডিজিজ অধিকমাত্রায় লক্ষ্যণীয়। তবে তার অর্থ এই নয় যে যাদের ডায়াবেটিস আছে তাদেরই এই রোগ বেশী হবে।

পরীক্ষা করে দেখা গেছে যাদের মুখে ডেন্টাল প্লাক রয়েছে এবং জিনজিভাইটিস রয়েছে তাদের ডায়াবেটিস-এর কারণে মুখের এবং মাড়ির রোগ আরও বেড়ে যায় এবং প্রদাহ আরও তীব্রতর আকার ধারণ করে পরবর্তীতে দাঁতগুলো পড়ে যায় এবং ফেলে দিতে হয়। তাছাড়া আরও একটি বিশেষ উল্লেখযোগ্য দিক হচ্ছে মাড়ির প্রদাহের কারণেই ডায়াবেটিস রোগটিকে নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয় না এবং রক্তের শর্করাও ক্রমান্বয়ে বৃদ্ধি পেতে পারে। সুতরাং ভালোভাবে খাদ্যদ্রব্য চিবিয়ে খাওয়ার জন্য যেমন সুস্থ্য মাড়ি ও দাঁতের প্রয়োজন তেমনি ডায়াবেটিস রোগটিকে নিয়ন্ত্রণে রাখতেও মাড়িকে প্রদাহমুক্ত বা সুস্থ্য রাখা প্রয়োজন। মুখের আরও একটি বিশেষ রোগ মুখের ঘা। মুখের এই ঘা নানা কারণে হতে পারে- যাদের বিভিন্ন রোগ রয়েছে যেমন- ডায়াবেটিস, হূদরোগ, উচ্চরক্তচাপ, রিউমাটিক, রক্তস্বল্পতা, ক্যান্সার, এইডস ইত্যাদি।

যে সমস্ত ঘা হতে পারে সেগুলোর মধ্যে লিউকোপ্লাকিয়া, লাইকেন প্লানাস ইত্যাদি রয়েছে। যারা নিয়মিতভাবে অন্যান্য রোগের চিকিৎসার সাথে ওষুধ খান তাদের মুখেও ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বা রোগ প্রতিরোধক শক্তি কম হওয়ায় মুখের ঘা সাময়িকভাবে দেখা দিতে পারে- যা ওষুধ বন্ধের সাথে সাথেই নিরাময় হতে পারে। যেমন গর্ভবর্তী মায়েদের গর্ভাবস্থায় মাড়ির প্রদাহ দেখা যায় এবং গর্ভপাতের সাথে সাথেই তা নিরাময় হয়। তবে এটি সাধারণতঃ হয় হরমোনের তারতম্যের কারণে, তবে লক্ষ্য রাখতে হবে যে, মাড়িতে প্লাক জমা রয়েছে কিনা, যদি থাকে তবে তা অবশ্যই স্কেলিং করিয়ে পরিষ্কার করতে হবে। মুখে আরও একটি ঘা সব বয়সেই হতে পারে এর নাম ‘এপথাস আলসার’। বিশেষ কোনো (বি) ভিটামিন স্বল্পতা, কোনো দুঃচিন্তা, অনিদ্রা মুখের অস্বাস্থ্যকর অবস্থা, মানসিক অস্থিরতা ইত্যাদির কারণে এপথাস আলসার বেশী হয়। অনেক সময় এই ঘা আরও প্রকট হয়ে দেখা যায়। তবে উপযুক্ত সময়ে এই ঘায়ের চিকিৎসা করাতে পারলে ভালো। এই রোগের চিকিৎসা হলো দুশ্চিন্তা দূর করা, ঘুম যাতে স্বাভাবিক হয় তার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া এবং এক ধরণের ষ্টেরয়েড জাতীয় মলম   ব্যবহার করলে স্থানীয়ভাবে ঐ স্থানে লেগে থেকে ঘা টিকে তাড়াতাড়ি শুকাতে সহায্য করে। আরও একটি কারণে মুখের ঘা দেখা দিতে পারে, সেটি ক্ষয়ে যাওয়া দাঁতের ধারালো অংশ ক্রমাগতভাবে যদি জিহ্বাতে অথবা গালের মাংসে ঘষতে থাকে তবে ঐ স্থানে ঘা হতে পারে। তাছাড়া কৃত্রিম দাঁত, ক্রাউন বা মুকুট, ফিলিং মেটিরিয়াল ইত্যাদির ধারালো অংশের ঘর্ষণেও ঘা হতে পারে।

সুতরাং প্রয়োজন হবে খুব তাড়াতাড়ি ঐ সমস্ত ধারালো দাঁতের চিকিৎসা করা। যেমন ধারালো দাঁতকে যদি ঘষে একটু মসৃণ করে দেয়া যায় অথবা কৃত্রিম দাঁতের ধারালো অংশকে যদি ঘষে দেয়া যায় তবেই নিরাময় সম্ভব এর জন্য বিশেষ কোনো ওষুধের প্রয়োজন নাই। সমপ্রতি আমাদের দেশে এবং পাশ্ববর্তী রাষ্ট্রগুলোতে (বিশেষতঃ ভারতে) গবেষণায় দেখা যায় যে, যাদের ধূমপান এবং জর্দ্দা পান ইত্যাদি খাওয়ার অভ্যাস রয়েছে তাদের মধ্যে মুখের ঘা খুব বেশী হয় এবং সেই সাথে মুখের ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনাও বেশী। তবে, যাদের রক্ত পরীক্ষার পর ভিটামিন স্বল্পতা পাওয়া যাবে, তাদেরকে সেই ভিটামিন নির্দিষ্ট সময়ের জন্য দেয়া যেতে পারে।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 174        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     স্বাস্থ্য
আজ বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস
.............................................................................................
শিশুর নিউমোনিয়া প্রতিরোধে করণীয়
.............................................................................................
স্বাস্থ্য খাতে এডিবির বরাদ্দ বাড়ছে
.............................................................................................
শরীরচর্চা করে না বিশ্বের একচতুর্থাৎশ মানুষ: ডব্লিউএইচও
.............................................................................................
মুখে ঘা হলে যা করণীয়
.............................................................................................
ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখার সহজ উপায়
.............................................................................................
যখন তখন ঘুমের ওষুধ নয়
.............................................................................................
জেনে নিন ক্যান্সারের পূর্বাভাস
.............................................................................................
ঘুমের ওষুধ অপ্রয়োজনে নয়
.............................................................................................
নিয়মিত লবঙ্গ খাওয়ার উপকারিতা
.............................................................................................
ক্যান্সার প্রতিষেধক টিকা আবিষ্কার করেছে কিউবার বিজ্ঞানীরা
.............................................................................................
২ কোটি মানুষ কিডনি রোগে আক্রান্ত
.............................................................................................
স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে ‘যুগান্তকারী’ ওষুধ
.............................................................................................
শীতে শিশুর যত্ন
.............................................................................................
ক্যান্সার রোগ নয়, ব্যবসা!
.............................................................................................
কালোজিরার উপকারিতা
.............................................................................................
আগুনে পোড়া ক্ষত সারাতে ভিটামিন ডি
.............................................................................................
শিশুর জ্বর হলে যা করবেন
.............................................................................................
মেরুদন্ডের সমস্যায় করণীয়
.............................................................................................
স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে ...
.............................................................................................
হার্ট ভাল রাখতে ৪টি জরুরি বিষয়
.............................................................................................
ভারতে হাসপাতালে ২৪ ঘন্টায় ১৬ শিশুর মৃত্যু
.............................................................................................
রোবটের সাহায্যে মানুষের দাঁতে অস্ত্রোপচার
.............................................................................................
প্রতি বছর স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হন ২২ হাজার নারী!
.............................................................................................
স্ট্রোক হতে পারে উচ্চ রক্তচাপ থেকে
.............................................................................................
‘সুপার ম্যালেরিয়া’ ছড়িয়ে পড়ছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায়
.............................................................................................
ঘুমন্ত অবস্থায় যেভাবে চর্বি গলে ওজন কমবে!
.............................................................................................
শ্বাসকষ্ট, সর্দি-কাশি, এলার্জি হলে যা করবেন
.............................................................................................
ওজন কমাতে ক্যালসিয়াম
.............................................................................................
চুমু স্বাস্থ্যের জন্য কতটুকু ভালো বা মন্দ
.............................................................................................
ক্যান্সার এড়াতে করনীয়
.............................................................................................
পিরিয়ডের ব্যথায় সহজে মুক্তি পেতে
.............................................................................................
যুবতীর পেট থেকে ৭৫০ গ্রাম চুল!
.............................................................................................
বায়োপসি করালে কি ক্যানসার বাড়ে?
.............................................................................................
ক্যানসার-হৃদরোগে মৃত্যু ঠেকাবে যে ওষুধ
.............................................................................................
হঠাৎ হাতের কব্জিতে ব্যথা
.............................................................................................
রক্তের অভাব দূর করতে কৃত্রিম রক্ত!
.............................................................................................
রক্তে কোলেস্টেরল বাড়ার কারণ
.............................................................................................
ঘুমের মধ্যে শ্বাস বন্ধ হয়ে যাওয়া ভয়ঙ্কর
.............................................................................................
চোখের ভেতরে থেকে ৮টি পাথর অপসারণ
.............................................................................................
হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ ও প্রতিকার
.............................................................................................
ত্বকের ক্যানসার সারাবে যে সবজি
.............................................................................................
ক্যানসারের সেল নষ্ট করবে ভিটামিন সি!
.............................................................................................
যে কারণে হয় ভাইরাল হেপাটাইটিস
.............................................................................................
পুরুষের যেসব শারীরিক লক্ষণে অবহেলা করবেন না
.............................................................................................
ক্যান্সারের চিকিৎসায় বিপ্লবী উদ্ভাবন
.............................................................................................
দীর্ঘদিন ব্যথানাশক ওষুধ নয়!
.............................................................................................
গনোরিয়া নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি
.............................................................................................
চিকুনগুনিয়া থেকে নতুন রোগ!
.............................................................................................
ওষুধের বিকল্প বাত-ব্যথার কার্যকরী চিকিৎসা
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Nytasoft