রবিবার, ২৫ অগাস্ট ২০১৯ | বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   জাতীয় -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
ওএসডি হচ্ছেন জামালপুরের সেই ডিসি, ভিডিও আন্তর্জাতিক পর্ন সাইটে

এক নারী অফিস সহকারীর সঙ্গে আপত্তিকর ভিডিও প্রকাশের ঘটনায় জামালপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীরকে ওএসডি (বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) করা হচ্ছে। জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

শনিবার রাত সাড়ে ৮টায় তিনি বলেন, ‘জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীরের বিরুদ্ধে সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে এনেছি। আগামীকাল (রোববার) তাকে ওএসডি করে আদেশ জারি করা হবে। সেখানে (জামালপুর) নতুন একজন যোগ দেবেন।’

নিজ কার্যালয়ে ওই নারীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কের ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি এখন আন্তর্জাতিক একাধিক পর্ন সাইটে চলে গেছে। ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি মিনিট পাঁচেকের হলেও পর্ন সাইটে পুরো ২৪ মিনিট ৫৮ সেকেন্ডের ভিডিও আপ হয়েছে। অর্থাৎ ফেসবুক বা ম্যাসেঞ্জারে কাটছাট করে ছাড়া হয়েছিল ভিডিওটি। গত বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে খন্দকার সোহেল আহমেদ নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে জেলা প্রশাসকের আপত্তিকর ভিডিওটি পোস্ট করা হয়।

যদিও বিষয়টি অস্বীকার করে ঘটনাটি ‘সাজানো’ বলে দাবি করেন জেলা প্রশাসক আহমেদ কবীর। ওই ঘটনায় জামালপুরসহ সারাদেশের মানুষের মাঝে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে।

জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী এ প্রসঙ্গে আরও বলেন, ‘চাকরির বিধি অনুযায়ী অন্যান্য প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তার (ডিসি আহমেদ কবীর) বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

এর আগে, শনিবার (২৪ আগস্ট) সকালে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব (জেলা ও মাঠপ্রশাসন অনুবিভাগ) আ. গাফ্ফার খান বলেন, ‘ঘটনার বিষয়ে অবগত আছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। বিভাগের কর্মকর্তারা প্রাথমিকভাবে বিষয়টি খতিয়ে দেখছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘তদন্ত কমিটি হবে, এখন বন্ধ যাচ্ছে। অফিস খুললেই এটা হবে। তবে এটা নিয়ে বিভিন্নভাবে তদন্ত হচ্ছে, বিভিন্ন সংস্থা-কর্তৃপক্ষ সেটা করছে। আরও অনেক অথরিটি আছে, তারাও দেখছে। এটা আমাদের নলেজেও আছে। বিষয়টি দেখা হচ্ছে’ বলেন অতিরিক্ত সচিব।

ওএসডি হচ্ছেন জামালপুরের সেই ডিসি, ভিডিও আন্তর্জাতিক পর্ন সাইটে
                                  

এক নারী অফিস সহকারীর সঙ্গে আপত্তিকর ভিডিও প্রকাশের ঘটনায় জামালপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীরকে ওএসডি (বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) করা হচ্ছে। জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

শনিবার রাত সাড়ে ৮টায় তিনি বলেন, ‘জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীরের বিরুদ্ধে সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে এনেছি। আগামীকাল (রোববার) তাকে ওএসডি করে আদেশ জারি করা হবে। সেখানে (জামালপুর) নতুন একজন যোগ দেবেন।’

নিজ কার্যালয়ে ওই নারীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কের ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি এখন আন্তর্জাতিক একাধিক পর্ন সাইটে চলে গেছে। ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি মিনিট পাঁচেকের হলেও পর্ন সাইটে পুরো ২৪ মিনিট ৫৮ সেকেন্ডের ভিডিও আপ হয়েছে। অর্থাৎ ফেসবুক বা ম্যাসেঞ্জারে কাটছাট করে ছাড়া হয়েছিল ভিডিওটি। গত বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে খন্দকার সোহেল আহমেদ নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে জেলা প্রশাসকের আপত্তিকর ভিডিওটি পোস্ট করা হয়।

যদিও বিষয়টি অস্বীকার করে ঘটনাটি ‘সাজানো’ বলে দাবি করেন জেলা প্রশাসক আহমেদ কবীর। ওই ঘটনায় জামালপুরসহ সারাদেশের মানুষের মাঝে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে।

জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী এ প্রসঙ্গে আরও বলেন, ‘চাকরির বিধি অনুযায়ী অন্যান্য প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তার (ডিসি আহমেদ কবীর) বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

এর আগে, শনিবার (২৪ আগস্ট) সকালে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব (জেলা ও মাঠপ্রশাসন অনুবিভাগ) আ. গাফ্ফার খান বলেন, ‘ঘটনার বিষয়ে অবগত আছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। বিভাগের কর্মকর্তারা প্রাথমিকভাবে বিষয়টি খতিয়ে দেখছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘তদন্ত কমিটি হবে, এখন বন্ধ যাচ্ছে। অফিস খুললেই এটা হবে। তবে এটা নিয়ে বিভিন্নভাবে তদন্ত হচ্ছে, বিভিন্ন সংস্থা-কর্তৃপক্ষ সেটা করছে। আরও অনেক অথরিটি আছে, তারাও দেখছে। এটা আমাদের নলেজেও আছে। বিষয়টি দেখা হচ্ছে’ বলেন অতিরিক্ত সচিব।

মোজাফফর আহমদের ১ম জানাজা অনুষ্ঠিত
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: মুক্তিযুদ্ধকালীন সরকারের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টির (ন্যাপ) সভাপতি অধ্যাপক মোজাফফর আহমদের প্রথম জানাজা জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ শনিবার বেলা ১১টার দিকে জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় অধ্যাপক মোজাফফর আহমদের মরদেহ নেওয়া হয়। সেখানে সংসদ সদস্যসহ বিশিষ্টজনদের উপস্থিতিতে অধ্যাপক মোজাফফর আহমদের প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

শুক্রবার রাত পৌনে ৮টার দিকে রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

জানাজার পর মোজাফফর আহমদের কফিনে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরিন শারমিন চৌধুরী। রাষ্ট্রপতি সশরীরে হাজির হতে না পারায় তার পক্ষে শ্রদ্ধা জানান সহকারী সামরিক সচিব। পরে, আওয়ামী লীগের পক্ষে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন দলের সভাপতি শেখ হাসিনা, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী প্রমুখ।

কিছুক্ষণের মধ্যে তাঁর লাশ নেওয়া হবে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে। সেখানে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে দুপুরে তার দ্বিতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

বাদ আছর বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে অধ্যাপক মোজাফফর আহমদের তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

রাতে লাশ নেওয়া হবে কুমিল্লার দেবীদ্বার উপজেলার এলাহাবাদে তার গ্রামের বাড়িতে। আগামীকাল রবিবার জানাজা শেষে সকাল ১০টায় নিজ গ্রামে দাফন করা হবে তাকে।

মোজাফফর আহমদের মরদেহে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : সদ্য প্রয়াত অধ্যাপক মোজাফফর আহমদের মরদেহে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।

শনিবার বেলা ১১টায় জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় মোজাফফর আহমদের মরদেহে ফুল দিয়ে এই শ্রদ্ধা জানানো হয়। এর আগে সেখানে তার নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

জানাজা শেষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের পক্ষে তার সহকারী সামরিক সচিব শ্রদ্ধা জানান। আওয়ামী লীগের পক্ষে দলীয় নেতাদের সঙ্গে নিয়ে সভাপতি শেখ হাসিনা শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে মরহুমের আত্মার শান্তি কামনা করে দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।

এ সময় আওয়ামী লীগের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। এর আগে মরহুমের জীবন নিয়ে স্মৃতিচারণ করেন তার দীর্ঘ দিনের রাজনৈতিক সহকর্মীরা। বীর এ মুক্তিযোদ্ধার কফিন জাতীয় পতাকায় মোড়ানো ছিল।

জানাজায় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন, সিপিবি সভাপতি মুহিদুল ইসলাম সেলিম, ব্যারিস্টার আমির-উল ইসলাম, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান, মাহবুব উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুস সোবহান গোলাপ উপস্থিত ছিলেন। সেখানে মরহুমের জীবনী পাঠ করেন ন্যাপের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন।

জানাজা পরিচালনা করেন সংসদ ভবন মসজিদের ইমাম মাওলানা মো. সাইফুল্লাহ। জানাজা শেষে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক মোজাফফর আহমেদকে গার্ড অব অনার ও রাষ্ট্রীয় সালাম প্রদান করা হয়। এ সময় এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

আজ বাদ যোহর বায়তুল মোকাররম মসজিদে তার দ্বিতীয় নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। আগামীকাল রোববার কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলায় নিজ গ্রামে মরহুমের দাফন সম্পন্ন করা হবে।

শুক্রবার রাত ৭টা ৪৯ মিনিটে বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ অধ্যাপক মোজাফফর আহমদ রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন মারা যান। তার বয়স হয়েছিল ৯৭ বছর।

অধ্যাপক মোজাফফর আহমদ মুক্তিযুদ্ধকালীন মুজিবনগর সরকারের উপদেষ্টা ছিলেন। এছাড়া ব্রিটিশবিরোধী আন্দোলন, ভাষা আন্দোলন এবং স্বাধীনতাযুদ্ধে তার ভূমিকা অবিস্মরণীয়।

অক্টোবরে ভারত যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী, অমীমাংসিত সমস্যা সমাধানের প্রত্যাশা
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: আওয়ামী লীগের শাসনামলে ভারতের সঙ্গে সীমান্ত নির্ধারণসহ বেশ কিছু অমীমাংসিত সমস্যার সমাধান হয়েছে। তবে সীমান্ত হত্যা কমলেও ঘোষণা অনুযায়ী শূন্যে না নামা, বাংলাদেশ থেকে রপ্তানি বাড়লেও এখনো অশুল্ক বাঁধা রয়ে যাওয়া আর বিশেষ করে তিস্তার পানি বণ্টন চুক্তি আটকে থাকায় আছে বিরূপ প্রতিক্রিয়া। আগামী অক্টোবরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভারত সফরে আমাদের অমীমাংসিত সমস্যার সমাধানে অগ্রগতি হবে বলে জানিয়েছেন ওবায়দুল কাদের।

ক্ষমতাসীন দলের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক এখন নতুন উচ্চতায় উন্নীত। আর প্রতিবেশী দেশটির সঙ্গে সম্পর্কের কোন টানাপোড়েন নেই।

শুক্রবার বিকালে রাজধানীর পলাশীর মোড়ে হিন্দু অবতার শ্রী কৃষ্ণের জন্মবার্ষিকী জন্মাষ্ঠমীর মিছিল উদ্বোধন করেন কাদের। এ সময় গণমাধ্যমকর্মীদেরকে এসব কথা বলেন তিনি।

ভারতের প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণে আগামী অক্টোবরে দিল্লি যাচ্ছেন শেখ হাসিনা। ২০১৭ সালেও তার সফরে দুই দেশের মধ্যে বেশ কিছু চুক্তি ও সমঝোতা হয়েছিল।

দুই বছর আগে শেখ হাসিনার সফরের সময় তিস্তা নিয়ে চুক্তি না হলেও মোদি অঙ্গীকার করেন, তার মেয়াদেই হবে এই চুক্তি। তবে সে কথা রাখতে পারেননি তিনি। দুই দেশেই নতুন নির্বাচন শেষে চলতি বছরই হয়েছে নতুন সরকার। আর ভারতে আগের চেয়ে শক্তিশালী হয়েছেন মোদি। তাই তিনি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের বাঁধা কতটা অতিক্রম করতে পারেন, সেটা এখন দেখার বিষয়।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর সফরের মধ্য দিয়ে আমাদের কনস্ট্রাকটিভ পার্টনারশিপ আরও নতুন উচ্চতায় উন্নীত হবে এবং আমাদের দেশের বিরাজমান অমীমাংসিত সমস্যাগুলো সমাধানে আমরা আরেক ধাপ এগিয়ে যাব।’

হিন্দু সম্প্রদায়ের উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, ‘শেখ হাসিনার সরকার মাইনরিটিবান্ধব সরকার। এ সরকার যতদিন আছে আপনাদের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই। আপনাদের দূর্গা উৎসব শান্তিপূর্ণভাবে পালিত হয়েছে। অন্য উৎসবগুলোও শান্তিপূর্ণভাবে পালিত হচ্ছে। শেখ হাসিনার সরকারের আমলে এইদিক দিয়ে আপনারা নিরাপদ।’

‘আপনাদের শত্রু যারা, তারা বাংলাদেশের শত্রু। তারা হচ্ছে সাম্প্রদায়িক অপশক্তি। এই সাম্প্রদায়িক অপশক্তি শুধু আপনাদের শত্রু না, বাংলাদেশের শত্রু। এই সাম্প্রাদায়িক শক্তির বিষবৃক্ষকে উৎপাটনের জন্য আপনাদের কাছে শ্রীকৃষ্ণের জন্মদিনে আমার আহ্বান। আসুন আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধভাবে সাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে প্রতিরোধ করি।’

‘শ্রীকৃষ্ণের জন্ম ও তার আবির্ভাব হয়েছিল অসত্য ও অকল্যাণের বিরুদ্ধে সত্য ও সুন্দর কল্যাণের লড়াইয়ের জন্য। এ লড়াইয়ের মাধ্যমে সুদিনের প্রত্যাশায় আমাদের সকলকে উজ্জীবিত হতে হবে।’

ঢাকা মহানগর পুলিশের কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া বলেন, ‘ধর্ম যার যার উৎসব সবার। আমাদের কোন আচরণে যেন কারো ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত না লাগে এ বিষয়ে সকলকে সজাগ থাকতে হবে।’

সার্বজনীন পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি শৈলেন্দ্র নাথের সভাপতিত্বে শোভাযাত্রার  উদ্বোধন করেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন।

১ দিনে ১৪৪৬ রোগী হাসপাতালে ভর্তি
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: সার্বিকভাবে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা কমে এসেছে জানিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ জানান, সারাদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ১ হাজার ৪৪৬ জন ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকা শহরে আক্রান্ত ৬৮৯ জন এবং অন্যান্য বিভাগে ৭৫৭ জন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর আরও জানায়, সারাদেশে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়েছে ৬১০৩৮ জন। বর্তমানের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন ৬০৩৫ জন।

তিনি বলেন, ডেঙ্গু রোগ সম্পর্কে জনসচেতনতা আগের চেয়ে বহুলাংশে বেড়েছে। সরকারি ও বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান সম্মিলিত প্রচেষ্টায় মশা নিধন কার্যক্রম পরিচালনার পাশাপাশি হাসপাতালগুলোতে চিকিৎসক-নার্সসহ সংশ্লিষ্টদের আন্তরিক প্রচেষ্টার কারণে ডেঙ্গু রোগী সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন।

গাড়ি ছিনতাইয়ে অভিনব কৌশল
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : নতুন গাড়ি দেখলেই চালককে টার্গেট করা ছিল অপহরণের প্রথম ধাপ। এরপর যাত্রীবেশে গাড়িতে উঠে কৌশলে নিজেদের সুবিধামতো জায়গায় নিয়ে গিয়ে গাড়ি ও চালককে রাখতো জিম্মি করে। তারপর পরিবারের সদস্যদের কাছে ফোন দিয়ে ভুক্তভোগীর কান্না শুনিয়ে মুক্তিপণ আদায় করতো তারা। এমনই একটি চক্রের সন্ধান পেয়েছে র‌্যাব।

সম্প্রতি রাজধানীর মিরপুরে প্রাইভেটকারসহ অপহরণ হন এনায়েত উল্লাহ নামে একজন। র‌্যাব-৪ এর একটি দল মাদারীপুরের শিবচর উপজেলার দুর্গম চরের কাঁশবন থেকে তাকে উদ্ধার করে। এর সঙ্গে জড়িত অপহরণকারী চক্রের চার সদস্যকে আটকের পর এসব তথ্য জানিয়েছে র‌্যাব।

আটকরা হলেন- শাহ জালাল (৩২), মো. ফয়সাল (২২), জয়নাল হাজারী (৩০) ও রাকিব (২২)।

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান র‌্যাব-৪ এর অধিনায়ক (সিও) অতিরিক্ত ডিআইজি মো. মোজাম্মেল হক।

র‌্যাব জানায়, সম্প্রতি ১২ লাখ টাকায় প্রাইভেটকার (ঢাকা মেট্রো-গ ২৭-৬৮৮৯) কিনে ভাড়ায় চালানো শুরু করেন এনায়েত উল্লাহ। গত ১৯ আগস্ট সন্ধ্যা সাতটার দিকে রুপনগরের শিয়ালবাড়ী মোড় থেকে মাদারীপুর যাওয়ার কথা বলে উঠেন দুই জন।

পদ্মা পার হয়ে রাত দুইটায় কাঠালবাড়ী এলাকায় পৌঁছলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে গাড়ি থামানোর নির্দেশ দেয় তিন জন। তারা তল্লাশির নাম করে প্রাইভেটকারটির নিয়ন্ত্রণে নেয়।

এরপর এনায়েত উল্লাহর হাত পা বেঁধে শিবচরের একটি ছোট ঘরে আটকে রাখে। প্রাইভেটকারটি অপহরণকারীরা ফরিদপুরের সদরপুরে আটরশির জাকের মঞ্জিলের পার্কিং এ লুকিয়ে রাখে।

অপহরণকারীরা এনায়েত উল্লাহকে চার দিন ধরে আটকে রেখে নির্যাতন চালায়। মোবাইল ফোনে পরিবারের সদস্যদের মারধরের শব্দ, কান্নার চিৎকার শুনিয়ে তার পরিবারের নিকট ১০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে।

বড় ভাই কেফায়েত উল্লাহর মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করে পাঁচ লাখ টাকা মুক্তিপণ দেওয়ার কথা বলেন। আর অপহরণকারীরা বলেন, এ কথা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জানালে এনায়েতকে খুন করা হবে। তবে কেফায়েত উল্লাহ রূপনগর থানায় সাধারণ ডায়েরি করে র‌্যাব-৪ এর সহযোগিতা চান।

জিজ্ঞাসাবাদে আটকরা নয়ন তারা (২৩), সজিব (২২), রেজাউল (২৮), রবমিয়া (২৪), কামরুল (২৫) এবং মেহেদী হাসান (২৩) নামে জড়িত আরও ৬ জনের নাম প্রকাশ করেছে।

র‌্যাব-৪ সিইও বলেন, আটকরা গত তিন বছর ধরে বিভিন্ন পন্থায় গাড়ি চালক, মালিক, ব্যবসায়ীদের টার্গেট করে। মোবাইলফোন নম্বর সংগ্রহ করে বিভিন্ন ধরনের প্রলোভন ও কৌশলে অপহরণ করে মুক্তিপণ আদায় করে আসছিল। আটকদের সঙ্গে জড়িত অপহরণকারী চক্রের বাকি সদস্যদের আটকের চেষ্টা চলছে।

সেনাবাহিনীর গাড়িতে গুলি, পাল্টা গুলিতে সন্ত্রাসী নিহত
                                  

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি: রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে সেনাবাহিনীর গাড়িতে সন্ত্রাসীদের গুলি বর্ষণের পর সেনাবাহিনীর পাল্টা গুলিতে সুমন চাকমা নামে এক ইউপিডিএফ সদস্য নিহত হয়েছেন। শুক্রবার বেলা ১১টার দিকে উপজেলার বাঘাইহাট উজু বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
নিহত সুমন চাকমা বাঘাইহাট-সাজেক এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী ও ইউপিডিএফ (প্রসীত খীসা) পক্ষের সদস্য। তিনি নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট শক্তিমান চাকমা হত্যা মামলার অন্যতম আসামি।
রাঙ্গামাটির ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. শফিউল্লাহ জানান, শুক্রবার বেলা পৌনে ১১টার দিকে বাঘাইহাট জোনের সেনা টহল দলের একটি পিকআপে সন্ত্রাসীরা গুলি বর্ষণ করলে সেনাবাহিনী পাল্টা জবাব দেয়। এতে গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলে সুমন চাকমা নিহত হন। পরে সুমনের কাছ থেকে একটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে সন্ত্রাসীদের ধরতে সেনাবাহিনীর টহল জোরদার করে অভিযান চালানো হচ্ছে।

সৌদি আরবে এরও এক বাংলাদেশি হাজির মৃত্যু
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: পবিত্র হজ পালন শেষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আবদুল গনি (৮৮) নামে এক বাংলাদেশি হাজি ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। গতকাল (২২ আগস্ট) তার মৃত্যু হয়। তার পাসপোর্ট নম্বর- ০৩৭১৪০০, গ্রামের বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায়।

এদিকে পবিত্র হজ পালন শেষে দেশে ফিরেছেন ২৪ হাজার ৭৩৫ জন হাজি। মোট ৬৮ টি ফ্লাইটযোগে তারা দেশে ফিরে এসেছেন। এর মধ্যে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ২৯টি ও সৌদি এয়ারলাইন্সের ৩৯টি ফ্লাইট রয়েছে।

গত ১৭ আগস্ট ফিরতি হজ ফ্লাইট শুরু হয়। চলবে ১৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত।

ভাষাসৈনিক ডা. এম এ গফুর আর নেই
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট:  ১৯৫২ সালে ভাষা আন্দোলনে নেতৃত্বদানকারী ভাষাসৈনিক ডা. এম এ গফুর আর নেই। আজ শুক্রবার ভোরে রাজধানী ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৮ বছর।

আজ বাদ জুমা চাঁদপুর পৌর ঈদগাহ মাঠে মরহুমের জানাজা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। পরে স্থানীয় পৌর গোরস্তানে তাঁকে দাফন করা হবে।

তাঁর মৃত্যুতে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এমপিসহ বিভিন্ন ব্যক্তি ও সংগঠন গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।    

দেশের স্বাধীনতার সংগ্রামসহ বিভিন্ন আন্দোলনে দক্ষ সংগঠক তিনি। চিকিৎসা শাস্ত্রে মেডিসিন ও রেডিওগ্রাফিতে দেশ-বিদেশে পড়াশোনা শেষে চাঁদপুরেই মৃত্যু পর্যন্ত সমাজসেবায় জড়িত ছিলেন এই ভাষাসৈনিক।

চাঁদপুর ডায়াবেটিস হাসপাতাল, বিএনএসবি মাজহারুল হক চক্ষু হাসপাতালসহ অসংখ্য প্রতিষ্ঠান ও সংগঠন প্রতিষ্ঠা করেন তিনি।



এনজিওদের তৎপরতা রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাধা: পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: কিছু এনজিওর তৎপরতা রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। বৃহস্পতিবার এক বৈঠকে মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে এই অভিযোগ শুনে ওই এনজিওগুলোকে চিহ্নিত করার সুপারিশ করেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি।

এক বছর আগে প্রথম দফার পর বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফায় প্রত্যাবাসন পরিকল্পনা ভেস্তে যাওয়ার দিনই সংসদ ভবনে সংসদীয় কমিটির বৈঠকে বিষয়টি আলোচনায় ওঠে।

নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা লাখ লাখ রোহিঙ্গা শরণার্থীদের একাংশকে এদিন ফেরত পাঠানোর পরিকল্পনা হলেও তারা যেতে রাজি হয়নি।

রোহিঙ্গাদের না যাওয়ার সিদ্ধান্তের ক্ষেত্রে মিয়ানমারের প্রতি তাদের অনাস্থার বিষয়টিই প্রকাশ পেয়েছে। বিষয়টি দুঃখজনক আখ্যায়িত করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেনও বলেন, রোহিঙ্গাদের আস্থার যে ঘাটতি আছে, তা মিয়ানমারকেই দূর করতে হবে।

মিয়ানমারে ফিরব না- প্ল্যাকার্ড হাতে রোহিঙ্গারা
সংসদীয় কমিটির বৈঠকে আলোচনার পর কমিটির সভাপতি মুহাম্মদ ফারুক খান বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে আমাদের জানানো হয়েছে, কিছু কিছু এনজিও রোহিঙ্গাদের বোঝাচ্ছে, তারা যেন নিজ দেশে না যায়।

“এনজিওরা বোঝাচ্ছে, নাগরিকত্বসহ কিছু শর্ত পূরণ না হলে যেন তারা না ফিরে যায়।”

“কমিটি এসব এনজিওদের কাজ মনিটরিং করে তাদের চিহ্নিত করতে বলেছে,” বলেন তিনি।

বাংলাদেশের কক্সবাজারে আশ্রয় নেওয়া ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা যে সব শরণার্থী শিবিরে রয়েছে, সেখানে বিভিন্ন এনজিও কাজ করছে। জাতিসংঘ শরণার্থী সংস্থা ইউএনএইচসিআরও কাজ করছে সেখানে।

রোহিঙ্গাদের নিয়ে কাজ করা দেশি-বিদেশি এনজিওর কর্মকাণ্ড নিয়ে কিছু দিন আগে আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটির এক বৈঠকেও প্রশ্ন তোলা হয়েছিল।

কমিটির সভাপতি মুক্তিযুদ্ধবিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছিলেন, কিছু এনজিও সেখানে ‘ইল মোটিভ’ নিয়ে কাজ করছে বলে গোয়েন্দা তথ্য রয়েছে।

বাংলাদেশের আহ্বানে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের চাপের মুখে মিয়ানমার ৭ লাখ শরণার্থীকে ফেরত নিতে রাজি হলেও রোহিঙ্গারা তাদের নাগরিকত্ব এবং রাখাইন রাজ্যে নিরাপত্তার সঙ্গে বসবাস নিশ্চিতসহ কয়েকটি শর্ত দিয়েছে।

তারা বলছে, মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর আগে তাদের নাগরিকত্ব, জমি-জমা ও ভিটেমাটির দখল, নিরাপত্তা নিশ্চিত এবং ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। এদিকে আর বাংলাদেশও বলছে, জোর করে কোনো শরণার্থীকে ফেরত পাঠানো হবে না।

সংসদ সচিবালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, রোহিঙ্গাদের দ্রুত নিজ দেশে ফেরত পাঠাতে কূটনৈতিক তৎপরতা জোরদার করার পাশাপাশি রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কাজ করা এনজিওদের কার্যক্রম তদারকির সুপারিশ করা হয়।

রোহিঙ্গারা যাতে নিজ দেশে ফেরার বিষয়ে উৎসাহী হয় সেজন্য সরেজমিন পরিস্থিতি দেখতে রোহিঙ্গাদের একটি প্রতিনিধি দলকে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে পাঠানোর ব্যবস্থা নিতে মন্ত্রণালয়কে ব্যবস্থা নিতে বলেছে সংসদীয় কমিটি।
যে সব কারণে মিয়ানমারে ফিরতে চান না রোহিঙ্গারা
মিয়ানমারের অভ্যন্তরে রোহিঙ্গাদের জন্য একটি ‘সেইফ জোন’ সৃষ্টির প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখার পাশাপাশি রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে আলোচনার জন্য সংসদীয় কমিটির সদস্যদের সংশ্লিষ্ট দেশ সিঙ্গাপুর, থাইল্যান্ড ও ভিয়েতনাম সফরের ব্যবস্থা করতেও সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি।

ফারুক খানের সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে এ মোমেন, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, নুরুল ইসলাম নাহিদ, গোলাম ফারুক খন্দকার প্রিন্স, আব্দুল মজিদ খান, কাজী নাবিল আহমেদ  ও নিজাম উদ্দিন জলিল (জন) অংশ নেন।

পররাষ্ট্র সচিব মো. শহীদুল হক, মন্ত্রণালয়ের মেরিটাইম অ্যাফেয়ার্স ইউনিটের সচিব খোরশেদ আলমসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারাও উপস্থিত ছিলেন বৈঠকে।

ডাক্তারসহ ৩০০ স্বাস্থ্যকর্মী ডেঙ্গু আক্রান্ত
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: রোগীদের সেবায় নিয়োজিত ৯৪ ডাক্তারসহ ৩০০ স্বাস্থ্যকর্মী ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। বুধবার অধিদফতরের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। গত জুনে ঢাকায় ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ার পর ক্রমশ তা বেড়েছে। সরকারি হিসাবে এ বছর ডেঙ্গুতে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৯ হাজার ৫৯২ জন।

এতে বলা হয়, সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হয়েছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ডাক্তার-নার্সরা। একক হিসাবে সবচেয়ে বেশি ডেঙ্গু রোগী সামলানো এই সরকারি হাসপাতালের ২৫ জন ডাক্তারসহ ৬২ জন কর্মী এ বছর ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন।

বর্তমানে ডেঙ্গু আক্রান্ত ৬ জন ডাক্তার এবং ১২ জন নার্স রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন বলে জানিয়েছে অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশনস সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম।

এদের বাইরে কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে দুইজন এবং কুয়েত-বাংলাদেশ মৈত্রী সরকারি হাসপাতালে দু`জন হাসপাতাল কর্মী ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন আছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, গত ১ জানুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত ৯৪ জন চিকিৎসক, ১৩০ জন নার্স এবং ৭৬ জন হাসপাতালকর্মী ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।

ড্রিমলাইনার ‘গাঙচিল’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের বহরে  যুক্ত হয়েছে বিশ্বের সর্বাধুনিক প্রযুক্তির আরো একটি উড়োজাহাজ ড্রিমলাইনার বোয়িং ৭৮৭-৮ ‘গাঙচিল’। আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ভিভিআইপি টার্মিনাল থেকে ‘গাঙচিল’ এর উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর উড়োজাহাজটিতে আরোহণ করেন প্রধানমন্ত্রী এবং ককপিটসহ বিভিন্ন অংশ ঘুরে দেখেন।

এদিকে আজই বাণিজ্যিক যাত্রা শুরু করবে ড্রিমলাইনার বোয়িং ৭৮৭-৮ ‘গাঙচিল’। বিকাল সাড়ে পাঁচটায় উদ্বোধনী ফ্লাইটে আবুধাবির উদ্দেশে যাত্রা করবে উড়োজাহাজটি।

যুক্তরাষ্ট্রের সিয়াটল থেকে গত ২৫ জুলাই দেশে আসে ‘গাঙচিল’। এর ফলে বিমানের বহরে অত্যাধুনিক ড্রিমলাইনারের সংখ্যা হলো তিনটি। আগের দুটি হলো আকাশবীণা, হংসবলাকা। এ নিয়ে বিমানবহরে মোট উড়োজাহাজের সংখ্যা দাঁড়াল ১৫টি।

২০০৮ সালে মার্কিন উড়োজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং কোম্পানির সঙ্গে ১০টি নতুন উড়োজাহাজ কেনার চুক্তি করে বিমান। এগুলোর মধ্যে চারটি বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ইআর, দুটি নতুন বোয়িং ৭৩৭-৮০০ ও দুটি বোয়িং ৭৮৭-৮ ড্রিমলাইনার বিমানবহরে যুক্ত হয়েছে। সর্বশেষ ড্রিমলাইনারটি আগামী সেপ্টেম্বর মাসে দেশে আসতে পারে। বিমানের চারটি ড্রিমলাইনারের নাম বাছাই করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর মধ্যে আকাশবীণা, হংসবলাকা ২০১৮ সালে বাংলাদেশে এসেছে। চতুর্থ ড্রিমলাইনারের নাম রাজহংস।

ড্রিমলাইনার ‘গাঙচিল’ একটানা ১৬ ঘণ্টা উড়তে পারে। এটি অন্যান্য উড়োজাহাজের তুলনায় ২০ শতাংশ কম জ্বালানি খরচ হয়। গাঙচিলের আসনসংখ্যা ২৭১টি। এর মধ্যে বিজনেস ক্লাস ২৪টি এবং ২৪৭টি ইকোনমি ক্লাসে আসন রয়েছে। বিজনেস ক্লাসের ২৪টি আসন ১৮০ ডিগ্রি পর্যন্ত রিক্লাইন্ড সুবিধা এবং সম্পূর্ণ ফ্ল্যাটবেড হওয়ায় যাত্রীরা আরামদায়ক ও স্বাচ্ছন্দ্যের সঙ্গে ভ্রমণ করতে পারবেন। এ ছাড়া প্রতিটি আসনের সামনে প্যানাসনিক এলইডি এস-মনিটর রয়েছে। একই সঙ্গে ড্রিমলাইনারের ইন-ফ্লাইট এন্টারটেইনমেন্ট সিস্টেমে (আইএফই) থাকবে ১০০টির বেশি ক্ল্যাসিক থেকে ব্লকবাস্টার চলচ্চিত্র। অত্যাধুনিক বোয়িং ৭৮৭-৮ ড্রিমলাইনার সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ৪৩ হাজার ফুট ওপর দিয়ে উড়ে যাওয়ার সময়ও ওয়াইফাই সুবিধা পাবেন যাত্রীরা। বিমানে ওয়াইফাইয়ের মাধ্যমে প্রত্যেক যাত্রী ১৫ মিনিটের জন্য বিনা মূল্যে ১০ মেগাবাইট ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারবেন।

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু হতে পারে আজ
                                  

কক্সবাজার প্রতিনিধি : মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের প্রত্যাবাসনে প্রস্তুত বাংলাদেশ। তবে প্রত্যাবাসন শুরু করা যাবে কিনা তা নির্ভর করছে রোহিঙ্গাদের উপর। প্রত্যাবাসনের জন্য মিয়ানমারের ছাড়পত্র পাওয়া তালিকার মধ্যে সাক্ষাৎকারে অংশ নেওয়া ২২৫টি পরিবারের যারা স্বেচ্ছায় মিয়ানমারে ফিরতে আগ্রহী হবেন তাদের আজ বৃহস্পতিবার ঘুমধুম মৈত্রী সেতু দিয়ে মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর কথা রয়েছে।

শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মো. আবুল কালাম কক্সবাজারে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের জন্য প্রস্তুত রয়েছে বাংলাদেশ।

তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত যেকোনো সময়ে প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া সূচনার লক্ষ্যে ৫টি বাস ও ৫টি ট্রাক টেকনাফের শালবন ক্যাম্পে থাকবে। যারা মিয়ানমারে ফিরবেন তাদের মালামাল বহনে এসব পরিবহন রাখা হয়েছে। এই প্রক্রিয়াকে নিরাপদ করতে ক্যাম্প ও সীমান্ত এলাকায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

রোহিঙ্গারা বলছেন, নাগরিকত্বসহ তাদের প্রধান তিনটি দাবি পূরণ না হলে তারা মিয়ানমারে ফিরে যাবে না।

কক্সবাজারের উখিয়ায় ১৩ নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরে বাস করেন খিন মং। একইসঙ্গে রোহিঙ্গাদের অধিকার আদায়ের পক্ষে কাজ করা সংগঠন রোহিঙ্গা ইয়ুথ অ্যাসোসিয়েশনের প্রতিষ্ঠাতা তিনি। খিন মন জানান, এই মুহূর্তে রোহিঙ্গা শিবিরের পরিস্থিতি স্বাভাবিক। ইউএনএইচসিআরসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ জোর করে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন না করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। তারপরও জোর করে ফেরত পাঠানো হবে কি না, সেজন্য তাদের মধ্যে এক ধরনের ভয় কাজ করছে।

আরাকান রোহিঙ্গা সোসাইটি ফর পিস অ্যান্ড হিউম্যান রাইটসের চেয়ারম্যান মুহিব উল্লাহ বলেন, গতমাসে মিয়ানমার প্রতিনিধিদলের সঙ্গে আমাদের বৈঠকের সিদ্ধান্ত মতে, দু’মাসের মধ্যে তারা আবার এসে আমাদের সঙ্গে সংলাপে বসার কথা। কিন্তু এরমধ্যে হঠাৎ করে প্রত্যাবাসন শুরুর বিষয়টি নিয়ে আমরা হতবাক হয়েছি। বিশেষ করে নাগরিকত্ব, নিরাপত্তা ও নিজ ভিটেবাড়িতে ফেরত পাঠানোর দাবি পূরণ না হলে কোনো রোহিঙ্গা মিয়ানমারে ফিরে যাবে না।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের ২৫শে আগস্টের পর মিয়ানমার থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেন কয়েক লাখ রোহিঙ্গা। এরপর জাতিসংঘসহ নানা সংস্থার নানা উদ্যোগের পর বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের সরকারের আলোচনায় রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। ২০১৮ সালের ২৩শে জানুয়ারি প্রত্যাবাসন শুরুর কথা থাকলেও, শেষ পর্যন্ত তা আর হয়নি।

এছাড়া গত বছরের ১৫ নভেম্বর রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের প্রথম সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়েছিল। কিন্তু রোহিঙ্গারা রাজি না হওয়ায়, একজনকেও ফেরত পাঠানো যায়নি। আজও যদি কেউ রাখাইনে ফিরতে না চায়, তাহলে এ নিয়ে আরেক দফা ব্যর্থ হবে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের চেষ্টা।

এডিসের লার্ভা বাড়ীতে, ২ লাখ টাকা জরিমানা
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: রাজধানীর গুলশানে দু’টি বাড়িতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় ২ বাড়ীওয়ালাকে ২ লাখ টাকা জরিমানা করেছেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) ভ্রাম্যমাণ আদালত। আজ বুধবার গুলশানে ডিএনসিসির কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন বলেন, ডিএসিসির ১৯ নম্বর ওয়ার্ডে দ্বিতীয় দিনের মতো আজ অভিযান চালানো হল। মোট ২০১টি বাড়ি পরিদর্শন করে ১৫টি বাড়িতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া গেছে। তাদের সতর্ক করে দেয়া হয়েছে এবং ‘সাবধান এই বাড়িতে মশার লার্ভা পাওয়া গেছে’ লেখা স্টিকার লাগিয়ে দেয়া হয়েছে।

হজ পালন শেষে দেশে ফিরেছেন গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী
                                  

স্বাধীন বাংলা রিপোর্ট: পবিত্র হজ পালন শেষে সৌদি আরব থেকে দেশে ফিরেছেন গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম। আজ বুধবার দুপুরে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে তিনি ঢাকা পৌঁছেন।

পবিত্র হজ পালনকালে মন্ত্রী দেশ ও জাতির শান্তি ও কল্যাণ কামনায় দোয়া করেছেন মর্মে জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, গত ২৮ জুলাই ২০১৯ তারিখে পবিত্র হজ পালনের জন্য সৌদি আরবের উদ্দেশ্যে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী সস্ত্রীক ঢাকা ত্যাগ করেন।

নোটিশ ছাড়া কারখানা বন্ধ : প্রতিবাদে শ্যামলীতে শ্রমিকদের সড়ক অবরোধ
                                  

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর শ্যামলিতে নোটিশ ছাড়া ও বকেয়া বেতন পরিশোধ না করে কারখানা বন্ধের প্রতিবাদে সড়কে নেমে বিক্ষোভ করেছে আলিফ অ্যাপারেলস নামে একটি পোশাক কারখানার শ্রমিকরা।

শ্রমিকরা জানান, গত ১১ আগস্ট তারা ঈদের ছুটিতে যান। ছুটির পর আজ গার্মেন্টস খোলার কথা ছিল। কিন্তু সকালে গিয়ে তারা কারখানার গেটে তালা দেখতে পান। সেখানে আজ থেকে গার্মেন্ট বন্ধ এমন একটি নোটিশ গেটে টাঙ্গিয়ে দেয়া হয়। এতে বিক্ষুব্ধ হয়ে শ্রমিকরা সড়কে নেমে পড়েন।

সড়ক বন্ধ করে প্রতিবাদ করায় শ্যামলী থেকে কল্যাণপুরের সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শ্রমিকদের সড়ক থেকে সরানোর চেষ্টা করেন। প্রায় দেড় ঘণ্টা পর শ্রমিকরা সড়ক ছেড়ে দিলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

অবরোধে অংশ নেয়া বিক্ষুব্ধ শ্রমিক আলেয়া বেগম বলেন, আমাদের না জানিয়ে সকালে গার্মেন্ট বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আমাদের অন্তত একবার জানাতে পারতো। আমরা বেতন পাইনি, গার্মেন্টের গেটের সামনে ২ ঘণ্টা ধরে বসা। কেউ কোন কথা বলে না। কেউ কোন সমাধান দিতে না পাড়ায় আমরা রাস্তায় অবস্থান নিয়েছি।

আরেক শ্রমিক বলেন, বিজিএমইএ’র বিধান অনুযায়ী একটি গার্মেন্ট বন্ধের তিন মাস আগে শ্রমিকদের অবহিত করে তাদের পাওনা পরিশোধ করতে হয়। আমাদের বেতন-বোনাসসহ পাওনা টাকা দিতে হবে। এই দাবি পূরণ না হলে আমরা সড়কেই থাকব।

সাখাওয়াত হোসেন নামে এক শ্রমিক বলেন, একই গার্মেন্টে পাওনা বেতনের জন্য কয়েকমাস আগে আমরা সড়কে নেমে আন্দোলন করেছিলাম। তখন মালিকপক্ষ বলেছিল ৬ মাসের মধ্যে আমাদের পাওনা পরিশোধ করে দেবে। কিন্তু এখন কিছু না বলে হঠাৎ গার্মেন্ট বন্ধ করে দিলো।

শ্রমিক রুহুল জানায়, আগে থেকে নোটিশ দিয়ে গার্মেন্টস বন্ধ করে দেওয়া হয়নি। এমনকি তাদের বেতনও বকেয়া রয়েছে। সকাল থেকে গার্মেন্টসের কেউ কোনো কথা বলেনি। কেউ কোনো সমাধান দিতে পারেনি। গার্মেন্টস বন্ধের তিন মাস আগে শ্রমিকদের অবহিত করে তাদের পাওনা পরিশোধ করতে হয়। এসব কিছু না করায় বাধ্য হয়ে রাস্তায় অবস্থান নেন।

মোহাম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিজি বিশ্বাস বলেন, সাড়ে এগারেটার দিকে গার্মেন্টসকর্মীরা সড়ক ছেড়ে দিয়েছে। এখন যান চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।


   Page 1 of 255
     জাতীয়
ওএসডি হচ্ছেন জামালপুরের সেই ডিসি, ভিডিও আন্তর্জাতিক পর্ন সাইটে
.............................................................................................
মোজাফফর আহমদের ১ম জানাজা অনুষ্ঠিত
.............................................................................................
মোজাফফর আহমদের মরদেহে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
.............................................................................................
অক্টোবরে ভারত যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী, অমীমাংসিত সমস্যা সমাধানের প্রত্যাশা
.............................................................................................
১ দিনে ১৪৪৬ রোগী হাসপাতালে ভর্তি
.............................................................................................
গাড়ি ছিনতাইয়ে অভিনব কৌশল
.............................................................................................
সেনাবাহিনীর গাড়িতে গুলি, পাল্টা গুলিতে সন্ত্রাসী নিহত
.............................................................................................
সৌদি আরবে এরও এক বাংলাদেশি হাজির মৃত্যু
.............................................................................................
ভাষাসৈনিক ডা. এম এ গফুর আর নেই
.............................................................................................
এনজিওদের তৎপরতা রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাধা: পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়
.............................................................................................
ডাক্তারসহ ৩০০ স্বাস্থ্যকর্মী ডেঙ্গু আক্রান্ত
.............................................................................................
ড্রিমলাইনার ‘গাঙচিল’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু হতে পারে আজ
.............................................................................................
এডিসের লার্ভা বাড়ীতে, ২ লাখ টাকা জরিমানা
.............................................................................................
হজ পালন শেষে দেশে ফিরেছেন গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী
.............................................................................................
নোটিশ ছাড়া কারখানা বন্ধ : প্রতিবাদে শ্যামলীতে শ্রমিকদের সড়ক অবরোধ
.............................................................................................
অনিশ্চিত ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ
.............................................................................................
আজ সেই ভয়াল দিন
.............................................................................................
‘ডেঙ্গু পরিস্থিতি স্থিতিশীল’ বললেন মেয়র খোকন
.............................................................................................
আসামের নাগরিকত্ব ইস‌্যু ‘ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়’: জয়শঙ্কর
.............................................................................................
এবার ডেঙ্গুতে প্রাণ হারালো পাকুন্দিয়ার যুবক রাসেল
.............................................................................................
তিন জেলায় ডেঙ্গুতে আরও তিনজনের মৃত্যু
.............................................................................................
৯৫ শতাংশ বস্তি পুড়ে ছাই
.............................................................................................
নরসিংদীতে বাস-প্রাইভেটকার সংঘর্ষে দম্পতিসহ নিহত ৪
.............................................................................................
খুনিদের ফেরাতে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা জোরদার করা হয়েছে
.............................................................................................
গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেল ৮ জনের
.............................................................................................
টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
.............................................................................................
সাগরে লঘুচাপ, সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সংকেত
.............................................................................................
ঈদের ছুটিতে ডেঙ্গুতে প্রাণ হারালেন আরও ২ জন
.............................................................................................
ঈদ উদযাপনে আজও ঢাকা ছাড়ছে মানুষ
.............................................................................................
ট্রেনের শিডিউল বিপর্যয়ে দুর্ভোগে যাত্রীরা
.............................................................................................
দেশে ফিরলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
ঈদ সামনে রেখে ডেঙ্গু বেপরোয়া
.............................................................................................
ঈদে নাড়ির টানে বাড়ি ফিরছেন নগরবাসী
.............................................................................................
ডেঙ্গু কেড়ে নিল আরও ৩ জনের প্রাণ
.............................................................................................
ডেঙ্গুতে প্রাণ গেল অন্তঃসত্ত্বা নারীর
.............................................................................................
তিন জেলায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ৫
.............................................................................................
দীর্ঘমেয়াদী ডেল্টাপ্ল্যান
.............................................................................................
ডেঙ্গু প্রতিরোধে যা যা করার আমরা তাই করবো : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
লোকসানের আশঙ্কায় গরু ব্যবসায়ীরা
.............................................................................................
এডিস মশা নিয়ন্ত্রণের কৌশল উদ্ভাবন
.............................................................................................
সোমবার পর্যন্ত বজ্র-বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে: আবহাওয়া অধিদপ্তর
.............................................................................................
ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে মনিটরিং সেল হচ্ছে: কাদের
.............................................................................................
ঢামেকে কমেছে ডেঙ্গু রোগী, ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি ৫৪
.............................................................................................
ডেঙ্গু প্রতিরোধে পরিচ্ছন্নতা অভিযানে ৫০ হাজার পুলিশ : আছাদুজ্জামান মিয়া
.............................................................................................
১২ আগস্ট পবিত্র ঈদুল আজহা
.............................................................................................
ডেঙ্গু মোকাবিলায় সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে : ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
কমলাপুরে তিল ধারণের ঠাঁই নেই
.............................................................................................
সামনে বিপদের আশঙ্কা
.............................................................................................
এ মাস শুধুই শোকের
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Nytasoft