শুক্রবার, ৬ ডিসেম্বর ২০১৯ | বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   রাজনীতি -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
বিএনপি অরাজকতা করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে : ওবায়দুল কাদের

স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন ইস্যুতে কোনো ধরনের অরাজকতা তৈরি করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় উপমহাদেশের বরেণ্য রাজনৈতিক নেতা হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকীতে ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আদালত খালেদা জিয়ার জামিন না দিলে সরকারের কিছু করার নেই। বিএনপির আন্দোলন কি সরকারের বিরুদ্ধে? আওয়ামী লীগ এখন আগের চেয়ে অনেক সংগঠিত। অরাজকতা সৃষ্টি করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে।

এ সময় গণতন্ত্রের জন্য হোসেন সোহওয়ার্দীর অবদানের কথা তুলে ধরেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, গণতন্ত্রের জন্য আজীবন সংগ্রাম করে গেছেন সোহরাওয়ার্দী। তার নেতৃত্বের অসাধারণ বলিষ্ঠতা, দৃঢ়তা ও গুণাবলি জাতিকে সঠিক পথের দিক-নির্দেশনা দিয়েছে। গণতন্ত্র, ন্যায়বিচার ও আইন প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে তিনি অসাধারণ অবদান রেখেছেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, গণতন্ত্রের জন্য সোহরাওয়ার্দী যে সংগ্রাম করেছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সেটি এখনও অনুসরণ করে যাচ্ছে। গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে কাজ করে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম, দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপ, ত্রাণবিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন প্রমুখ।

বিএনপি অরাজকতা করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে : ওবায়দুল কাদের
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন ইস্যুতে কোনো ধরনের অরাজকতা তৈরি করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় উপমহাদেশের বরেণ্য রাজনৈতিক নেতা হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকীতে ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আদালত খালেদা জিয়ার জামিন না দিলে সরকারের কিছু করার নেই। বিএনপির আন্দোলন কি সরকারের বিরুদ্ধে? আওয়ামী লীগ এখন আগের চেয়ে অনেক সংগঠিত। অরাজকতা সৃষ্টি করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে।

এ সময় গণতন্ত্রের জন্য হোসেন সোহওয়ার্দীর অবদানের কথা তুলে ধরেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, গণতন্ত্রের জন্য আজীবন সংগ্রাম করে গেছেন সোহরাওয়ার্দী। তার নেতৃত্বের অসাধারণ বলিষ্ঠতা, দৃঢ়তা ও গুণাবলি জাতিকে সঠিক পথের দিক-নির্দেশনা দিয়েছে। গণতন্ত্র, ন্যায়বিচার ও আইন প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে তিনি অসাধারণ অবদান রেখেছেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, গণতন্ত্রের জন্য সোহরাওয়ার্দী যে সংগ্রাম করেছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সেটি এখনও অনুসরণ করে যাচ্ছে। গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে কাজ করে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম, দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপ, ত্রাণবিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন প্রমুখ।

‘বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে বললে জিহ্বা ছিঁড়ে ফেলবে ছাত্রলীগ’
                                  

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি: রবিবার নারায়ণগঞ্জ সরকারি তোলারাম কলেজে পুরস্কার বিতরণ ও কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের জাতীয় পার্টির এমপি সেলিম ওসমান বলেছেন, ‘একটা সময় ছিল স্বাধীনতার ২১ বছর পরও বঙ্গবন্ধুর কথা বলতে পারি নাই। কিন্তু এখন তার বিরুদ্ধে কিছু বললে ছাত্রলীগের ভাই-বোনেরাই জিহ্বা ছিঁড়ে ফেলবে’।
 
সেলিম ওসমান বলেন, ‘যুদ্ধ করে তোমাদের একটা পতাকা এনে দিয়েছি। স্বাধীনতা এনে দিয়েছি। এখন সেই স্বাধীনতাকে বজায় রাখতে কাজ করো। নতুন কিছু তৈরি করো। দেশ ও সমাজের উন্নয়ন করো।’
 
মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি হাববিুর রহমান রিয়াদের সঞ্চালনায় কলেজের অধ্যক্ষ বেলা রানীর সিংহ এ অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন।

গ্রামকে শহরে রূপান্তর করা হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী
                                  

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: পরিকল্পনা মন্ত্রী এম.এ মান্নান বলেছেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগে গ্রামকে শহরে রূপান্তর করা হবে। বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় উচ্চশিক্ষার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়, কারিগরি শিক্ষালয় ও মেডিকেল কলেজ স্থাপন করা হবে। এরই অংশ হিসেবে মৌলভীবাজারে যত দ্রুত সম্ভব মেডিকেল কলেজ স্থাপন করার উদ্দ্যোগ নেওয়া হবে।

৩০ নভেম্বর শনিবার বিকাল ৩ ঘটিকায় মৌলভীবাজার পৌরসভার উদ্দ্যোগে প্রবীণাঙ্গন এর শুভ উদ্ভোধন উপলক্ষে সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এই কথাগুলো বলেন।

পৌর মেয়র ফজলুর রহমানের সভাপতিত্বে সুধী সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য নেছার আহমদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা আজিজুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক মল্লিকা দে, পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ,জেলা আওয়ামীলীগ এর সাধারণ সম্পাদক মিসবাহুর রহমান, সিভিল সার্জন শাহজান কবীর চৌধুরী ।

তথ্য অধিকার আইনের আশ্রয় নিচ্ছে বিএনপি
                                  

ভারতের সঙ্গে যেসব চুক্তি হয়েছে সেগুলো জনগণের কাছে খোলাসা করার জন্য বিএনপির পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে চিঠি দেয়া হয়েছিল। ওই চিঠির এখন পর্যন্ত কোনো জবাব না পাওয়ায় তথ্য অধিকার আইনে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে চিঠি দেবে বিএনপি। আগামী দুই একদিনের মধ্যে এটি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠাবে দলটি। শনিবার গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলটির স্থায়ী কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা জানান মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সন্ধ্যা ৬টা থেকে দেড় ঘণ্টা স্থায়ী কমিটির এই বৈঠকে হয়। বৈঠকে খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের অবস্থা ও তার মামলার বিষয়ে পর্যালোচনা করা হয় এবং স্থায়ী কমিটি আশাবাদ ব্যক্ত করেন যে, ঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) মেডিকেল বোর্ড সঠিক প্রতিবেদন দেবে এবং সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ থেকে সুবিচার পাবেন বেগম জিয়া। এছাড়া বৈঠকে দ্রব্যমূল্য পরিস্থিতি, ভারতে নাগরিকপঞ্জি, রোহিঙ্গা সমস্যাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে যে, দ্রব্যমূল্য পরিস্থিতি নিয়ে আগামী ৩ ডিসেম্বর ও ভারতের নাগরিকপঞ্জির ফলে পুশব্যাক সম্পর্কে আগামী ৭ ডিসেম্বর বিএনপি সংবাদ সম্মেলন করবে। এছাড়া সারাদেশে দুর্নীতির ব্যাপকতা নিয়ে শিগগিরই একটি সেমিনার করা হবে বলে জানান মির্জা ফখরুল।

ফখরুল বলেন, ‘আপনারা জানেন যে, ভারতের সাথে যেসব চুক্তি হয়েছে সে সম্পর্কে জানতে চেয়ে আমরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে চিঠি দিয়েছিলাম। আমরা প্রায় ৭ দিনের অতিরিক্ত সময়ে অপেক্ষা করেছি কিন্তু প্রধানমন্ত্রী কার্যালয় থেকে কোনো রেসপনস (সাড়া) পাইনি।’

তিনি বলেন, ‘সেই কারণে আমাদের পূর্ব সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমরা এখন তথ্য অধিকার আইনে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এই চুক্তিগুলো সম্পর্কে ধারণার জন্য চিঠি দেব। আগামী ২-১ দিনের মধ্যে আমরা এই চিঠি পাঠানোর ব্যবস্থা করবো।’

দলের নেতৃবৃন্দসহ ৫০১ জনের বিরুদ্ধে মামলার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘সম্প্রতি একটি সংগঠনের প্রোগ্রামকে কেন্দ্র করে আপনারা জানেন যে, আমরা সিনিয়র লিডারসসহ প্রায় ৫শ লোকের একটা মামলা হয়েছে। আমরা উচ্চ আদালতে জামিন পেয়েছি। এই মামলাকে কেন্দ্র করে এখন সাধারণ মানুষের নাম দিয়ে তাদেরকে হয়রানি ও গ্রেফতার করা হচ্ছে।’

ফখরুল বলেন, ‘আবার নতুন করে বাণিজ্য শুরু হয়েছে। আমরা অবিলম্বে মামলাগুলো প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি।’

দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান লন্ডন থেকে স্কাইপে বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন। বৈঠকে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ছাড়াও স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমদ, জমিরউদ্দিন সরকার, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও সেলিমা রহমান উপস্থিত ছিলেন।

সৈরশাসনের বিদায়ের সাথে শাসন ব্যবস্থা ও বদলাতে হবে: আ স ম রব
                                  

নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি: জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন এবার শুধু শাসক বদল নয় শাসন ব্যবস্থার ও বদল করতে হবে। বিদ্যমান শাসন ব্যবস্থায় যেই ক্ষমতায় যায় সেই স্বৈরাচারী হয়ে উঠে। সংবিধান বলদ থাকা ব্যবস্থায় এক দলীয় শাসন প্রবর্তন করা যায় সামরিক শাসন জারি করা যায় রাতে ভোট ডাকাতি করা যায় সংবিধান অহরহ রঙ্গন করেও রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় অবস্থান করা যায় সংবিধান কোন অগণতান্ত্রিক শক্তিকে প্রতিরোধ করতে পারে না 72 এর সংবিধান কাটাছেঁড়া হয়েছে যার মাধ্যমে এখন আর কোনো রাজনৈতিক নির্দেশনা নেই সুতরাং সাথে সংবিধানের রাজনীতিকেও সম্পূকত করতে হবে।দল তান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থার বিপরীতে শ্রমজীবী কর্মজীবী পেশাজীবীদের অংশিদারিত্ব ভিত্তিক নতুন রাজনৈতিক মডেল প্রবর্তন করতে হবে। অংশীদারিত্ব ভিত্তিক রাজনৈতিক মডেলের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে জেএসডির ১০ দফা ও সিরাজুল আলম খানের ১৪ দফা রব বলেন, স্বৈরশাসনের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের কোন বিকল্প নেই আন্দোলনের জাতীয় ঐক্য প্রতিষ্ঠা হবে। এই জাতীয় স্বৈরাচার কে ক্ষমতা থেকে বিদায় করবে এবং শাসনব্যবস্থার বদল করতে ঐতিহাসিক ভূমিকা রাখবে। নোয়াখালী জেলা জেএসডির সভাপতি এম এ জলিল চেয়ারম্যানের সভাপতিত্বে মাইজদী বিআরডিবি মিলনায়তনে জেলা জেএসডি ত্রি-বার্ষিক কাউন্সিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আ স ম রব এ কথা বলেন। জেলা জেএসডির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট কাউসার নিয়াজির  সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেএসডি কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি তানিয়া রব, কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক এস এম রানা চৌধুরী, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট আবুল কাশেম, নোয়াখালী জেলা সহ-সভাপতি আবুল কাশেম পাটোয়ারী মোহাম্মদ উল্লা, মজিবুর রহমান সাংগঠনিক সম্পাদক, নুর রহমান চেয়ারম্যান বেগম গঞ্জ উপজেলা, মোঃ ইকবাল হোসেন, উপজেলা সভাপতি আনোয়ারুল কবির মানিক সহ সভাপতি, শহীদুল ইসলাম খোকন সেনবাগ উপজেলা আহবায়ক, হাজী মনির আহমেদ সদর উপজেলা আহ্বায়ক, আমীর হোসেন বিএসসি জেলা জেএসডি নেতা হাবিবুর রহমান হাবিব, ইমাম হোসেন, আহমেদ আলাউদ্দিন, হেলাল উদ্দিন, আলাউদ্দিন চেয়ারম্যান প্রমুখ সহ নোয়াখালী জেলা জেএসডির নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

ক্ষমা চাইলেন রাঙ্গা
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: নূর হোসেনকে নিয়ে করা বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সকলের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা।

সোমবার রাতে বেসরকারি এক টেলিভিশনকে দেয়া সাক্ষাৎকারে রাঙ্গা বলেন, হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ মারা যাওয়ার পরও তাকে যেভাবে অপমান করা হয়, সে ক্ষোভ থেকেই বিতর্কিত কিছু শব্দ ব্যবহার করে ফেলেছিলেন তিনি।

এজন্য তিনি সকলের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। সাক্ষাৎকারের এক পর্যায়ে রাঙ্গা প্রশ্ন তুলে বলেন, এক সাথে জোট করে এরশাদকে স্বৈরাচার বলা কতটা যৌক্তিক। এই বিষয়ে বিহীত করতে শিগগিরই প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ চাইবেন বলেও জানান তিনি। বলেন, এরশাদ সাহেব মারা যাওয়ার পরও তাকে যেভাবে আওয়ামী লীগ থেকে অপমান করা হয়, সেটা মেনে নেয়া যায় না।

গত রবিবার (১০ নভেম্বর) বনানীতে জাপা চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে গণতন্ত্র দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা দলীয় এক সভায় নুর হোসেনকে মাদকাসক্ত বলে আখ্যায়িত করেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা।


সংসদ সদস্য মইন উদ্দীন খান বাদল আর নেই
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : চট্টগ্রাম-৮ আসনের সংসদ সদস্য ও জাসদ নেতা মঈন উদ্দীন খান বাদল আর নেই।

বেঙ্গালুরুতে নারায়ণ হৃদরোগ রিচার্স ইনস্টিটিউট অ্যান্ড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার ভোর ৫টার দিকে তার মৃত্যু হয়। (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

মঈন উদ্দিনের ছোট ভাই ও বোয়ালখালী জাসদের সভাপতি মনিরউদ্দিন খান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মনির জানান, দুই বছর আগে ব্রেন স্ট্রোক করেছিলেন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) কার্যকরী সভাপতি মঈনউদ্দিন খান বাদল। পাশাপাশি তার হৃদরোগের সমস্যাও ছিল।

চট্টগ্রাম ৮ (চাঁদগাও-বোয়ালখালী) আসনের তিনবারের সাংসদ বাদল বর্তমান একাদশ জাতীয় সংসদের ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা এবং মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির সদস্য ছিলেন।

দেশের পথে খোকার মরদেহ
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট : ঢাকা সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সাদেক হোসেন খোকার মরদেহ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছেন তার পরিবারের সদস্যরা।

বুধবার সকাল ১০টা ২০ মিনিটে দুবাইর পথে রওয়ানা হয়েছে খোকার লাশ। সেখান থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা ১০ মিনিটে ঢাকায় পৌঁছানোর কথা রয়েছে এই মুক্তিযোদ্ধার লাশ।

খোকার কফিনের সঙ্গে তার স্ত্রী ইসমত হোসেন, ছেলে প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন ও ইশফাক হোসেন এবং মেয়ে সারিকা সাদেক ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালামসহ স্বজনরা আছেন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, সাদেক হোসেন খোকার মরদেহবাহী এমিরেটস এয়ারলাইন্সের ইকে ২০২ নম্বর ফ্লাইটটি নিউইয়র্ক সময় মঙ্গলবার রাত ১১টা ২০ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় বুধবার সকাল ১০টা ২০ মিনিটে) দুবাইর পথে রওয়ানা হয়েছে। সেখান থেকে একই এয়ারলাইন্সের ইকে ৫৮২ নম্বর ফ্লাইটে খোকার মরদেহ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় সকাল ৮টা ১০ মিনিটে ঢাকায় পৌঁছাবে।

বৃহস্পতিবার মরদেহ দেশে পৌঁছানোর পর বেলা ১১টায় জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। একইদিন মরহুমের মরদেহ সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য বেলা ১২টা থেকে ১টা পর্যন্ত কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে রাখা হবে।

বাদ জোহর নয়াপল্টন দলীয় কার্যালয়ের সামনে নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। বিকাল ৩টায় ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনে মরহুমের মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে এবং সেখানে নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। সেখান থেকে গোপীবাগে মরহুমের নিজস্ব বাসভবনে মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে। বাদ আছর মরহুমের বাসভবন থেকে মরদেহ ধুপখোলা মাঠে নিয়ে যাওয়া হবে এবং সেখানে শেষ নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। জানাজা শেষে জুরাইন কবরস্থানের বাবা-মা’র কবরের পাশে দাফন করা হবে ঢাকা সিটির সাবেক এই মেয়রকে।

গত সোমবার বাংলাদেশ সময় দুপুর ১টা ৫০ মিনিটে নিউইয়র্কের ম্যানহাটনের মেমোরিয়াল স্লোন ক্যাটারিং ক্যানসার সেন্টারে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান সাদেক হোসেন খোকা। তিনি দীর্ঘদিন ধরে ক্যান্সারে ভুগছিলেন।

কৃষক লীগের সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : কৃষক লীগের জাতীয় সম্মেলনের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার সকাল ১১টার পর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে উপস্থিত হওয়ার পর তিনি সম্মেলনের উদ্বোধন করেন।

প্রধানমন্ত্রী সম্মেলনস্থলে ঢুকলে নেতাকর্মীরা তাকে অভিবাদন জানিয়ে স্লোগান দিতে থাকেন। প্রধানমন্ত্রীও হাত নেড়ে উপস্থিত সবার অভিবাদনের জবাব দেন।

এরপর শান্তির প্রতীক সাদা পায়রা ও বেলুন উড়িয়ে জাতীয় সংগীত গেয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় একযোগে ৬৪ জেলার পক্ষে কৃষক লীগের পতাকা উত্তোলন করেন জেলা সভাপতিরা।

আওয়ামী লীগের অন্যতম সহযোগী এ সংগঠনের এটি ১০ম সম্মেলন। প্রায় আট বছর পর কৃষক লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সম্মেলন হয় সর্বশেষ ২০১২ সালের ১৯ জুলাই। ৩ বছরের কমিটির মেয়াদ থাকলেও চলেছে প্রায় ৮ বছর।

এদিকে দীর্ঘদিন পর সংগঠনের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে সোহারাওয়ার্দী উদ্যান পরিণত হয়েছে উৎসবের স্থান হিসেবে। সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ও এর আশপাশ এলাকা সেজেছে বর্নিল সাজে। রাস্তার মোড়ে মোড়ে ব্যানার ফেস্টুনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনাকে শুভেচ্ছা জানানো হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর আগমনকে কেন্দ্র করে পুরো এলাকা ঝকঝকে করে তোলা হয়েছে।

শেখ হাসিনা সম্মেলন স্থালে পৌঁছালে মঞ্চের পাশে ‘আমার বাড়ি আমার খামার’-এর একটি মডেল দেখানো হয়। পরে পবিত্র আল কোরআনসহ ধর্মগ্রন্থ থেকে পাঠ করে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়। পবিত্র কোরআন থেকে তেলোয়াত করেন কৃষক লীগের সহ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ওমর ফারুক। গীতা থেকে পাঠ করেন চন্দন জোতষী। বাইবেল থেকে পাঠ করেন গৌড়িয়া ঝর্না। ত্রিপিটক থেকে পাঠ করেন নৃঞ নৃঞ ক্ষেতো। ধর্মগ্রন্থ পাঠের পর প্রধান অতিথিকে কৃষক লীগের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান সংগঠনটির নেত্রী উম্মে কুলসুম ও হোসনে আরা। প্রধানমন্ত্রীকে সম্মেলনের ব্যাজ পরিয়ে দেন কৃষক লীগের মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক ও সাংসদ শামীমা শাহরিয়ার।

কৃষক লীগ সূত্রে জানা গেছে, এবারের সম্মেলনে সংগঠনটির গঠনতন্ত্রে বেশ কিছু পরিবর্তন এবং সংযোজন-বিয়োজন হবে। বাড়তে পারে কমিটির আকার।

দেশে কৃষির উন্নয়ন এবং কৃষকের স্বার্থ রক্ষার জন্য জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালের ১৯ এপ্রিল বাংলাদেশ কৃষক লীগ প্রতিষ্ঠা করেন।

কৃষক লীগের শীর্ষ দুই পদের জন্য আলোচনায় রয়েছেন সংগঠনের বর্তমান কমিটির কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি ওমর ফারুক, সহ-সভাপতি শরীফ আশরাফ হোসেন, সহ-সভাপতি কৃষিবিদ বদিউজ্জামান বাদশা, সহ-সভাপতি শেখ মো. জাহাঙ্গীর আলম। সাধারণ সম্পাদক হিসেবে আলোচনায় রয়েছেন যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সমীর চন্দ্র, সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক ছাত্রলীগ নেতা বিশ্বনাথ সরকার বিটু, কৃষিবিদ সাখাওয়াত হোসেন সুইট, আসাদুজ্জামান বিপ্লব, আবুল হোসেন, গাজী জসিম উদ্দিন, কাজী জসিম, আতিকুল হক আতিক।

আখাউড়ায় আ.লীগের সম্মেলন স্থগিত
                                  

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে। আগামী ১ নভেম্বর সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। মাত্র ২ আগে সম্মেলন স্থগিত হওয়ায় নেতাকর্মীরা বিস্মিত হয়েছেন। সম্মেলনে সভাপতি প্রার্থী ছিলেন ৫ জন এবং সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ৪ জন।
জানা যায়, আগামী ১ নভেম্বর অনুষ্ঠিতব্য উপজেলা আওয়ামীলীগের সম্মেলন কেন্দ্র করে নেতাকর্মীরা অপেক্ষার প্রহর গুনছিলেন। সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে কার আসছেন এই নিয়ে নেতাকর্মীদের মাঝে কৌতুহলের সৃষ্টি হয়েছিল। সম্ভাব্য প্রার্থীরাও দলীয় নেতাকর্মীদের মন জয়ে ব্যস্ত সময় পাড় করেছেন। কোন কোন প্রার্থী সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারণা চালিয়েছেন। সভাপতি প্রার্থী যুবলীগের আহবায়ক ও পৌর মেয়র তাকজিল খলিফা কাজলের ব্যানার, ফেস্টুন, পোষ্টার এবং তোরণে ঢেকে যায় গোটা আখাউড়া। তাঁর সমর্থনে পৌরশহরসহ উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ সড়কে নির্মাণ করা হয় দেড় শতাধিক তোরণ। অন্তত ৩’শ ফেস্টুন ও ব্যানার লাগানো হয় বিভিন্ন স্থানে। নির্বাচনের শুরু থেকেই এই যুবলীগ নেতা আলোচনায় ছিলেন। হঠাৎ সম্মেলন হওয়ায় তাঁর ভক্ত-সমর্থকরা অনেকটাই হতাশ।
বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, সম্মেলন স্থগিতের পেছনে আইনমন্ত্রী এড. আনিসুল হকের মাতার অসুস্থ্যতার পাশাপাশি, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনের এমপি র.আ.ম. ওবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী অসুস্থ্য। তিনি চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে অবস্থান করছেন। তাছাড়া আওয়ামীলীগ সভাপতি প্রার্থী যুবলীগ আহবায়ক তাকজিল খলিফা কাজলের সমর্থনে ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও তাঁর সমর্থকরা যান চলাচলের সড়ক দখল করে অতিমাত্রায় ব্যানার, ফেস্টুন এবং তোরণ নির্মাণ করে সম্মেলনটিকে একপেশে করে ফেলায় আঘাত পান দলের ত্যাগী সিনিয়র নেতারা। যাতে করে যে কোন সময় দ্বন্দ্ব সংঘাতের শঙ্কা দেখা দেয়। আর এসব বিষয় বিবেচনা করেই সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে বলে মনে করেন কয়েকজন সিনিয়র নেতারা।
সভাপতি প্রার্থী মো. সেলিম ভূইয়া বলেন, এটা দলের সম্মেলন। এত তোরন নির্মান করার কোন দরকার মনে করি না। দল যেখানে রাখে সেখানে থেকেই দলের জন্য কাজ করব। সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী মো. মনির হোসেন বলেন, সম্মেলন হয়ে গেলেই ভালো ছিল। ঝামেলা শেষ হয়ে যেত। সম্মেলন নিয়ে মনোমালিন্য দূর হয়ে যেত। আখাউড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক অধ্যক্ষ মো. জয়নাল আবেদীন বলেন, মন্ত্রী মহোদয়ের (আইনমন্ত্রী এড. আনিসুল হক) মাতা খুবই অসুস্থ। তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। এজন্য মন্ত্রী মহোদয় ১ নভেম্বরের সম্মেলনে উপস্থিত থাকতে পারবেন না বিধায় সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে।

আন্দোলনের জন্য দল ঢেলে সাজানো হচ্ছেঃ এমপি সিরাজ
                                  

বগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়া জেলা বিএনপির আহবায়ক ও সদর আসনের সংসদ সদস্য গোলাম মোঃ সিরাজ বলেছেন, রাজপথের সফল আন্দোলনের জন্য শক্তিশালী সংগঠন দরকার। সে লক্ষ্যে বগুড়া সহ সারাদশে বিএনপি ও তার অঙ্গদলগুলো তৃনমূল থেকে ঢেলে সাজানো হচ্ছে। দল পূনর্গঠনের কাজ শেষ হলে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে এবং গণতন্ত্রের মা বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে দূর্বার আন্দোলন কর্মসূচী আসবে। সেই আন্দোলনে মহিলা দলকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে। বগুড়ায় মহিলা দলকে সামনে রেখে সেই আন্দোলন বগুড়া থেকেই  শুরু করা হবে। একইসাথে তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনা হবে। তাই সবাই আন্দোলনের প্রস্তুতি নিন। তিনি মঙ্গলবার শহরের টিএমএসএস মহিলা মার্কেট মিলনায়তনে জাতীয়তাবাদী মহিলা দল বগুড়া জেলা শাখার প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন। সভার বিশেষ অতিথি মহিলা দলের কেন্দ্রীয় সভানেত্রী মিসেস আফরোজা আব্বাস বলেন, ম্যাডাম কারাগারে থাকলেও তার মনোবল শক্ত আছে। তিনি সরকারের কোন দয়ায় কারামুক্ত হতে চান না। সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকলে আন্দোলন সফল হবে। ত্যাগী ও পরীক্ষিতরা  দলে উপযুক্ত পদ পাবেন। কেউ বঞ্চিত হবেন না। শিগিরই বগুড়া জেলা মহিলা দলের কমিটি গঠন করা হবে। মহিলা দলের কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদিকা সুলতানা আহমেদ বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বলেন, খালেদা জিয়া মুক্ত হলে গণতন্ত্র মুক্ত হবে এবং তারেক রহমান দেশে ফিরলে দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষা হবে। জেলা মহিলা দলের সভানেত্রী মিসেস লাভলী রহমানের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন বগুড়া জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক অ্যাডভোকেট একেএম সাইফুল ইসলাম, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবর রহমান ও হেলালুজ্জামান তালুকদার লালু, মহিলা দলের সিনিয়র যুগ্ম সাধারন সম্পাদক হেলেন জেরিন খান, সাবেক এমপি শাম্মী আক্তার, নায়েবা ইউসুফ, নূর আফরোজ বেগম জ্যোতি, অ্যাডভোকেট শাহজাদী লায়লা আরজুমান্দ বানু, শামীমা আক্তার পলিন, সুরাইয়া জেরিন রনি,  নাজমা আক্তার প্রমুখ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল, বিএনপি নেতা  আলী আজগর তালুকদার হেনা, জয়নাল আবেদীন চাঁন, রেজাউল করিম বাদশা, মাহবুবুর রহমান বকুল, এম আর ইসলাম স্বাধীন, কেএম খায়রুল বাশার, তাহা উদ্দিন নাহিন, সহিদ উন নবী ছালাম, মনিরুজ্জামান মনি, মাফতুন আহমেদ খান রুবেল প্রমুখ।

স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কাওসারকে অব্যাহতি
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : ক্যাসিনোকাণ্ডে স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট মোল্লা মোহাম্মদ আবু কাওসারকে সংগঠন থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে তাকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

বুধবার সকালে রাজধানীর ধানমন্ডিতে ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় এই কথা জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

ওবায়দুল কাদের বলেন, মোল্লা কাওসারকে স্বেচ্ছাসেবক লীগের পদে থেকে অব্যাহতি দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আমি তাকে বিষয়টি জানিয়ে দিয়েছি।

সম্প্রতি রাজধানীর ক্যাসিনো কারবারে ওয়ান্ডারার্স ক্লাবের সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে বিভিন্ন গণমাধ্যমের শিরোনামে আসেন মোল্লা কাওসার।

গত সোমবার জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সেল (সিআইসি) থেকে সংশ্লিষ্ট ব্যাংকগুলোকে কাওসারসহ স্ত্রী পারভীন লুনা, মেয়ে নুজহাত নাদিয়া নীলা এবং তাদের প্রতিষ্ঠান ফাইন পাওয়ার সল্যুয়েশন লিমিটেডের ব্যাংক হিসাব জব্দ করে। এ কারণে সম্মেলনের আগেই তাকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হচ্ছে বলে সংগঠনের ভেতরে-বাইরে জোর গুঞ্জন শুরু হয়।

সরকার ছাত্ররাজনীতি বন্ধের পক্ষে নয়: কাদের
                                  

রাজশাহী প্রতিনিধি : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সরকার ছাত্র রাজনীতি বন্ধের পক্ষে নয়। তিনি বলেন, ছাত্র রাজনীতির কোনো দোষ নেই, ছাত্র রাজনীতির নামে যারা অপকর্ম করবে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।

রোববার রাজশাহী সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। এর আগে সার্কিট হাউজে প্রাঙ্গণে তাকে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ছাত্ররাজনীতি বন্ধের পক্ষে আমরা নই। যারা ছাত্ররাজনীতির নামে অপকর্ম করবে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। রাজনীতিবিদদের অধিকাংশেরই হাতেখড়ি ছাত্ররাজনীতি থেকে। কাজেই মাথা ব্যথা হলে মাথা কেটে ফেলা সমাধান নয়।

‘প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে দলে শুদ্ধি অভিযান চলছে’ জানিয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, মাদক, জুয়া, টেন্ডারবাজি, দুর্নীতিসহ সবধরনের অপকর্মের বিরুদ্ধে এই শুদ্ধি অভিযান। প্রথমে ঘর থেকে শুরু করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে সবখানে এই অভিযান চালানো হবে।

যুবলীগের চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরীর বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে কাদের বলেন, চেয়ারম্যান নজরদারিতে রয়েছেন কি-না তা পরে জানা যাবে। তবে তিনি আত্মগোপনে নেই।

‘আর যুবলীগের নেতাদের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ আছে। তারা নজরদারিতে রয়েছেন,’ যোগ করেন তিনি।

ফাহাদ হত্যায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া হবে : ওবায়দুল কাদের
                                  


স্টাফ রিপোর্টার : বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়-বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার সচিবালয়ে সমসাময়িক ইস্যু নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

বুয়েটে একজন শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে -এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে ওবায়দুল কাদের বলেন, দেখুন এটা আমি শুনেছি, এটা আমি জানি। একটু আগে পুলিশের আইজির সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তিনি জিজ্ঞাসা করেছেন। আমি তাকে বলেছি, আপনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বিষয়টা আলাপ করতে পারেন।

মন্ত্রী বলেন, আমি যতটুকু বুঝি, এখানে ভিন্নমতের জন্য একজন মানুষকে মেরে ফেলার কোনো অধিকার কারও নেই। কাজেই এখানে আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে। তদন্ত চলছে, তদন্তে যারাই অপরাধী বলে সাব্যস্ত হবে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে, পারসোনালি আমি বলেছি- এখানে আমার কোনো ভিন্ন মত নেই।

ওবায়দুল কাদের বলেন, অপরাধী যেই হোক, আইন নিজস্ব গতিতে চলবে। প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফরে দেশ বিক্রিও তো বলে ফেলছে বিএনপি, তাই বলে বিএনপি নেতাদের কী আমরা মেরে ফেলব? কোনো আবেগ ও হুজুগে কারা (আবরার ফাহাদকে হত্যা) করেছে, তাদের অবশ্যই খুঁজে বের করতে হবে এবং সেই তদন্ত চলছে।

দুর্বৃত্তায়নের চক্র ভেঙে দিতেই শুদ্ধি অভিযান : ওবায়দুল কাদের
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সারাদেশে যে শুদ্ধি অভিযান চলছে তা কোনো দল বা গোষ্ঠীর মধ্যে নয়।  এ অভিযান দলে অনুপ্রবেশকারী, স্বাধীনতাবিরোধী, অপকর্মকারী, চাঁদাবাজ ও টেন্ডারবাজদের বিরুদ্ধে।

শনিবার পুরান ঢাকার শ্রী শ্রী ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে এক বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়েদুল কাদের বলেন, এ অভিযান কোনো গোষ্ঠী বা ব্যক্তির বিরুদ্ধে নয়। এটি দুর্বৃত্তদের বিরুদ্ধে, দুর্বৃত্তায়নের চক্র ভেঙে দিতেই এ অভিযান।

তিনি বলেন, দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে অভিযানের পাশাপাশি যারা অনুপ্রবেশকারী তাদের প্রতি দলের সভাপতির নির্দেশ রয়েছে। তৃণমূলের কমিটি গঠনে বিতর্কিতদের স্থান না দেওয়ার নির্দেশ আছে।

ভারত-বাংলাদেশ সফরের বিষয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের সাথে ভারতের সম্পর্ক অনেক ভালো। নরেন্দ্র মোদি সরকারের সাহসিকতার কারণে ছিটমহলের মতো সীমান্ত সমস্যার সুরাহা করেছেন। সমুদ্র সীমার বিষয়ে জাতিসংঘের রায়ের বিরুদ্ধে তারা আপিল না করে তারা সুসম্পর্ক বজায় রেখেছে।

হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, বাংলাদেশে হিন্দু-মুসলমান সবাই এক। শেখ হাসিনা যতদিন ক্ষমতায় আছেন, আপনাদের কোনো ভয় নেই। আপনাদের ভোটের মর্যাদা মুসলমানের চেয়ে কম নয়। আপনারা মাথা উঁচু করে দাঁড়াবেন। মেরুদণ্ড সোজা করে দাঁড়াবেন।

সরকারের পায়ের নিচে মাটি নাই: খন্দকার মাহবুব
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: সরকারের পায়ের নিচে মাটি নাই বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন। তিনি বলেন, ‘সরকারের পায়ের নিচে মাটি নাই। তারা দোদুল্যমান অবস্থায় আছে। যেকোনো মুহূর্তে ধাক্কা দিলেই তাদের পতন হবে। এই সরকার অবৈধ। আপনার (প্রধানমন্ত্রী) উচিত নিরপেক্ষ সরকারের মাধ্যমে নির্বাচন দেওয়া। নয়তোবা আপনার পতন কিন্তু আসন্ন। আপনার পায়ের নিচে মাটি নাই, আশপাশে কেউ নাই।’

আজ শুক্রবার খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরাম আয়োজিত এক মানববন্ধনে এসব কথা বলেন খন্দকার মাহবুব।

খন্দকার মাহবুব বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের সাহেব বলেছেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রীর কাছে অপরাধীদের তালিকা আছে।’’ তালিকা রেখে লাভ নাই। আমরা দেখতে চাই কারা সেই অপরাধী। তাদের গ্রেপ্তার করে বিচারের কাঠগড়ায় নিয়ে আসুন।’

বিচার বিভাগ নিয়ে তিনি বলেন, ‘হাইকোর্ট নিয়ে খেলতে যাবেন না, বিচার বিভাগকে নিয়ে খেলতে যাবেন না। বিচারকরাও আপনার খেলার সঙ্গী হবে না। যদি হয় তাহলে দেশে অস্থির অবস্থার সৃষ্টি হবে। কিন্তু এটা আমরা চাই না। ’

কোনোদিন করুণা ভিক্ষা চাইবেন না জানিয়ে বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘আল্লাহর নামে শপথ নিয়ে বলছি, আর কোনোদিন করুণা ভিক্ষা করব না। হাইকোর্টের বিচার যদি থাকে, সংবিধান অনুযায়ী বিচার যদি করতে পারে, তাহলে হাইকোর্টের অস্তিত্ব থাকবে। নতুবা অস্তিত্ব থাকবে না। ’

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন-বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা সৈয়দ মেহেদী আহমেদ রুমি, যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মোহাম্মদ রহমতুল্লাহ ও নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের সহসভাপতি জনতার রফিক প্রমুখ।


   Page 1 of 79
     রাজনীতি
বিএনপি অরাজকতা করলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
‘বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে বললে জিহ্বা ছিঁড়ে ফেলবে ছাত্রলীগ’
.............................................................................................
গ্রামকে শহরে রূপান্তর করা হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী
.............................................................................................
তথ্য অধিকার আইনের আশ্রয় নিচ্ছে বিএনপি
.............................................................................................
সৈরশাসনের বিদায়ের সাথে শাসন ব্যবস্থা ও বদলাতে হবে: আ স ম রব
.............................................................................................
ক্ষমা চাইলেন রাঙ্গা
.............................................................................................
সংসদ সদস্য মইন উদ্দীন খান বাদল আর নেই
.............................................................................................
দেশের পথে খোকার মরদেহ
.............................................................................................
কৃষক লীগের সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
আখাউড়ায় আ.লীগের সম্মেলন স্থগিত
.............................................................................................
আন্দোলনের জন্য দল ঢেলে সাজানো হচ্ছেঃ এমপি সিরাজ
.............................................................................................
স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কাওসারকে অব্যাহতি
.............................................................................................
সরকার ছাত্ররাজনীতি বন্ধের পক্ষে নয়: কাদের
.............................................................................................
ফাহাদ হত্যায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া হবে : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
দুর্বৃত্তায়নের চক্র ভেঙে দিতেই শুদ্ধি অভিযান : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
সরকারের পায়ের নিচে মাটি নাই: খন্দকার মাহবুব
.............................................................................................
বিএনপি নেতাদের অবৈধ সম্পদের তথ্যও বের করা হবে : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
বাহ! হুইপপুত্রের অস্ত্র মহড়া
.............................................................................................
ঢাবিতে ধর্মভিত্তিক রাজনীতি নিষিদ্ধের সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবী ইসলামী আন্দোলনের
.............................................................................................
ফিতা কাটতে একদিনই ওই ক্লাবে গিয়েছি : মেনন
.............................................................................................
বিএনপির উচিত প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ দেওয়া : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে ক্ষমা চাইলেন রাব্বানী
.............................................................................................
এবার সিনেট থেকে পদত্যাগ চেয়ে শোভনের আবেদন
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধুর ছাত্রলীগ কখনো আদর্শচ্যুত হতে পারে না: জয়
.............................................................................................
ছাত্রদলের নিজেদের মামলয় কাউন্সিল বন্ধ: কাদের
.............................................................................................
শোভন-রব্বানীর বিরুদ্ধে নতুন বোমা ফাটালেন জগন্নাথের জয়নুল আবেদীন রাসেল
.............................................................................................
চতুর্দিকে শুধু লুট, একটি পর্দার দাম ৩৭ লাখ: ফখরুল
.............................................................................................
মিথ্যা মামলায় হয়রানীর শিকার আ.লীগ নেতা
.............................................................................................
‘জনগণের পকেট কাটতেই মহাসড়কে টোল আদায়ের সিদ্ধান্ত’
.............................................................................................
জি এম কাদেরের হুঁশিয়ারি
.............................................................................................
রওশনকে চেয়ারম্যান ঘোষণা জাপার একাংশের
.............................................................................................
এরশাদের আসনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন সাদ
.............................................................................................
বৃহত্তর ঐক্য গড়ার লক্ষ্য বিএনপির
.............................................................................................
‘মুজিব মনে মুক্তি’ নাটকের প্রদর্শনী শুরু
.............................................................................................
কৃষক লীগের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত
.............................................................................................
১০ কাঠার প্লট চেয়ে রুমিন ফারহানার আবেদন
.............................................................................................
ভৈরবে আইভি রহমানের মৃত্যু বার্ষিকী পালন
.............................................................................................
তারেককে ফিরিয়ে আনতে সরকার সর্বাত্মক চেষ্টা করছে : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
জামায়াত নেতার নাতনি শ্রমিকলীগ নেত্রী
.............................................................................................
তৃণমূল থেকে ওপর পর্যন্ত লুটপাট চলছে: মির্জা ফখরুল
.............................................................................................
১৪ সেপ্টেম্বর ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কাউন্সিল
.............................................................................................
খালেদার মুক্তির দাবিতে নারায়ণগঞ্জে মানববন্ধন
.............................................................................................
ডেঙ্গু ও আদালতে বিচারকের সামনে মানুষ হত্যা এটাও নাকি গুজব: খন্দকার মোশারফ হোসেন
.............................................................................................
ব্রাহ্মণবাড়িয়া আওয়ামীলীগের সভায় প্রশাসনের বিরুদ্ধে ক্ষোভ
.............................................................................................
গুজবের ফ্যাক্টরি বিএনপির কার্যালয় : কাদের
.............................................................................................
গুজবে গ্রেফতার ৭০ ভাগই বিএনপি জামায়াতের : তথ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
অজুহাত দেখাবেন না-গ্যাসের দাম কমান : রিজভী
.............................................................................................
জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ছাড়লেন কাদের সিদ্দিকী
.............................................................................................
সারাদেশে বাম জোটের হরতাল চলছে
.............................................................................................
মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের কমিটিতে পটুয়াখালীর কৃতী সন্তান সাইফুর রহমান শামীম
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Nytasoft